‘চার্জ দিতে অনিচ্ছুক হলে, আসতে হবে না রেস্তরাঁয়’: কেন্দ্রের পাল্টা হোটেল মালিকদের

0
71

নয়াদিল্লি: সোমবার কেন্দ্রীয় উপভোক্তা মন্ত্রক থেকে ঘোষণা করা হয়েছিল, রেস্তরাঁয় খেতে গেলে পরিষেবা চার্জ দেওয়া বাধ্যতামূলক নয়। মঙ্গলবার কেন্দ্রের এই ঘোষণার বিরুদ্ধে মুখ খুলেছে ভারতের জাতীয় রেস্তরাঁ সমিতি। তাঁদের বক্তব্য, পরিষেবা চার্জ দিতে না চাইলে উপভোক্তারা যেন রেস্তরাঁয় না খান।

কেন্দ্র থেকে এর আগে স্পষ্ট জানানো হয়েছে, উপভোক্তার অনুমতি ছাড়া কোনো রেস্তরাঁ তাদের বিলের সঙ্গে পরিষেবা চার্জ যুক্ত করলে কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নিতে পারেন প্রত্যেকে। পাল্টা যুক্তিতে জাতীয় রেস্তরাঁ সমিতি বলেছে, পরিষেবা চার্জের ধারণা খুবই প্রচলিত এবং একাধিক সরকারি দফতর দ্বারা স্বীকৃত।

কেন্দ্রের বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, ইতিমধ্যে সব রাজ্যেই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে, প্রতিটি হোটেল এবং রেস্তরাঁ চত্বরে উল্লেখ করতে হবে, সেখানে পরিষেবা চার্জ ইচ্ছামুলক। বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়েছে, উপভোক্তা বিষয়ক মন্ত্রকের কাছে বহুদিন ধরেই প্রচুর অভিযোগ আসছিল এই পরিষেবা চার্জ সংক্রান্ত বিষয়ে। মূলত অভিযোগ ছিল, বকশিসের পরিবর্তে বিলের সঙ্গে যুক্ত করে বাধ্যতামূলক করা হচ্ছে এই চার্জ। পরিমাণটাও নেহাত কম নয়। মোট বিলের ৫% থেকে ২০% -এর মধ্যে।

বিজ্ঞাপন

জাতীয় রেস্তরাঁ সমিতির সভাপতি রিয়াজ আম্লানি অবশ্য পরিষেবা চার্জ যুক্ত করার স্বপক্ষে বলেছেন, “আমরা ক্রেতা সুরক্ষা আইন মেনেই চলি। মেনু কার্ডের ওপর উল্লেখ থাকে পরিষেবা চার্জের এবং তা রেস্তরাঁর কর্মচারীদের মধ্যে সমান ভাবে ভাগ করে দেওয়া হয়”।

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here