ওয়েবডেস্ক: “আর শুধু একটা বছর সময় দিন আমায়। মণিকর্ণিকা: দ্য কুইন অব ঝাঁসি মুক্তি পেয়ে যাক! কথা দিচ্ছি, তার পরে বিয়ে করে আপনাদের সবাইকে দেখিয়ে দেবো”! চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে ল্যাকমে ফ্যাশন উইকে সাংবাদিকদের এ কথা জানিয়েছিলেন কঙ্গনা রানাউত। আমরাও কাজেই ছিলাম তক্কে তক্কে- সময় তো এগিয়েই আসছে, তাড়াতাড়িই মিলবে নায়িকার বিয়ের খবর। কিন্তু ছবির শুটিংয়ের শেষ পর্যায়ে এসে যা জানাচ্ছেন নায়িকা, দেখা গেল, তিনি আগের বক্তব্যের পুরোপুরি উল্টো দিকে ঘুরে গিয়েছেন!

কারণটা কিন্তু রাজনীতি! সাম্প্রতিক এক সাক্ষাৎকারে, মুম্বইয়ের এক অনুষ্ঠানে নিজেই স্বীকার করে নিয়েছেন যে তিনি রাজনীতিতে যোগদানের জন্য সম্পূর্ণ ভাবে তৈরি! যে রানি লক্ষ্মীবাঈ দেশের স্বার্থে প্রাণ দিয়েছিলেন, তাঁর চরিত্রকে রুপোলি পর্দায় ফুটিয়ে তুলতে ব্যস্ত কঙ্গনা রানাউত যদিও পাশাপাশি জানিয়েছেন- রাজনীতিতে আসার আগে তাঁকে অনেক কিছুই শিখতে হবে! পাশাপাশি, আর যা বলেছিলেন নায়িকা, তা জেনে নিতে পারেন নীচের লিঙ্কে ক্লিক করে।

আরও পড়ুন: রাজনীতিতে নামতে তৈরি কঙ্গনা, স্বীকারোক্তির সঙ্গে মোদীকেই বলছেন গণতন্ত্রের আদর্শ প্রতিভূ

সেই রাজনীতির প্রসঙ্গ ধরেই এ বার নায়িকার বিবৃতি- “যদি সত্যিই কোনো দিন দেশের হয়ে কাজ করতে নামি, তা হলে দেশের সেবিকা হয়েই থাকব। কোনো বৈবাহিক সম্পর্ক, সন্তান পৃথিবীতে আনা- ব্যক্তিগত কোনো সুখই তখন আর প্রাধান্য পাবে না!” কী ভাবছেন, কথায় একটা ‘যদি’ আছে, তাই না?

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন