tollywood

ওয়েবডেস্ক: সময়ের বদলে যাওয়া চাহিদা নিয়েই অনেক দিন ধরেই কোমর বাঁধছে টালিগঞ্জের ফিল্ম কারখানা। এখানে এখন বদলে যাচ্ছে ছবি তৈরির সমীকরণ, বদলাচ্ছে প্রচারের পুরনো ধাঁচ। সেই সব হিসেবে ধরলে ২০১৭-য় বেশ কিছু হইচই পড়ল কিন্তু টলিউডে। যদিও তার পুরোটাই ছবি-সংক্রান্ত নয়। চলতি বছরে টলিউডের বিতর্কের তালিকায় থেকেছে ছবি নির্মাতা এবং নায়ক-নায়িকাদের ব্যক্তিজীবনের কথাও।

দুই নারী, হাতে তরবারি:

raj chakraborty

দুই নায়িকার ঝগড়া কোনো ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতেই নতুন কিছু নয়। কিন্তু পরিচালক রাজ চক্রবর্তীকে মাঝে রেখে মিমি চক্রবর্তী আর শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় জড়িয়ে পড়লেন মার্জার-লড়াইয়ে। এই বছরেই ভেঙে গেল মিমি আর রাজের দীর্ঘ দিনের সম্পর্ক। গুজব রটল, রাজ চক্রবর্তী এবার মন দিয়েছেন শুভশ্রীকে। এটা সত্যি কি না, তা এখনও নিশ্চিত করে বলা যাবে না। কিন্তু মিমির এক বিদেশি প্রেমিক জুটিয়ে ফেলা, শুভশ্রীর মুখ দেখতে না চাওয়া- এ সব তো আর মিথ্যে নয়!

হাঙ্গামা হো গয়া:

sonika singh chauhan

চলতি বছরের মে মাসে বন্ধুবান্ধবদের সঙ্গে পার্ক স্ট্রিটের এ বার, সে বারে ফূর্তি করে বেড়াচ্ছিলেন মডেল সোনিকা সিং চৌহান আর অভিনেতা বিক্রম চট্টোপাধ্যায়। পেটে মদ আর মাথায় লাগামছাড়া আনন্দ নিয়ে এখন গাড়ি চালালে যা হয়! দক্ষিণ কলকাতার এক জনবহুল পথে গাছের সঙ্গে ধাক্কা খেল গাড়ি। নারীটি প্রাণ হারালেন ঘটনাস্থলেই। আর বিক্রম? তাঁকে ছুঁল পুলিশে। সেই সঙ্গে চলল তুমুল কেচ্ছা! তাঁদের সম্পর্ক কী ইত্যাদি প্রভৃতি!

বোঝে কী আনজনে:

srabanti chatterjee

ইশ! দ্বিতীয় বিয়েটাও এই বছরে ভেঙে গেল শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়ের। রাজীব বিশ্বাসকে ছেড়ে ব্রজ কৃষণকে বিয়ের আগে বলেছিলেন, “আমি কৃষ্ণকে পুজো করি, তাই ওঁর নামেই বর পেলাম”! এখন বলেন, “জীবন নিয়ে আর বেশি ভাবি না”! সত্যিই তো! এত ভেবেও তো বুঝতে পারেননি নায়িকা, যাঁকে বিয়ে করছেন, সে আসলে বর নয়- বর্বর!

ছবিওয়ালা:

dev

এত দিন ছিলেন বাংলা ছবি কারখানার যুবরাজ! এবার হলেন প্রযোজকও! এই বছরেই প্রযোজক দেবের হাত ধরে রাজ চক্রবর্তী বানালেন ‘চ্যাম্প’। ইচ্ছে ছিল, মতি নন্দীর ‘শিবার ফিরে আসা’ নিয়ে ছবিটা তৈরি হোক! প্রয়াত লেখকের স্ত্রী সেই অনুমতি দেননি। তাতে কী! নিজেই গল্প ফেঁদে, চিত্রনাট্য লিখতে বসে গেলেন দেব! হ্যাঁ, চিত্রনাট্যে প্লেজিয়ারিজমের অভিযোগ উঠল বটে, তবে তাতে কিছু এসে গেল না তাঁর! ব্যবসা তো হল!

সত্যি, এত বড়?

amazon obhijaan

বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘চাঁদের পাহাড়’-এর হ্যাংওভার এখনও কাটেনি। ফলে, পরিচালক কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায় নিজেই একটা গল্প ফাঁদলেন শঙ্করকে নিয়ে। এবার আমাজন, মাতবে জনগণ! এবং তার লক্ষ্যেই বিশাল বড়ো এক পোস্টার তৈরি করলেন ‘আমাজন অভিযান’-এর। হুঁ হুঁ বাবা, পাক্কা ৬০,৮০০ বর্গফুটের সেই কীর্তি! এখন কথা হল, এত বড়ো পোস্টারের কি সত্যিই প্রয়োজন ছিল? সে ভালো বুঝবেন নির্মাতারাই! আমরা খবরটা দিয়েই কাজ সারি!

ইনহিবিশন বিসর্জন:

bishorjon

অন্য কথা বলতে পারি না! তবে কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়ের ‘বিসর্জন’ শুধু জাতীয় পুরস্কারের তালিকায় থাকার জন্যই নয়, আরেক দিক থেকেও চলতি বছর কাঁপাল! আসলে, পর্দায় নায়িকাকে ঠোঁটঠাসা চুমু না খাওয়ার পণটা এই ছবিতে ভাঙলেন আবীর চট্টোপাধ্যায়। ফলে, আলাদা করে সেটা নিয়ে একটুও কথা হবে না, তা-ও কি হতে পারে?

পুনশ্চ প্রফেসর শঙ্কু:

professor shonku

হ্যাঁ! এই বছরেই তো সেই ঘোষণা করলেন পরিচালক সন্দীপ রায়, সবাই এত দিন ছিল যার আশায় আশায়! জানিয়ে দিলেন পরিচালক- এবার তিনি বড়োপর্দায় নিয়ে আসতে চলেছেন সত্যজিৎ রায়ের অমর সৃষ্টি প্রফেসর শঙ্কুকে। গিরিডির এই আপনভোলা বৈজ্ঞানিকের ভূমিকায় ধৃতিমান চট্টোপাধ্যায়কেই পরিচালকের পছন্দ। এবার ছবিটা তৈরি হয়ে গেলেই হয়! সামনের বছরের বড়োদিনে সে প্রত্যাশা কিন্তু পূর্ণ হতেই পারে!

অন্য কিছু হয়ে যাক:

feluda

২০১৭-য় টলিউডের সবচেয়ে বড়ো ঘটনা বোধহয় ওয়েব সিরিজ মুক্তি। সারা বিশ্বে এখন ওয়েব সিরিজ বা শুধু নেটদুনিয়ায় প্রাপ্ত ধারাবাহিকধর্মী ছবির বড়ো রমরমা। সেই তালিকায় এবার নাম লেখাল বাংলাও। তার হাত ধরেই এল নতুন ফেলুদা আর তোপসে, ভূমিকায় যথাক্রমে পরমব্রত চট্টোপাধ্যায় আর ঋদ্ধি সেন। বাংলা পেল নতুন ব্যোমকেশ-অজিতকেও। তাঁদের চরিত্রে এখন বাঙালিকে মাতাচ্ছেন অনির্বাণ ভট্টাচার্য আর সুব্রত দত্ত। এ ছাড়া আরো এক দিক থেকে ইনহিবিশন খসল ইন্ডাস্ট্রির। ওয়েব সিরিজের হাত ধরে সাবালক হল পর্দা। বাঙালি পেল ‘দুপুর ঠাকুরপো’-র মতো হালকা প্রাপ্তমনস্ক ধারাবাহিকও।

কন্যে হল আজ সীমন্তিনী:

paoli dam

চলতি বছরে ডাকসাইটে দুই বাঙালি নায়িকা বিয়ে সেরে ফেললেন টলিউডে। এমনটা বড়ো একটা ঘটে না। অগস্ট মাসে রিয়া সেন বিয়ে করে ফেললেন বয়ফ্রেন্ড শিবম তিওয়ারিকে। নিন্দুকরা রটাল, গর্ভবতী হয়ে পড়াতেই না কি সাত তাড়াতাড়ি বিয়ে সারলেন রিয়া। তা, লোকে কী না বলে! অবশ্য, পাওলি দামকে এ সব কিছু শুনতে হয়নি। ডিসেম্বরে তিনি বেশ ঘটা করেই বিয়ে করলেন প্রেমিক অর্জুন দেবকে। তাঁর বিয়েটা রিয়ার মতো প্রচার থেকে লুকিয়ে-চুরিয়ে হয়নি!

মহাপ্রস্থানের পথে:

death

বছর শেষের সালতামামিতে মৃত্যু একটা বড়ো অংশ জুড়ে থাকেই! তাকে যে কেউই এড়িয়ে যেতে পারেন না। তবু পথ দুর্ঘটনায় মার্চ মাসের ৬ তারিখে লোকসঙ্গীতশিল্পী কালিকা প্রসাদ ভট্টাচার্যের হঠাৎ-ই চলে যাওয়া ইন্ডাস্ট্রিকে যেন একটা ধাক্কা দিয়ে গেল। সে ভাবেই টলিউডের পক্ষে ১৯ নভেম্বর রীতা কয়রালের প্রয়াণও মেনে নেওয়া অসম্ভব। যদিও অনেক দিন ধরেই দুরারোগ্য ক্যানসারে আক্রান্ত ছিলেন অভিনেত্রী। অন্য দিকে, ২৭ সেপ্টেম্বর টলিউডকে তো বটেই, পাশাপাশি বাংলা রঙ্গমঞ্চেও আঁধার নেমে এল দ্বিজেন বন্দ্যোপাধ্যায়ের মৃত্যুতে। পাশাপাশি, সঙ্গীতজগত স্তব্ধ হল ২১ ডিসেম্বর কিংবদন্তি সঙ্গীতশিল্পী জটিলেশ্বর মুখোপাধ্যায়ের প্রয়াণে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here