প্রাক্তন মণীশ ফিরলেও তাঁকে পাত্তা নয়, পরিণীতির ‘আজীবন’ ভালোবাসার মানুষ অর্জুন-ই!

0
parineeti chopra

ওয়েবডেস্ক: এ রকম একটা খবর এসেছিল না গত বছরে বলিউড থেকে সব সম্পর্ক চুকে-বুকে গিয়েছে পরিণীতা চোপড়া আর পরিচালক মণীশ শর্মার মধ্যে?

খবর তা-ই দাবি করেছিল বটে! কিন্তু সম্প্রতি পরিণীতা আর মণীশকে এক বন্ধুর দেওয়া পার্টিতে সারা রাত গল্প করতে দেখার পরে সবার চোখ কপালে উঠেছে! অন্য দিকে, সবাইকে বিস্ময়ের পর বিস্ময়ের তরঙ্গে হাবুডুবু খাইয়ে চমকে দিচ্ছে নায়িকার আরেকটি দাবি!

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে খোলাখুলি জানিয়েছেন নায়িকা- তিনি অর্জুন কাপুরকে কতটা ভালোবাসেন! কভারের ছবিটা যদি পেশাদারিত্বের নমুনা বলে মনে হয়, তবে অর্জুনকে নিয়ে পরিণীতির বক্তব্যে একটু চোখ রাখা যাক!

বিজ্ঞাপন

“আমার সম্পর্কটা অর্জুনের সঙ্গে খুবই খোলামেলা, স্বচ্ছও! প্রয়োজন হলে আমি ওকে লাথি মেরে বলতে পারি- এই তোর আচরণ ঠিক কর! তাতে কিন্তু অর্জুন কিছু মনে করবে না। বরং, উল্টে আমায় একটা লাথি কষিয়ে দেবে! এতটাই সহজ আমাদের সম্পর্ক, এতটাই গভীর আমাদের বোঝাপড়া”, বলেছেন পরিণীতি।

এখানেই শেষ নয়। নায়িকা অর্জুনের সুরক্ষার প্রশ্নে প্রায় হুমকি ছুঁড়ে দিয়েছেন যেন! “কেউ যদি অর্জুনের সম্পর্কে খারাপ কিছু বলে, তবে তাকে আগে আমার মুখোমুখি হতে হবে। সে ক্ষেত্রে আমি-ই অর্জুনের হয়ে সওয়াল-জবাব করব। এমনকী, অর্জুনের জন্য আমি খুনও করতে পারি। আমি ওকে এতটাই বেশি ভালোবাসি যে ওর সম্পর্কে কোনো খারাপ কথাই শুনতে প্রস্তুত নই। আজীবন ওকে ভালোবাসব-ও”, দাবি নায়িকার!

বেশ কথা! সুন্দর, নিটোল এক বন্ধুত্ব, তাতে দোষের কী আছে! ‘ইশকজাদে’ থেকে শুরু হয়েছিল পরিণীতি-অর্জুনের রুপোলি পর্দার রসায়ন, এখন ‘সন্দীপ অউর পিঙ্কি ফরার’ এবং ‘নমস্তে কানাডা’ ছবিতেও একসঙ্গে দেখা যাবে তাঁদের। শুধু তা-ই নয়, পরিণীতি এটাও খোলসা করে দিয়েছেন যে ছবিতে অভিনয়ের আগে থেকেও তাঁরা ভালো বন্ধু! তা, এক বন্ধু কি আর অন্যের হয়ে বুক পেতে দেয় না?

বলিউডের নিন্দুকরা কিন্তু বলছেন, এত সহজ সমীকরণে আসা যাবে না। তাঁদের দাবি, পরিণীতির এই হুমকি আসলে প্রাক্তন মণীশকে উপলক্ষ করে! মাঝে তাঁদের মধ্যে কথাবার্তা বন্ধ ছিল, এখন সেই জায়গাটা ফিরেছে। তা বলে, মণীশকে ফের আগের জায়গাটা কিন্তু দিচ্ছেন না নায়িকা। তাঁর এখন প্রাণের খেলা চলছে অর্জুনের সঙ্গেই।

বলিউড এ-ও বলছে, সোনাক্ষী সিনহার সঙ্গে সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার পরে যখন অবসাদগ্রস্ত হয়ে পড়েছিলেন অর্জুন, তখন পরিণীতি-ই সামলেছিলেন তাঁকে। তেমনই, মণীশের সঙ্গে সম্পর্ক ভাঙলে পরিণীতিকে সমর্থনের জায়গাটা দেন অর্জুনই! তাই মুখে বললেও ‘লাথি’-টা আর যাঁকেই হোক, অর্জুনকে অন্তত মারছেন না নায়িকা!

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here