‘রাধে’র বক্স অফিস কালেশন হতো ‘জিরো’, হল মালিকদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী সলমন খান

0

খবর অনলাইন ডেস্ক: ঈদে মুক্তি পাবে সলমন খান (Salman Khan) অভিনীত ‘রাধে-ইওর মোস্ট ওয়ান্টেড ভাই’ ( Radhe: Your Most Wanted Bhai)। তবে বড়ো পরদায় নয়।

করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে আপাতত ওটিটি প্ল্যাটফর্মেই মুক্তি পাচ্ছে এই ছবি। হল মালিকদের প্রত্যাশার কথা ভেবে সোমবার একটি ভার্চুয়াল সাংবাদিক বৈঠকে ভাইজানের সোজাসাপটা স্বীকারোক্তি, দেশের বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেলে ‘রাধে’র বক্স অফিস কালেশন হতো ‘জিরো’।

জুম-এর ওই সাংবাদিকদের প্রশ্নের মুখোমুখি হয়ে সলমন শুরুতেই বলেন, “জুম কলের জন্যে ঈশ্বরকে ধন্যবাদ, নইলে আমাদের সকলের করোনা হয়ে যেত”। রাধের বক্স অফিস কালেকশন নিয়েও বেশ গুছিয়ে মন্তব্য করেন খোসমেজাজে থাকা ‘ভাইজান’।

এমনিতে কোভিড মহামারিতে দেশের বিভিন্ন জায়গায় লকডাউন এবং কড়া নিয়ন্ত্রণবিধির জন্য প্রেক্ষাগৃহ বন্ধ রাখতে বাধ্য হয়েছেন মালিকরা। যেখানে খোলা রয়েছে, সেখানেও সংক্রমণের আশঙ্কায় দর্শক হলমুখো হচ্ছেন না। তার উপর এমন পরিস্থিতিতে পকেটেও অবস্থাও খারাপ। ফলে টিকিট কেটে হলে গিয়ে ছবি দেখতে সাধারণ দর্শকরা কতটা আগ্রহ দেখাবেন, তা নিয়েও সন্দেহ রয়েছে।

নিজের নতুন ছবি নিয়ে আলোচনার সময় সলমন বলেন, “আমি জানি, রাধে বড়ো পরদায় দেখতে না পাওয়ার জন্যঅনেকেই হতাশ হয়েছেন। তবে আমি সবাইকে অনুরোধ করব, প্লিজ বাড়িতে বসে ছবি দেখুন। আমি চাই না এর পর লোক বলুক, সলমনের ছবি দেখতে গিয়ে করোনা হয়েছে”।

এমনিতে করোনার জন্য লোকসানে চলছে সিনেমা শিল্প। সলমন ভালো মতোই বোঝেন, সেই লোকসানে হয়তো কিছুটা প্রলেপ লাগাতে পারত তাঁর নতুন ছবি। তিনি বলেন, “আমি সিনেমা হলের মালিকদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী। যাঁরা ভেবেছিলেন, এই ছবি দেখিয়ে কিছুটা লাভের মুখ দেখতে পাবেন। তবে আমাদের যতটা সম্ভব অপেক্ষা করতে হবে। মানুষের যদি ছবি পছন্দ হয়, তা হলে মহামারি কেটে যাওয়ার পর অবশ্যই ছবি পেক্ষাগৃহে মুক্তি পাওয়ার ব্যবস্থা করব”।

আরও পড়তে পারেন: করোনা রুখতে গোবর মাখবেন না, এতে অন্যান্য রোগের ‘ঝুঁকি’ রয়েছে, সতর্কতা চিকিৎসকদের

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন