জলপাইগুড়ি: চাইল্ড হোমের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে শিশু দত্তক দেওয়া নিয়ে অভিযোগ জানানোয় এখন তাঁরাই হেনস্থার শিকার হচ্ছেন বলে অভিযোগ তুললেন জলপাইগুড়ি শিশু সুরক্ষা সমিতির সদস্য সুবোধ ভট্টাচার্য।  মঙ্গলবার সুবোধবাবু এবং সমিতির চেয়ারপার্সন বেবি উপাধ্যায়কে ডেকে পাঠান সদর মহকুমাশাসক সীমা হালদার। প্রায় ঘণ্টা চারেক দু’জনের সঙ্গে আলাদাভাবে কথা বলেন মহকুমাশাসক। ডেকে পাঠানো হয়েছিল স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা নর্থ বেঙ্গল পিপলস ডেভেলপমেন্ট সেন্টারের সম্পাদিকা চন্দনা চক্রবর্তীকেও। তাঁকেও দীর্ঘক্ষণ জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। এই সংস্থার পরিচালিত বিমলা শিশুগৃহ থেকে ১৭টি শিশুকে অবৈধভাবে দত্তক দেওয়ার অভিযোগ জানিয়েছিল শিশু সুরক্ষা সমিতি। এ ছাড়াও ওই চাইল্ড হোমের ৬ শিশু নিখোঁজও বলেও অভিযোগ রয়েছে। সমস্ত অভিযোগ মিথ্যা বলে উড়িয়ে দিয়েছেন অভিযুক্ত চাইল্ড হোমের কর্ণধার চন্দনা চক্রবর্তী। 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here