খবর অনলাইন ডেস্ক: আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি থেকে নবম-দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের জন্য স্কুল খুলছে রাজ্য সরকার। সূত্রের খবর, করোনাকালে পড়ুয়া এবং শিক্ষকদের জন্য ২৮ পাতার গাইডলাইনও প্রকাশ করা হয়েছে। প্রায় ১১ মাস পর স্কুল খুললে মেনে চলতে হবে এই নির্দেশিকাগুলি।

বৃহস্পতিবার বিজ্ঞপ্তি জারি করে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ জানিয়েছে, গোটা স্কুল বিল্ডিং জীবাণুমুক্ত করতে হবে। পডুয়া থেকে শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মীদের প্রত্যেকেই কোভিডবিধি মেনে চলতে হবে।

Loading videos...

কোভিড-পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে এলেও এখনও পর্যন্ত সম্পূর্ণ বিপদমুক্ত নই আমরা। ফলে নতুন করে যাতে সংক্রমণ না বাড়ে, সে দিকে লক্ষ্য রেখেই পড়ুয়া এবং শিক্ষকদের জন্য দীর্ঘ নিয়মাবলি বেঁধে দেওয়া হয়েছে। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক, সেগুলিরই অন্যতম কয়েকটি-

*গোটা স্কুল বিল্ডিং জীবাণুমুক্ত করতে হবে

*মাস্ক পরতে হবে, তবে গ্লাভস, টুপি বাধ্যতামূলক নয়

*এক মিটারের শারীরিক দূরত্ব মানতে হবে

*স্কুলে ঢোকার আগে সাবান দিয়ে হাত ধুতে হবে

*নিয়মিত হাত ধুতে হবে, প্রয়োজনে স্যানিটাইজার রাখতে হবে

*কারও সঙ্গে টিফিন ভাগ করে খাওয়া যাবে না

*নিজস্ব জলের বোতল রাখতে হবে

*খালি পায়ে স্কুলে যাওয়া যাবে না

*ধাতব আংটি বা চেন রাখা যাবে না

*অসুস্থ থাকলে স্কুলে যাওয়া যাবে না

*শিক্ষকদের নিজস্ব দায়িত্ব ভাগ করে দেবেন প্রধান শিক্ষক

*আলাদা আলাদ ঘরে বসাতে হবে পড়ুয়াদের

*ছাত্র-ছাত্রীদের উপর কড়া নজর রাখবেন শিক্ষকরা

*আপাতত বন্ধ রাখা হতে পারে খেলাধুলো এবং শরীরচর্চা, ইত্যাদি

উল্লেখ্য, রাজ্য সরকারের সিদ্ধান্ত মতোই এ ব্য়াপারে রাজ্যের স্কুল শিক্ষা দফতরের কমিশনার চিঠি পাঠিয়েছেন জেলাশাসকদের। চিঠিতে লেখা হয়েছে, আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি থেকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির পড়ুয়াদের নিয়ে স্কুল খোলার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

আরও পড়তে পারেন: সুন্দরবনের নদীতে প্লাস্টিকের দূষণ রুখতে বন দফতরের কড়া পদক্ষেপ, খুশি পরিবেশপ্রেমীরা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.