ওয়েবডেস্ক: সবাই জানেন, কলকাতার ছবি কারখানায় শাশ্বত চট্টোপাধ্যায়ই সেই একমাত্র ব্যক্তি, যিনি সেলফোন ব্যাপারটা থেকে দূরে থাকেন শত হস্ত! আমার বা আপনার কাছে ব্যাপারটা যতই প্রয়োজনের জিনিস হোক না কেন, শাশ্বত চট্টোপাধ্যায় তা জীবন থেকে ছেঁটে ফেলতে পেরেছেন অনায়াসেই। আর শুধু সেলফোনই নয়, সোশ্যাল মিডিয়াতেও নিজেকে তুলে ধরার প্রয়োজন তিনি বোধ করেননি কখনও। ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রাম- কোনো সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেলেই তিনি নেই। হ্যাঁ, হ্যাশট্যাগে রয়েছেন যদিও। ওটা জনপ্রিয়তার দিক থেকে, স্বেচ্ছায় নয়!

saswata chatterjee

এত দিন অন্তত জানা ছিল সে রকমই! কিন্তু সাম্প্রতিক ঘটনা বলছে, শাশ্বত চট্টোপাধ্যায় ওরফে অপুর দিব্যি একটা ফেসবুক প্রোফাইল আছে। শুধু তাই নয়, সেই ফেসবুক প্রোফাইল মারফত সমাজের নানা স্তরের নারীরা নিয়মিত ভাবে অশালীন প্রস্তাব পেয়ে থাকেন!

ব্যাপারটা জানাজানি হওয়ার পর আর চুপ করে বসে থাকতে পারেননি নায়কের স্ত্রী মহুয়া দত্ত চট্টোপাধ্যায়। নিজের ফেসবুক প্রোফাইল থেকে ব্যাপারটা নিয়ে একটা বিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন তিনি। যা সাফ জানিয়ে দিচ্ছে, প্রোফাইলটা শাশ্বতর নয়। ওটা একটা নকল প্রোফাইল। কেউ বা কারা নায়কের নাম এবং জনপ্রিয়তা ভাঙিয়ে আদিম রিপুর উপাসনায় মন দিয়েছে।

মহুয়া কী লিখেছেন, তা তো দেখতেই পাচ্ছেন উপরে। পোস্টের লেখার সঙ্গে ওই নকল প্রোফাইলের একটা ছবিও দিয়েছেন তিনি। তবে সেই প্রোফাইল এখন আর ফেসবুকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না। রিপোর্ট করে দেওয়ার ফল বোধ হয়!

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here