ইউপিএ আমলে যে প্রকল্পের বিরোধিতা করেছিল, এখন সেগুলিই বাস্তবায়িত করছে বিজেপি, সরব যশবন্ত সিনহা

0
305
yashwant sinha

ওয়েবডেস্ক: গত সেপ্টেম্বর থেকেই বিভিন্ন নীতিতে মোদী সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগছেন বাজপেয়ী জমানার অর্থমন্ত্রী যশবন্ত সিনহা। ফের একবার সরর হলেন তিনি। খোলাখুলি জানিয়ে দিলেন ইউপিএ জামানার সময়ে যে সব নীতি এবং প্রকল্পের বিরোধিতা করত বিজেপি, এখন সেগুলিকেই বাস্তবায়িত করছে।

পিটিআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি আরও বলেন, যে গত তেরো মাস ধরে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দেখা করার চেষ্টা করলেও, মোদী তাঁর সঙ্গে দেখা করতে চাইছেন না। তাঁর কথায়, “আমি আর সরকারের সঙ্গে কথা বলব না। যা বলার জনসমক্ষে বলব।” দেশের আর্থিক মন্দার জন্য কেন্দ্রের বিরুদ্ধে তোপ দেগে যশবন্ত সিনহার একটি বক্তব্য গত সেপ্টেম্বরে প্রকাশিত হয়। তারপর থেকেই ক্রমশ তলানিতে গিয়েছে, প্রবীণ এই বিজেপি নেতার সঙ্গে বর্তমান শাসকের সম্পর্ক।

বর্তমান বিজেপি যে বাজপেয়ী জামানার মতো নেই, সেটাও খোলাখুলি বলে দেন সিনহা। তাঁর কথায়, “বিজেপিতে যখন বাজপেয়ী এবং আডবাণীর জামানা ছিল, তখন যে কেউ তাঁদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে পারত। কিন্তু এখন দলের প্রবীণ নেতারাও সভাপতি অমিত শাহয়ের সঙ্গে সাক্ষাৎ পান না। আমি তেরো মাস অপেক্ষা করেও প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ পাইনি, তবে এতে আমি বিচলিত নই।”

এ দিকে যশবন্তের এই বক্তব্যের হাত ধরেই প্রত্য বিদেশি বিনিয়োগ বা এফডিআই নিয়ে কেন্দ্রকে একহাত নিয়েছে কংগ্রেস। বুধবারই সিঙ্গল ব্র্যান্ড রিটেলে একশো শতাংশ এফডিআইয়ের কথা ঘোষণা করেছে কেন্দ্র। এরপরেই মোদীর একটি পুরোনো টুইটকে হাতিয়ার করেছে কংগ্রেস।

২০১২তে মোদী একটি টুইট করে জানিয়েছিলেন, প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগ চালু করে দেশকে বিদেশিদের হাতে বিকিয়ে দিচ্ছে তৎকালীন ইউপিএ সরকার। মোদীর সেই টুইটটাই হাতিয়ার করে কংগ্রেস নেতা মনীশ তিওয়ারি মোদীর উদ্দেশে পালটা প্রশ্ন ছুঁড়ে দেন।

কংগ্রেস হাতিয়ার করেছে একটি নিউজ রিপোর্টকেও যেখানে বর্তমান অর্থমন্ত্রী এবং তৎকালীন বিজেপি নেতা অরুণ জেটলি বলেছিলেন, “জীবনের শেষ নিঃশ্বাস পর্যন্ত প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগের বিরোধিতা করে যাব।”

তবে কংগ্রেসের এই অভিযোগের কোনো জবাব বিজেপির তরফ থেকে এখনও পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here