বি‌ট কয়েন কিনছেন কারা? সরকারি তথ্য দেখে মোটেই অবাক হবেন না

0
612
Indians dreaming of easy money via bitcoins

ওয়েবডেস্ক:  মাত্র ১৭ মাসে ভারতে বিট কয়েন ব্যবসায় বিনিয়োগ হয়েছে প্রায় সাড়ে তিনশো কোটি টাকা। এ খবর শুনে চমকে যাওয়ার মতোই। তবে এই বিট কয়েন অথবা ভার্চুয়াল কারেন্সি কিংবা ক্রিপ্টোকারেন্সি ব্যবসায় কারা টাকা ঢালছেন?  দেশের আয়কর দফতর এবং ব্যাঙ্ক থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে কেন্দ্রে যে নথি পেশ করেছে, তা দেখে মোটেই অবাক হওয়ার নয়। অন্তত বিট কয়েনে বিনিয়োগকারীদের পরিচয় নিয়ে কোনো সংশয়ের অবকাশ নেই।

বিট কয়েনে বিনিয়োগ আদতে স্পঞ্জি স্কিম বা চিটফান্ড সে কথা আগেই বলেছিল অর্থমন্ত্রক। এই ব্যবসা মাধ্যমে আন্তর্জাতিক চোরাবাজার বা সন্ত্রাসবাদ মূলক কাজের সঙ্গে সম্পর্ক স্থাপিত হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা রয়েছে। তবে সব থেকে বড় কথা, বহুচর্চিত কালো টাকা লেনদেনের সহজ পথ হয়ে উঠেছে এই বিট কয়েন।

অর্থমন্ত্রকের এই আশঙ্কা যে মোটেই অবান্তর নয়, তা প্রমাণিত হয়েছে আয়কর দফতর এবং ব্যাঙ্কগুলি থেকে প্রাপ্ত তথ্যেই। জানা গিয়েছে, বিট কয়েনে বিনিয়োগকারীদের মধ্যে যেমন রয়েছেন তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার দঢ় আধুনিক তরুণরা তেমনই প্রায় সমস্ত ক্ষেত্রেই বড়ো অঙ্কের অর্থের জোগানদাতা হয় কোনো রিয়েল এস্টেট ব্যবসায় যুক্ত ব্যক্তি বা সংস্থা বা স্বর্ণকার, গ্রহরত্নের ব্যবসায়ী।

তার মানে কি ধরে নিতে হবে উপরোক্ত পরিচয়ের ব্যক্তিরাই একমাত্র কালো টাকার ব্যবসায় যুক্ত? মোটেই তা নয়। যে পথে বা যে পন্থা অবলম্বন করে আয়কর দফতরের চোখ এড়ানোর চেষ্টা চলছে, তাতেই ওই ধারণা বদ্ধমূল হয়ে উঠছে। এই সমস্যাকে নির্মূল করতে কী ব্যবস্থা নিচ্ছে সরকার?

আরও পড়ুন: বিট কয়েনে বজ্রাঘাত, যা শুনে অত্যুৎসাহীরাও মুষড়ে পড়ছেন! অমিতাভ কী করবেন?

আয়কর দফতর ইতিমধ্যেই কয়েনে বিনিয়োগকারীদের হাতে নোটিশ ধরানোর কাজ শুরু করে দিয়েছে। এই কাজ সম্ভব হয়েছে অন্য একটি কারণে। সরকার প্রাথমিক ভাবে স্থির করেছিল দেশের কোন কোন ব্যক্তি কয়েনে বিনিয়োগ করছেন তাঁদের তালিকা তৈরি করে আয় বাড়ানোর পন্থা তৈরিতে। কারণ বিট কয়েন নিয়ে এখনও নিজের অবস্থান নির্দিষ্ট করতে পারেনি। কিন্তু ওই তালিকা দেখেই শিক্ষা নেওয়ার চেষ্টা করল আয়কর দফতর।

অন্য দিকে স্টেট ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া, এইচডিএফসি, আইসিআইসিআই, ইয়েস ব্যাঙ্ক তো কয়েক কদম এগিয়ে বিট কয়েন এক্সজেঞ্জের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিতে উদ্যোগী হয়েছে। ফলে কারেন্সি ব্যবসায় সাধারণ এবং ছোটো বিনিয়োগকারীদের সতর্ক হওয়ার সময় এসেছে বলেই মনে করা হচ্ছে।

আরও পুড়ুন: সাবধান! বিটকয়েন আদতে চিটফান্ড, বলল কেন্দ্র

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here