আপাত শান্তিপূর্ণ ভাবেই শেষ হল উত্তর প্রদেশে প্রথম দফার ভোট গ্রহণ

0
96

লখনউ: আপাত শান্তিপূর্ণ ভাবেই উত্তর প্রদেশে শেষ হল প্রথম দফার নির্বাচন। রাজ্যের পশ্চিমাংশের ৭৩টি বিধানসভা আসনে শনিবার ভোটগ্রহণ হয়। ভোট পড়েছে ৬৩ শতাংশ।

ভোটপর্ব চলাকালীন সংঘর্ষের খবর আসে মিরট থেকে। সংঘর্ষ বাঁধে সপা এবং বসপা সমর্থকদের মধ্যে। অন্যদিকে বন্দুক নিয়ে বুথে ঢোকার অভিযোগে মিরটে আটক করা হয় বিজেপি নেতা সংগীত সোমের ভাইকে।

জাতীয় রাজনীতিতে মুখ্য ভূমিকা গ্রহণ করে উত্তরপ্রদেশের ভোট। ২০১৪ লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ার পেছনে প্রধান কারিগর ছিল এই রাজ্যই। এখানকার ৮০টি লোকসভা আসনের মধ্যে ৭১টি জিতেছিল বিজেপি। তাই বিজেপির কাছে ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনের আগে এই বিধানসভা নির্বাচন একপ্রকার সেমিফাইনাল বলা যায়। অন্য দিকে কংগ্রেসের কাছে খুব গুরুত্বপূর্ণ এই নির্বাচন। শাসক দল অখিলেশ যাদবের সমাজবাদী পার্টির হাত ধরে তারা যদি উল্লেখযোগ্য আসন দখল করতে পারে তা হলে জাতীয় রাজনীতিতে ফের ঘুরে দাঁড়াবে তারা।

২০১৪-র লোকসভা ভোটের বিধানসভাভিত্তিক ফলাফলে দেখা গিয়েছে যে ৭৩টি আসনে এ দিন ভোট হয়েছে এর মধ্যে ৬৫টি আসনেই এগিয়ে ছিল বিজেপি। কিন্তু এ বার বিজেপির জন্য ময়দান ততটা মসৃণ নয় বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা। ভোট প্রচারে এসে যদিও নোট বাতিলকেই নির্বাচনী প্রচারের মূল হাতিয়ার করেছেন মোদী, তবে গ্রামীণ মানুষ কতটা সেই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন সেটা দেখার বিষয়। বিজেপির বিপক্ষে যেতে পারে জাট ভোটও।  

সমাজবাদী পার্টি-কংগ্রেস জোটের ভরসা পশ্চিম উত্তরপ্রদেশের উল্লেখযোগ্য সংখ্যালঘু ভোট, আবার অন্য দিকে জাট ভোট তাদের দিকেই যাবে বলে আশাবাদী অজিত সিং-এর  রাষ্ট্রীয় লোক দল। কড়া নিরাপত্তার মধ্যে এ দিন ভোট হচ্ছে বছর চারেক আগে দাঙ্গা কবলিত এলাকা মুজফফরনগরেও।

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here