পঞ্চায়েতে কংগ্রেসের সঙ্গে যৌথ লড়াইয়ের সিদ্ধান্ত মার্চে নিতে চলেছে সিপিএম

0
cpim

কলকাতা: সিপিআই আগেই সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে ছিল। এ বার বামফ্রন্টের বড়ো শরিক সিপিএমও সেই পথেই এগোচ্ছে। দলীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, আগামী মার্চে দলের পার্টির কংগ্রেসে ২০১৮ পশ্চিমবঙ্গ পঞ্চায়েত নির্বাচনে কংগ্রেসের সঙ্গে নির্বাচনী সমঝোতা নিশ্চিত করার প্রস্তাব পেশ করা হবে।

গত ২০১৬-এর বিধানসভা নির্বাচনে বাংলায় আশা জাগিয়েও ব্যর্থ হয়েছিল ‌বাম-কংগ্রেস জোট। তার পরে চরম সমালোচনা এবং দায় এড়িয়ে যাওয়ার মানসিকতা থেকে উভয় পক্ষই নিজেদের মধ্যে কোনো যোগাযোগ রাখেনি। ভোটের পরে অব্শ্য দুই শিবির থেকেই জোট টিকিয়ে রাখার ব্যাপারে নানান কৌশলের কথা বলা হয়েছিল। কিন্তু এক মাঘেই শীত চলে যায়। তবে সাম্প্রতিক সবং বিধানসভার উপনির্বাচনের ফলাফল সিপিএমের চিন্তাভাবনাকে জোটের পক্ষেই ফিরিয়ে নিয়ে এল।

গত কাল সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র প্রকাশ্যে সেই ইঙ্গিত দিয়েছেন। তিনি বলেন, সারা দেশে যে ভাবে সাম্প্রদায়িক শক্তি ক্রমশ আধিপত্য বিস্তার করছে, তাকে আটকাতে বৃহত্তর প্রতিরোধের প্রয়োজন। এ রাজ্যে আবার দুটি রাজনৈতিক দল ধর্মের রাজনীতির প্রতিযোগিতা চালিয়ে যাচ্ছে। যাদের রুখতে সমস্ত ধর্মনিরপেক্ষ শক্তিকে এক জোট হতে হবে। প্রয়োজনে জাতীয় কংগ্রেসের সঙ্গেও যৌথ লড়াই-আন্দোলন চলবে।

বিজ্ঞাপন

সূর্যবাবুর এমন কথার রেশ ধরেই আলিমু্দ্দিনের এক নেতা বলেন, আগামী পঞ্চায়েত ভোটে কংগ্রেসের সঙ্গে সমঝোতার বিষয়ে সম্প্রতি সিপিআই স্থির সিদ্ধান্ত এক প্রকার নিয়েই ফেলেছে। ওরা বলেছে, রাজ্যে তৃণমূল এবং বিজেপির মোকাবিলা করতে যখন সমস্ত ধর্মনিরপেক্ষ দলের সঙ্গে লড়াই চালানোর পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছে তখন কংগ্রেসকে কেন এড়িয়ে চলা হবে? তবে সিপিএম শুধু মাত্র নির্বাচনী প্রচারে কংগ্রেসের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগ নেবে না কি পঞ্চায়েতে আসন সমঝোতা করবে, সে বিষয়ে আলোচনার জন্য বেছে নেওয়া হয়েছে দলের আগামী পার্টি কংগ্রেসকে।

বিজ্ঞাপন
loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here