ওয়েবডেস্ক: আদতে ব্যাপারটা খুনসুটিই! শুধু একটা জায়গা ছাড়া! ওই যেখানে মিমি চক্রবর্তীকে জোর করে চুমু খাওয়ার চেষ্টা করেছেন অঙ্কুশ হাজরা ‘ভিলেন’ ছবির ‘শুধু তুই’ গানে! কথাটা উঠছে বার বার- কেন না জানিয়েছেন নায়িকা, ওই গানের একটা দৃশ্যও চিত্রনাট্যে ছিল না! তাঁদের যখন যা মনে হয়েছে, সে ভাবেই শুট করেছেন! আর সেই জায়গা থেকে আরও জানিয়েছিলেন মিমি তাঁর বিবৃতিতে- অঙ্কুশ এই ছবির শুটিংয়ের সময়ে এতটাই উত্যক্ত করতেন যে থাকতে না পেরে সত্যি সত্যিই তাঁকে লাথি মেরেছিলেন নায়িকা!

আরও পড়ুন: শুটিংয়ে জবরদস্তি করতেন অঙ্কুশ? ‘ভিলেন’ নিয়ে বিস্ফোরক মিমি!

 

View this post on Instagram

 

ভালোবাসা মানে #ShudhuTui . Indulge in romance with the first song from #Villain

A post shared by Ankush Hazra (@ankush.hazra22) on

অঙ্কুশের এই উত্যক্ত করার প্রমাণ ফের মিলল শহরের বুকে! যখন এক দৈনিকের সঙ্গে ছবির প্রচার করার জন্য শহরের নানা তৈরি হতে থাকা পুজো প্যান্ডেল, রাস্তার পাশের খাবারের দোকানে ঘুরে বেড়ালেন মিমি আর অঙ্কুশ! সেই খবর মোতাবেকে, সবার সামনেও মিমিকে উত্যক্ত করতে ছাড়েননি অঙ্কুশ! তিনি নাকি বেশ কিছুটা দেরি করে এসেছিলেন, ফলে মিমিকে অপেক্ষায় থাকতে হয়! সেটা নিয়ে বিরক্ত হয়েই ছিলেন নায়িকা- যার মাত্রা নায়কের কাণ্ডে ধাপে ধাপে বাড়ল!

জানা গিয়েছে, মিমিকে না কি ঠিক ভাবে খেতে দেননি অঙ্কুশ! তাঁর চাউমিন থেকে ডিমগুলো তুলে নেওয়ার চেষ্টা করেছেন! স্পষ্টই বলেছেন মিমি- এ রকম করলে তিনি আর সহ্য করবেন না! বিশেষ করে ছবিটা যখন শেষ হয়েই গিয়েছে! কিন্তু তাতেও অঙ্কুশ থামেননি! অবশেষে রফায় আসতে হয়েছে মিমিকেই- ভাঁড়ের চায়ের সঙ্গে সন্ধিচুক্তি নিয়ে! কিন্তু অঙ্কুশের একটা কথা ভাবানোর মতো! পথে তাঁদের দেখে যাঁরা জড়ো হয়েছিলেন, সবাই কেবল মিমির নামই নিচ্ছিলেন চিৎকার করে! তা দেখে প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন অঙ্কুশ- “তুই কি এদের টাকা দিয়েছিস?” আপনার কী মনে হয় বলুন তো?

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন