মাসুদ আজহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারির প্রস্তাবে ফের বিরোধিতা চিনের

0
84

নিউ ইউর্ক: মাসুদ আজহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের জন্য রাষ্ট্রপুঞ্জে দরবার করল যুক্তরাষ্ট্র-সহ তিনটে দেশ। কিন্তু বাধা হয়ে দাঁড়াল চিন। গত বছর ডিসেম্বরে আজহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের জন্য রাষ্ট্রপুঞ্জে দাবি করেছিল ভারত, সে বারও তীব্র বিরোধিতা করেছিল চিন।

মার্কিন প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, জানুয়ারির শেষ দিকে রাষ্ট্রপুঞ্জের নিষেধাজ্ঞা কমিটির কাছে মাসুদ আজহারের উপর নিষেধাজ্ঞা জারির প্রস্তাব এনেছিল যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাষ্ট্রের এই প্রস্তাবকে সমর্থন করেছিল ব্রিটেন আর ফ্রান্স। প্রস্তাবে বলা হয়েছিল, মাসুদ আজহারের দল জঈশ-এ-মহম্মদ একটি জঙ্গিগোষ্ঠী। সেই দলের কোনো নেতা মুক্ত থাকতে পারেন না।

সূত্রের খবর, যুক্তরাষ্ট্রের পেশ করা এই প্রস্তাব ‘হোল্ড’ করে দেয় চিন। ‘হোল্ড’ হচ্ছে ‘ব্লক’ করার আগের ধাপ। যদি চিন ‘ব্লক’ করে দিত তা হলে আবার নতুন করে প্রস্তাব আনতে হত। আপাতত ছ’মাসের জন্য ‘হোল্ড’ কার্যকর থাকবে। সেই সময়সীমা শেষে আরও তিন মাসের জন্য তা বাড়ানো যেতে পারে। চিন যদি মনে করে, তা হলে এই প্রস্তাব ‘ব্লক’ও করে দিতে পারে। এর আগে গত ডিসেম্বরে, আজহারের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা সংক্রান্ত ভারতের প্রস্তাব ‘ব্লক’ করেছিল চিন।

উল্লেখ্য, আজহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপিত হলে তার সমস্ত সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হত। নিজের দেশ পাকিস্তানেও ভ্রমণ করতে পারত না সে। তবে এই নতুন নয়, আজহারের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের বরাবর বিরোধিতা করে আসছে চিন। বিশেষজ্ঞদের মতে, সব সময়ের মিত্র দেশ পাকিস্তানকে ‘তুষ্ট’ রাখার জন্যই এই পদক্ষেপ নেয় চিন।   

 এই ঘটনার প্রেক্ষিতে ভারতের বিদেশমন্ত্রকের মুখপাত্র বিকাশ স্বরূপ বলেন, “এই সিদ্ধান্তের ফলে একটি জঙ্গিগোষ্ঠীর নেতার বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিতে পারবে না রাষ্ট্রপুঞ্জ। আমরা ভেবেছিলাম সন্ত্রাসবাদের ব্যাপারে কিছু উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ করবে চিন। সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে এই লড়াইয়ে ভারতের পাশে দাঁড়াবে তারা, এই আশা ছিল আমাদের।”

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here