ওয়েবডেস্ক: টলিপাড়ার জনপ্রিয় নায়িকা সায়ন্তিকা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গাড়ি শুক্রবার ভাঙচুর করা, তাঁর সচিবকে মারধর করা- এ সবের জেরে অভিনেতা জয় মুখোপাধ্যায়কে শনিবারেই গ্রেফতার করে আলিপুর আদালতে তুলেছিল পুলিশ। সায়ন্তিকা জয়ের নামে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছিলেন টালিগঞ্জ থানায়। তার পরে অবশ্য ৫০০ টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে জামিনও পেয়েছেন জয়।

sayantika banerjee

কিন্তু সম্পর্কটা নিয়ে আর কোনো রাখঢাকে বিশ্বাসী নন নায়িকা। স্পষ্টই জানাচ্ছেন তিনি এক সাক্ষাৎকারে, কী ভাবে সাদার্ন অ্যাভিনিউয়ে পথের মাঝেই তাঁকে হেনস্তা করা হয়!

sayantika banerjee

“সে দিন আমি জিম থেকে ফিরছিলাম। সঙ্গে ছিলেন আমার ট্রেনার সমীরণ, ব্যক্তিগত সচিব অমিত এবং আমার সহকারী সুরজ। সুরজ গাড়ি চালাচ্ছিল। ঠিক ছিল, সমীরণকে সাদার্ন অ্যাভিনিউয়ের এক জিমে নামিয়ে দিয়ে আমরা ফিরে যাব। যখন সাদার্ন অ্যাভিনিউতে, তখন আচমকাই একটা গাড়ি এসে আমাদের গাড়িটাকে পিছন থেকে ধাক্কা মারে! তার পর সেটা বেশ জোরে ব্রেক কষে আমাদের গাড়ির সামনে এসে রাস্তা আটকে দাঁড়ায়! আমরা বুঝতে পারি, জয় এটা করছে! অমিত যখন গাড়ি থেকে নেমে ওর সঙ্গে কথা বলতে গেল, তখন ও অমিতকে থাপ্পড় মারতে থাকে”, বলছেন সায়ন্তিকা!

sayantika banerjee

পাশাপাশি, স্পষ্ট করে দিচ্ছেন নায়িকা, সম্পর্ক ভেঙে যাওয়ার পর থেকেই জয় তাঁকে নানা ভাবে মারধরের চেষ্টা করেছেন! “সব সম্পর্কের একটা মর্যাদা থাকে! কিন্তু জয় সেটা বুঝতে চাইছে না! এর আগেও ও আমাদের সল্টলেকের বাড়িতে গিয়ে ঝামেলা করেছে! সে দিন মা বাড়িতে একা ছিলেন! তাঁকেও হেনস্তা করা হয়, পাশাপাশি আমার ভাবমূর্তি খারাপ করা হয়। এর পরে একদিন রাত ৩টের সময়ে ও আমার ফ্ল্যাটেও জোর করে ঢোকার চেষ্টা করে! নিরাপত্তারক্ষীরা ওকে বাধা দিলে তাদের সঙ্গে বচসা হয়! জয়ের বক্তব্য ছিল, আমার ফ্ল্যাটে ওর কিছু জিনিস রয়ে গিয়েছে, সেগুলো নিতে এসেছে! কিন্তু সব কিছুই যে নিয়ে গিয়েছে, এটা নিজেই এর আগে একটা কাগজে লিখে দিয়ে গিয়েছিল! যাই হোক, শুক্রবারের ঘটনার পরে বাবার সঙ্গে কথা বলে আমি লিখিত অভিযোগ দায়ের করতে বাধ্য হই! আশা করি, এ বার ও নিজের ভুল বুঝতে পারবে”, বলছেন নায়িকা!

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here