s durga

ওয়েবডেস্ক: অবশেষে গণতন্ত্রের জয়। জয় ভারতীয় চলচ্চিত্র জগতেরও। কেরল হাইকোর্টের রায় অন্তত সে রকমটাই বলছে। মঙ্গলবার সাফ জানিয়ে দিয়েছে আদালত, ৪৮তম আন্তর্জাতিক ভারতীয় চলচ্চিত্র উৎসবে পরিচালক সনল কুমার শশীধরণের ‘এস দুর্গা’ ছবিটি দেখাতেই হবে!

জানা গিয়েছিল, তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সিদ্ধান্তেই এ বারের গোয়া চলচ্চিত্র উৎসবের ভারতীয় বিভাগ থেকে বাদ পড়েছিল ছবিটি। সঙ্গে বাদ পড়েছিল পরিচালক রবি যাদবের ছবি ‘ন্যুড’। প্রতিবাদে উৎসবের ছবি বাছাইয়ের জন্য তৈরি হয়েছিল যে ১৩ জনের জুরি বোর্ড, তার দায়িত্ব থেকে ইস্তফা দিয়েছিলেন জুরি প্রধান পরিচালক সুজয় ঘোষ। তাঁর সিদ্ধান্তে সহমত হয়ে পদত্যাগপত্র পত্র জমা দিয়েছিলেন জুরি বোর্ডের অন্যতম দুই সদস্য চিত্রনাট্যকার অপূর্ব আসরানি এবং পরিচালক জিয়ান কোরিয়া। বিতর্কের মুখে পড়ে তথ্য এবং সম্প্রচার মন্ত্রকের অধিকর্তা স্মৃতি ইরানির পক্ষে মুখ খুলেছিলেন গোয়ার মুখ্যমন্ত্রী মনোহর পররিকর। জানিয়েছিলেন, শশীধরণ সেন্সর বোর্ড অনুমোদিত ছবির কপি তাঁদের কাছে পাঠাননি। সেই কারণেই বাদ দেওয়া হল ছবিটিকে।

এর পরেই পরিচালক শশীধরণ এই সিদ্ধান্তের বিরোধিতা করে একটি মামলা দায়ের করেন কেরল হাইকোর্টে। আদালতের মঙ্গলবারের রায় সব বিতর্কে ইতি টানল। আদালত জানিয়ে দিল, সেন্সর বোর্ড ছবির যে ভার্সনটি অনুমোদন করেছে, তা বাদ দেওয়া যাবে না। ছবিটি দেখাতেই হবে উৎসবে।

স্বাভাবিক ভাবেই আদালতের রায়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন পরিচালক। “এ শুধু গণতন্ত্রেরই জয় নয়, একই সঙ্গে ভারতীয় চলচ্চিত্র জগতেরও জয়। আমি সাধারণত এ রকম কোনো ব্যাপারে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করি না। কিন্তু এ বার আর চুপ থাকতে পারলাম না। যাঁরা জুরি বোর্ডের সদস্যপদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন, তাঁরাও খুশি হবেন খবরটা পেয়ে। এ তো তাঁদেরও জয়”, ফেসবুকে জানিয়েছেন পরিচালক।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here