শান্তিনিকেতন থানায় পুলিশকাকুদের উদ্যোগে ঝোপড়িবাসী কচিকাঁচাদের নিয়ে ভাইফোঁটা

0
633
bhaifota at shantiniketan ps

নিজস্ব সংবাদদাতা, শান্তিনিকেতন : আজ শনিবার ভাইফোঁটা। ভাইদের মঙ্গল কামনা করে দিদি বা বোনেরা। আর একে ঘিরেই পারিবারিক উৎসব।

কিন্তু এমন অনেক মানুষ আছেন যাঁদের ভাগ্যে এই ফোঁটাটুকুও জোটে না। তাই অভিনব উদ্যোগ শুরু করল বীরভূম জেলা পুলিশ। বোলপুরে মহকুমা পুলিশ অফিসার হয়ে আসার পর বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের সঙ্গে নিজেকে জড়িয়ে নেন অম্লানকুসুম ঘোষ। অম্লানবাবু বর্তমানে বোলপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার।

শান্তিনিকেতন থানা এলাকার রেললাইনের ধারে ঝোপড়ি বানিয়ে অনেক গরিব মানুষ বাস করেন। তাঁদের শিশুসন্তানদের কী ভাবে উন্নতি করা যায় তা নিয়ে চিন্তাভাবনা শুরু করেন অম্লানবাবু। সেই চিন্তারই ফলশ্রুতি একটি স্কুল। শান্তিনিকেতন থানাতেই একটি স্কুল চালু করেন তিনি, যেখানে পড়াশোনা করে মানুষের মতো মানুষ হবে ওই এলাকার বাচ্চারা।

শনিবার সেই সব শিশুকে নিয়ে ভাইফোঁটায় মাতলেন পুলিশকর্মীরা। পুলিশ বিভাগে এমন অনেকে আছেন যাঁদের দিদি বা বোন থাকলেও কাজের চাপের জন্য ছুটি পান না। তাঁদের কথা ভেবে এবং ঝোপড়িবাসী বাচ্চাদের কথা মনে রেখে এই আয়োজন। এখানে শুধু পুলিশরাই ফোঁটা নেননি, শান্তিনিকেতনের যাঁদের ছেলেমেয়েরা বিদেশে থাকেন, যাঁরা এখানে একা থাকেন, তাঁদেরও আমন্ত্রণ জানানো হয় এই উৎসবে। কচিকাঁচারা কবিতা পাঠ করে, নেচে, গান করে গোটা অনুষ্ঠানটি রমণীয় করে তোলে। খাওয়াদাওয়ারও ব্যবস্থা ছিল সকলের জন্য। পুলিশকাকুদের বদান্যতায় এই আনন্দ উৎসবের ব্যবস্থা, রীতিমতো খুশি কচিকাঁচাগুলো।

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here