ওয়েবডেস্ক: ‘হম সাথ সাথ হ্যায়’!

aishwarya rai bachchan and salman khan

মুশকিল হল, এ কথাটা এখন যেমন আর ঐশ্বর্য রাই বচ্চন এবং সলমন খানের সম্পর্কে খাটে না, তেমনই সেই সময়েও খাটেনি! অথচ তখন কিন্তু দু’জনার দুটি পথ দু’দিকে বেঁকেও যায়নি!

aishwarya rai bachchan and salman khan

সময়টা ১৯৯৯ সাল। বক্স অফিসে তুমুল ব্যবসা দিচ্ছে সঞ্জয় লীলা বনশালির পরিচালনায় ঐশ্বর্য আর সলমন অভিনীত ‘হম দিল দে চুকে সনম’। আর একটা জুটি জনতার মনে ধরলে যা হয় আর কী, পর পর তখন তাঁদের কাছে একসঙ্গে ছবি করার প্রস্তাব আসতে থাকে!

hum saath saath hai

সে ভাবেই ঐশ্বর্যকে প্রস্তাব দিয়েছিলেন সুরজ বরজাতিয়া- ‘হম সাথ সাথ হ্যায়’ ছবিতে কাজ করার! কিন্তু ঐশ্বর্য প্রস্তাবটা ফিরিয়ে দেন। এর পর তাঁর বদলে সলমনের নায়িকা হিসাবে ছবিতে জায়গা করে নেন সোনালি বেন্দ্রে।

কিন্তু তখন সুসম্পর্ক থাকার পরেও কেন সলমনের সঙ্গে ছবি করতে চাননি নায়িকা?

aishwarya rai bachchan

“দেখুন, আর কেউ না বুঝলেও আমি তো জানি, বছরে কটা দিন হয় আর সেই অনুপাতে কত ঘণ্টা আমি কাজ করতে পারি! আমিও তো মানুষ, একটা সময়ের পর আমারও তো বিশ্রামের দরকার হয়! কিন্তু তখন অনেকগুলো ছবি সই করা আছে, ফলে হম সাথ সাথ হ্যায়-এর জন্য সময় বের করাটা আমার পক্ষে অসম্ভব ছিল”, খোলাখুলি এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন ঐশ্বর্য।

salman khan

আর সেটা জানানোর পর থেকেই শুরু হয়েছে জলঘোলা! তা হলে কি ঐশ্বর্য আগাম আঁচ করতে পেরেছিলেন যে একটা গণ্ডগোল বাধতে চলেছে এই ছবিকে কেন্দ্র করে? তাঁর ষষ্ঠ ইন্দ্রিয়ই কি তাঁকে বারণ করেছিল কাজটা হাতে নিতে?

salman khan and saif ali khan

এ কথার উত্তর এখন মিলবে না! কিন্তু এটাও ঠিক- ছবিটা করতে গিয়েই বিরল প্রজাতির কৃষ্ণসার হরিণ মেরে আইনের রক্তচক্ষুর সামনে পড়তে হয়েছে সলমন খানকে। তাঁর সঙ্গে সইফ আলি খান, সোনালি বেন্দ্রে আর নীলমকেও। যে মামলার চূড়ান্ত শুনানির দিন ধার্য হয়েছে ৫ এপ্রিল।

সন্দেহ নেই, ছবিটা করলে মামলার সঙ্গে জড়িয়ে পড়তেন ঐশ্বর্যও!

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here