সোল: ফের রাষ্ট্রপুঞ্জের নিষেধাজ্ঞা লঙ্ঘন করে জাপান সাগরে মাঝারি পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করল উত্তর কোরিয়া। বুধবার এমনই দাবি করে দক্ষিণ কোরিয়ার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক। তাদের দাবি, বুধবার উত্তর কোরিয়ার পূর্ব উপকূলের সিনপো বন্দর থেকে এই ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করা হয়েছে। দক্ষিণ কোরিয়ার পাশাপাশি ঘটনাটির সত্যতা যাচাই করেছে মার্কিন ‘প্যাসিফিক কমান্ডো’ও। তাদের মতে, ‘কেএন-১৫ মিডিয়াম রেঞ্জ ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র’ ছুড়েছে উত্তর কোরিয়া। সেই সঙ্গে তারা এ-ও বলেছে যে, এই ক্ষেপণাস্ত্রর কোনো প্রভাব উত্তর আমেরিকার ওপর পড়বে না। উল্লেখ্য, উত্তর কোরিয়ার পরমাণু আকাঙ্ক্ষার ব্যাপারেই বৃহস্পতিবার বৈঠকে বসবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং চিনা প্রেসিডেন্ট ঝি জিংপিং। ঘটনাটিকে প্ররোচনামুলক আখ্যা দিয়ে উত্তর কোরিয়ার তীব্র নিন্দা করেছে জাপান। অন্য দিকে দক্ষিণ কোরিয়া বলেছে, রাষ্ট্রপুঞ্জের জারি করা নিষেধাজ্ঞাকে চ্যালেঞ্জ করেছে উত্তর কোরিয়া। পাশাপাশি তাদের দাবি, এই ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়ার ফলে কোরীয় উপদ্বীপ (পেনিনসুলা) অঞ্চলে শান্তি ব্যাহত হবে। উল্লেখ্য, গত মাসেই জাপান সাগরে চারটি ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়েছিল উত্তর কোরিয়া। তাদের ওপর রাষ্ট্রপুঞ্জ এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র থেকে বিভিন্ন রকম নিষেধাজ্ঞা জারি করা রয়েছে। এর জবাবে উত্তর কোরিয়া বলেছিল, নিষেধাজ্ঞা জারি করা হলে চুপ থাকবে না তারাও। সেই সঙ্গে পরিস্থিতিকে যুদ্ধের দিকে নিয়ে যাওয়ার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ওপরেই দোষ চাপায় উত্তর কোরিয়া। 

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here