টেট প্রার্থীদের জন্য স্বস্তির খবর। শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে টেটে ৮২ নম্বর প্রাপ্তাধিকারীদের আবেদনের সময়সীমা বাড়ানো হল। ২০১৪ ও ২০১৭ সালের টেট প্রার্থীরা এই সুবর্ণ সুযোগ পেতে চলেছেন।

প্রসঙ্গত, গতকাল প্রাথমিকে জমা দেওয়ার আবেদনের শেষ দিন ছিল। কিন্তু প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের আদালতে আশ্বাস শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে টেট প্রার্থীরা প্রাথমিকে আবেদনের জন্য আরও সময় পাবেন।

সূত্রের খবর, প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ সদ্য দুটি তালিকা প্রকাশ করেছে ২০১৪ সালের টেট পাশ প্রার্থীদের। তবে সেই প্রকাশিত তালিকা নিয়ে শুরু হয়েছে নতুন জল্পনা। টেট চাকরি প্রার্থী মামলাকারীদের আইনজীবীরা প্রকাশিত তালিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছে। তাঁদের দাবি, প্রাথমিক শিক্ষক পদে যে ২৬৮ জনের নিয়োগ নিয়ে বিতর্ক রয়েছে, তাঁদের মধ্যে ১৬৩ জনের নাম কোনও তালিকায় নেই।

মামলাকারীদের অন্যতম আইনজীবী সুদীপ্ত দাশগুপ্ত জানিয়েছেন, বিষয়টি নিয়ে তাঁরা সুপ্রিম কোর্টে হলফনামা জমা দেবেন।

অন্যদিকে আর একটি বিষয় লক্ষ্য করার মতো। ২০১৪ সালের প্রাইমারী টেটের তালিকায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অমিত শাহ দিলীপ ঘোষের মতো নাম রয়েছে। প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, ২০১৪ সালের প্রাথমিক টেটে আবেদনকারীদের তালিকায় এই নামগুলি ছিল।

প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের সভাপতি জানান, পর্ষদের টেকনিক্যাল টিমকে তিনি তদন্তের নির্দেশ দেন পুরো বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য। এরপর টেকনিক্যাল টিম পুরো এই বিষয়টি সরেজমিনে খতিয়ে দেখে। খতিয়ে দেখার পর তাদের তরফে পর্ষদকে জানানো হয়েছে, এই নামগুলো সঠিক অর্থাৎ এই নামেই আবেদন এসেছিল ২০১৪ এর প্রাথমিকের টেটে।

শিক্ষা ও কেরিয়ারের খবর পড়তে এখানে ক্লিক করুন

dailyhunt

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন