অবশেষে প্রকাশ্যে এল নুসরত জাহানের ছেলে ঈশানের পিতৃপরিচয়

0

কলকাতা পুরসভার জন্ম শংসাপত্রে ধোঁয়াশা কেটে গেল ঈশানের বাবার নাম নিয়ে!

কলকাতা: গত ২৬ আগস্ট পুত্রসন্তানের জন্ম দেন টলিউড অভিনেত্রী এবং তৃণমূল সাংসদ নুসরত জাহান (Nusrat Jahan)। তার আগে থেকেই তাঁর সন্তানের বাবার নাম নিয়ে তুমুল আলোচনা চলছিল। অবশেষে প্রকাশ্যে এল নুসরতের ছেলে ঈশানের পিতৃপরিচয়।

নুসরত যখন অন্ত:সত্ত্বা তখন থেকেই তাঁর সন্তানের পিতৃত্ব নিয়ে ব্যাপক জল্পনা -কল্পনা শুরু হয়। বিশেষ করে ঈশানের জন্মের পর তা আরও তুঙ্গে ওঠে। যদিও এর আগে প্রকাশ্যে কখনোই এ বিষয়ে মন্তব্য করতে শোনা যায়নি নুসরত অথবা তাঁর সঙ্গী যশ দাশগুপ্তকে (Yash Dasgupta)।

তবে কলকাতা পুরসভার দেওয়া জন্ম শংসাপত্রে ঈশানের বাবার নামের জায়গায় দেবাশিস দাশগুপ্ত। কয়েক মাস আগে বিধানসভায় প্রার্থী হয়ে নিজের হলফনামা জমা দেওয়ার সময় এই নামটাই উল্লেখ করেছিলেন অভিনেতা এবং নুসরতের সঙ্গী যশ দাশগুপ্ত। ২০২১ বিধানসভা ভোটে চণ্ডীতলা থেকে পদ্মপ্রতীকে প্রার্থী হয়েছিলেন তিনি।

জানা গিয়েছে, কলকাতা পুরসভার বার্থ সার্টিফিকেটে নুসরতের ছেলের নাম ঈশান জে (জাহান) দাশগুপ্ত হিসেবেই উল্লেখ করা হয়েছে।

এর আগে নুসরতকে তাঁর সন্তানের বাবার নাম জানতে হলে তিনি বলেছিলেন, “আমি মনে করি এটা একটা অবান্তর প্রশ্ন। মহিলা হিসেবে কারো চরিত্রে কালো ছোপ ফেলতে পারে এ ধরনের প্রশ্ন। আমি এবং যশ খুব ভালো সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছি। যশের সঙ্গে আমি ভালো অভিভাবকত্ব কাটাচ্ছি। বাবা কে, তা বাবাই জানে”।

হাজারো বিতর্কের মধ্যে সন্তানসম্ভবা নুসরতকে সর্বদাই আগলে রেখেছেন নুসরতের সঙ্গী যশ। ছেলের জন্মের সময়ও হাসপাতালে গিয়েছিলেন তিনি। বাড়ি আনার সময়েও সঙ্গে ছিলেন। ফলে তিনিই যে নুসরতের সন্তানের বাবা, তা নিয়ে আগাম অনুমান ছিল-ই। অবশেষে ধোঁয়াশা কেটে গিয়ে জল্পনাই হল সত্যি। অর্থাৎ ঈশানের বাবা যে যশই, তা নিয়ে আর কোনো ধোঁয়াশা রইল না।

খবর অনলাইন-এ আরও বিনোদনের খবর পড়ুন এখানে:

চিনে বাদামের টানে সম্পর্কের টানাপোড়েনে যশ দাশগুপ্ত?

‘কলকাতার হ্যারি’ হয়ে প্রযোজনায় হাত রাখছেন সোহম চক্রবর্তী

পুজোয় মুক্তি পাচ্ছে অনিকেত চট্টোপাধ্যায়ের ছবি ‘হবুচন্দ্র রাজা গবুচন্দ্র মন্ত্রী’

কিশমিশ ছবির শুটিং-এ দার্জিলিঙে দেব

‘দেবী’তে বক্সারের ভূমিকায় অভিনয়ে ফিরছেন ভিকি দেব

প্রতিবছর দুর্গাপুজোয় ফেলুদাকে কলকাতায় কেন খুঁজে পাওয়াই যায় না

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন