ওয়েবডেস্ক: এক এক করে যে সব ছবির পোস্টার দেখতে পাবেন, সেগুলোয় যে মুক্তির তারিখ লেখা রয়েছে, তা বেমালুম এ বার ভুলে যেতে হবে! কেন না, এক ধাক্কায় সব হিসেব গুলিয়ে দিয়েছেন তালাইভা!

kaala

খবর- রজনীকান্তের ‘কাল’ ছবি মুক্তি এপ্রিলে ধার্য হয়েছে বলে ‘২.O’ ছবির মুক্তি আরও পিছিয়ে গিয়েছে। সে ক্ষেত্রে অক্ষয় কুমার-রজনীকান্ত অভিনীত ছবিটার মুক্তির তারিখ ভাবা হচ্ছে চলতি বছরের দীপাবলিতে। কিন্তু ঠিক ওই এক সময়ে মুক্তি পাওয়ার কথা অক্ষয় কুমার অভিনীত ‘গোল্ড’ ছবিটিরও। পাশাপাশি, আমির খান, অমিতাভ বচ্চন, ক্যাটরিনা কাইফ আর ফতিমা সানা শেখ অভিনীত ‘ঠগস অব হিন্দোস্তান’-ও মুক্তি পাবে দীপাবলীতেই!

gold

মানে, আমির খান আর অক্ষয় কুমারের কেরিয়ারে একটা বড়ো রকমের ধাক্কা লাগতে চলেছে রজনীকান্তের একটি মাত্র সিদ্ধান্তে- তেমনটাই অন্তত দাবি করছেন বলিউডের বাণিজ্য বিশ্লেষকরা।

2.O

বলিউডের অন্যতম বাণিজ্য বিশ্লেষক অতুল মোহন প্রথমে অক্ষয় কুমারের দিক থেকে চিন্তার কারণ বুঝিয়ে বলেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ‘প্যাড ম্যান’ খুব একটা ভালো ব্যবসা বক্স অফিসে করে উঠতে পারেনি, এখনও ঢুকতে পারেনি ১০০ কোটির ছবির ঘরে। ফলে, ‘গোল্ড’ ছবিটাকে ভালো ব্যবসা দিতেই হবে। কিন্তু যদি ওই একই সময়ে ‘২.O’ এবং ‘ঠগস অব হিন্দোস্তান’ মুক্তি পায়, তা হলে ‘গোল্ড’-এর ব্যবসা মার খাবে। তা-ও আবার সারা বিশ্বের নিরিখে। কেন না, রজনীকান্ত তো আন্তর্জাতিক তারকা বটেই, পাশাপাশি চিনেও আমির খানের ছবি মারকাটারি ব্যবসা দিচ্ছে। এমনকি, ‘২.O’ অক্ষয়ের ছবি হলেও ভক্তেরা ‘গোল্ড’ আর এই ছবির মধ্যে কোনটা দেখবেন – তা নিয়ে দুই শিবিরে ভাগ হয়ে যাবেন। যার জেরে এ বছরে বলিউডে ভালো ব্যবসা দিতে না পারলে কেরিয়ারে আঘাত লাগবে অক্ষয়ের।

thugs of hindostan

অন্য দিকে, আমিরের ‘ঠগস অব হিন্দোস্তান’-ও ধাক্কা খাবে ভালো মতোই! একে তো বক্স অফিসে নিরঙ্কুশ আধিপত্য করা সম্ভব হবে না, তার উপরে আবার অনেকটাই দর্শকের ভিড় টেনে নেবে ‘২.O’। ফলে, এটাই যখন অন্য প্রযোজক-পরিচালকের সঙ্গে আমিরের শেষ ছবি, তখন তা নিরঙ্কুশ মনোযোগ না পেলে ভবিষ্যতে নিজের প্রযোজনা সংস্থা থেকে মুক্তি পাওয়া ছবিগুলোও কিছুটা হলেও দর্শকের চাহিদা হারাবে।

দেখা যাক, শেষ পর্যন্ত আমির, অক্ষয়ের মুখের দিকে চেয়ে রজনীকান্ত কিছু করেন কি না!

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here