গুজরাতে গোরক্ষকদের মারে আহত যুবকের মৃত্যু

0
73

গুজরাতে স্বঘোষিত গোরক্ষকদের মারে আহত যুবক শুক্রবার মারা গেলেন। চারদিন আগে গুরুতর আহত অবস্থায় মহম্মদ আয়ুব নামে ওই যুবককে আমদাবাদ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, মঙ্গলবার বিকেল তিনটে নাগাদ আয়ুব ও তাঁর সঙ্গী সমীর শেখ গাড়িতে করে একটি গরু এবং একটি বাছুর নিয়ে যাচ্ছিলেন। পথে তাদের গাড়ির সঙ্গে অন্য একটি গাড়ির সংঘর্ষ হয়। বাছুরটি মারা যায়। দুর্ঘটনায় আহত আয়ুব পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করেন। একদল লোক তাঁদের তাড়া করে ধরে ফেলে। বেধড়ক মারধর করে। ঘটনাস্থলে কর্তব্যরত এক পুলিশকর্মী সরীরকে বাঁচাতে সক্ষম হয়।

তিন গো-রক্ষক পরে থানায় গিয়ে আয়ুব এবং সমীরের বিরুদ্ধে বেআইনি ভাবে গরু পাচারের অভিযোগ দায়ের করে। এই তিন ব্যক্তিই ঘটনাস্থলে ছিলেন। কিন্তু পুলিশ জানায় তাদের বিরুদ্ধে এমন কোনও তথ্য প্রমাণ পাওয়া যায়নি যে তারা ঘটনাস্থলে ছিলেন। পুলিশ আধিকারিক আরআর ভাগবত জানিয়েছেন,‘ওই তিনজনকে আটক করেছিলাম, কিন্তু সমীর ওদের সনাক্ত করতে পারেনি।’ পুলিশ ‘অজ্ঞাত’ ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে। সিসিটিভি ফুটেজও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আয়ুবের পরিবারের অভিযোগ, চাপের মুখে সমীর অভিযুক্তদের সনাক্ত করতে চায়নি।

গত জুলাই মাসে গুজরাতের ঊনায় চারজনকে পিটিয়ে মেরে ফেলে স্বঘোষিত গোরক্ষকরা।

গত মাসেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এই স্বঘোষিত গোরক্ষকদের বিরুদ্ধে কড়া মনোভাব দেখিয়ে এদের ‘সামজ বিরোধী’ বলেই চিহ্নিত করেছিলেন। কিন্তু তাঁর রাজ্যেই গো-রক্ষকদের ‘দাপাদাপি’ অব্যাহত, আয়ুবের মৃত্যু আবারও তার প্রমাণ দিল।     

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here