সিউড়ির পথশিশু ও বঞ্চিত মানুষের পাশে বাঁকুড়ার ‘স্মরণ’

0
424
smaran of bankura in suri

ওয়েবডেস্ক: ১২ জানুয়ারি সবাই যখন স্বামী বিবেকানন্দের ১৫৬তম জন্মবার্ষিকীতে যুব দিবস আর মাস্টারদা সূর্য সেনের আত্মত্যাগ-দিবস উদযাপনে ব্যস্ত, তখন বাঁকুড়া থেকে সুদূর ১১০ কিমি দূরের বীরভূমের সদর শহর সিউড়িতে গিয়ে সেখানকার ১০০ জন পথশিশু ও বঞ্চিত মানুষের মুখে হাসি ফোটাল বাঁকুড়ার কয়েক জন তরুণ ছাত্রছাত্রী৷ এ এক অন্য রকম অনুভূতি৷

আজকের দিন মানবিক মুখ খুব কমই দেখা যায়৷ সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে প্রত্যেক মাসে ১০০ জন করে পথশিশুর মুখে হাসি ফুটিয়ে চলেছে ‘স্মরণ’৷ ‘স্মরণ’-এর সঙ্গে যুক্ত তরুণরা সবাই ছাত্রছাত্রী৷ কেউ ইঞ্জিনিয়ারিং-এর ছাত্র, কেউ বা আবার বিএড পাঠরত৷ ‘স্মরণ’-এর জন্য তাঁরা গর্ব অনুভব করেন৷

‘স্মরণ’-এর কর্মকাণ্ড প্রসঙ্গে সংস্থার অন্যতম উদ্যোক্তা শুভজিৎ বলেন, “ওয়ার্ল্ড ইউথ ডে-তে কথা রাখল ‘স্মরণ’। আমরা ছিলাম বীরভূমের সিউড়িতে।  ইতিমধ্যে বেশ কিছু শুভানুধ্যায়ী মানুষের ফোন পেয়ে আমরা আপ্লুত। তাঁরা ‘স্মরণ’-এর পাশে থাকতে চান জেনে আমরা সত্যি আনন্দিত।”

আগামী দিনগুলোতে ‘স্মরণ’-এর কিছু কর্মসূচির কথা জানালেন শুভজিৎ –

এক, আগামী ২৭ ফেব্রুয়ারি ‘স্মরণ’ থাকছে মেদিনীপুরে।

দুই, আন্তর্জাতিক নারী দিবসে থাকছে বাঁকুড়ায়।

তিন, জুলাই মাসের কোনো এক দিন বর্ধমানের কাটোয়ায়।

চার, জুলাই মাসে বাঁকুড়া জেলায় (স্থান নির্বাচন হয়নি)।

শুভজিৎ জানিয়েছেন, কেউ যদি বিশেষ কোনো দিন বা নির্দিষ্ট কোনো তারিখ স্মরণীয় করে রাখতে ‘স্মরণ’-কে নিয়ে পথশিশুদের পাশে দাঁড়াতে চান, তা হলে পশ্চিমবাংলার যে কোনো প্রান্তে, যে কোনো জায়গায় পৌঁছে যাবে ‘স্মরণ’।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here