সরকারি চাকরি : ভূগোলের সাধারণ জ্ঞান

0

অভিজিত ব্যানার্জি

আমরা পৃথিবীতে ঠিক কোথায় বাস করি ? ভাবতে অবাক লাগে, এই প্রশ্নের ঠিক উত্তর অনেক পরীক্ষার্থীই দিতে পারেনি।

যাই হোক, আলোচনাটা প্রশ্ন দিয়ে শুরু করলাম এই কারণে যে যারা তোমরা লেখাটা পড়বে তারা তো ভাববেই আর সঙ্গে এগুলোও ভাববে, আমরা সেখানে ঠিক কী ভাবে আছি। তার সঙ্গে এটাও মনে রাখবে, পৃথিবীটা গোল। আমরা মানুষরা এক ‘অবাক পৃথিবী’র বাসিন্দা।

গ্রিকদের ধারণা ছিল পৃথিবীর আকৃতি অনেকটা থালার মতো। তাই তারা অনেক দূর যেতে চাইত না, যাতে থালার কিনারে গেলে না পড়ে যায়। পড়লে তো কোথায় হারিয়ে যাবে আর কোনও দিন খুঁজে পাওয়া যাবে না।

ভূগোলের জিকে-ও খুব ঝামেলায় ফেলে। পৃথিবীর সব থেকে শীতল স্থান – ভারখয়ানস্ক। তার রেকর্ড এখন ভাঙতে চলেছে ওইম্যাকন। অতএব চারটে অপশন দেখে তোমাকে উত্তর করতে হবে খুব বুদ্ধি করে। অর্থাৎ তোমাকে জানতে হবে বেশি।

পৃথিবীর মানচিত্র, ভারতের মানচিত্র সম্পর্কে জ্ঞান থাকতে হবে। মাঝে মাঝে গ্লোব বা মানচিত্রের বই খুলে দেখবে। দেখবে নিজের যেমন ভাল লাগছে, জানতেও পারবে অনেক কিছু। আর মনেও থাকবে খুব ভালো ভাবে। ভারতের প্রতিবেশী দেশগুলি কী কী ? ভারতের সীমানাকে স্পর্শ করে আছে কোন দেশ ? পশ্চিমবঙ্গকে স্পর্শ করে আছে কোন দেশ ?  সব চেয়ে কোন রাজ্যকে অন্যান্য রাজ্য বেশি স্পর্শ করে আছে ? এর উত্তর সাধারণ জিকে-র বইতে সব পাবে না, কিন্তু মানচিত্র দেখে তুমি এগুলো নিজেই তৈরি করতে পারো। আরও কিছু প্রশ্নের কথা বলছি, যেগুলো পৃথিবী/ভারতের মানচিত্র দেখে তুমি তৈরি জানবে – ভারতের উপর দিয়ে কোন কাল্পনিক রেখা গিয়েছে ?  ভারত পৃথিবীর কোন গোলার্ধে অবস্থিত ? সব চেয়ে বড় দেশ কোনটি ? ভারতের দক্ষিণতম বিন্দু কী ?  ইত্যাদি।

গ্লোব দেখে বুঝতে পারবে, আমরা যখন দিনের আলোয় বাস করি, তখন কোন কোন দেশ অন্ধকারে থাকে ? পৃথিবী কী ভাবে ঘুরছে ? ইত্যাদি। ছোটবেলার দেখা এক রকম আর এখন তুমি পরিণত মস্তিষ্কে পর্যবেক্ষণ করবে। পড়বে আনন্দের সঙ্গে মন দিয়ে। দেখবে ভূগোল নিয়ে কষ্ট হবে না।

প্রাকৃতিক ভূগোলের পাশাপাশি অর্থনৈতিক ভূগোলের জ্ঞানও প্রয়োজন। দু’টো মিলেই কিন্তু ভূগোল। ‘অর্থনৈতিক ভূগোল’ এই শ্রেণিবিভাগটির জন্য আলাদা বই পাওয়া যায়। নবম ও দশম শ্রেণি দু’টির জন্য তোমরা একটা বই নিজেদের সংগ্রহে রাখতে পারো। দেখবে ভূগোল পড়তে সুবিধা হবে। এখন যদিও ইন্টারনেটে সব তথ্যই পাওয়া যায়, তবে বই-এর তো বিকল্প হয় না। ই-বুকের চেয়ে সাধারণ বই পড়ে মুখস্থ বেশি হয় বলে আমার মনে হয়। ইন্টারনেট তোমাদের সকলের কাছে সহজলক্ষ্য না-ও হতে পারে।

আবার বলছি, ভিত ঠিক করে পড়াশোনা করো, বুঝতে সুবিধা হবে। সব বিষয়ের ক্ষেত্রেই এই কথাটা সত্য। যত জানবে, তত তুমি এগিয়ে যাবে। তবে তোমাকে কিন্তু ঠিকটা জানতে হবে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here