ওয়েবডেস্ক: মহারাষ্ট্রের আলিবাগে খামারবাড়ি শাহরুখ খান কিনেছেন অন্যের নামে- এই মামলার নিষ্পত্তি হয়ে গিয়েছিল না? মীমাংসাকারী কর্তৃপক্ষ অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দিয়েছিল না নায়ককে?

 

View this post on Instagram

 

Should I just let the hair grow for another few months??!

A post shared by Shah Rukh Khan (@iamsrk) on

তা তো বটেই! খবর মোতাবেকে, আয়কর দফতর অভিযোগ করে, শাহরুখ খান দেজা ভ্যু ফার্মস প্রাইভেট লিমিটেড সংস্থা গড়ে একজন কৃষিজীবীকে সামনে রেখে ওই জমি বেনামে কেনেন তিনি। তিন বছরের মধ্যে চাষ করার শর্ত না মেনে শাহরুখের নির্দেশে ওই জমিতে ফার্মহাউস গড়া হয়। পরিণামে ওই জমি ও ফার্মহাউস বাজেয়াপ্ত করে আয়কর দফতর।

আরও পড়ুন: এ বার ওয়েব সিরিজে অভিনয় করবেন শাহরুখ খান, লুক-বদলের জন্য বাড়াচ্ছেন চুলও!

কিন্তু মীমাংসাকারী কর্তৃপক্ষ জানিয়েছিল, কোনো স্বাধীন সংস্থা যদি ব্যবসায়ে নেমে বাণিজ্যিক লেনদেন করে এবং সে জন্য ঋণ নেয় তা হলে তাকে বেনামি লেনদেন বলা যায় না। পাশাপাশি যুক্তি দেখান নায়কের আইনজীবী, বেসরকারি সংস্থা তাদের শেয়ারহোল্ডারদের কাছ থেকে ঋণ নিতেই পারে। শাহরুখ দেজা ভ্যু সংস্থাকে যে টাকা ঋণ দিয়েছেন, তাঁর আয়কর রিটার্নেও তা দেখানো হয়েছে।

 

View this post on Instagram

 

Wondering…could this be the cloud that stores my data??!

A post shared by Shah Rukh Khan (@iamsrk) on

এই সব মিলিয়ে শাহরুখের বিরুদ্ধে অভিযোগ খারিজ হয়ে গেলেও এ বার ফের আয়কর দফতর শাহরুখকে দোষী প্রমাণিত করতে উঠে-পড়ে লেগেছে। দফতরের দাবি, বেনামি প্রপার্টি অ্যাক্ট মোতাবেক কেউ যদি নিজের মূলধন প্রয়োগ না করে সম্পত্তি কেনেন, তা হলে তাকে বেনামিই বলতে হবে। এই মোক্ষম অস্ত্রটিই এ বার দফতর প্রয়োগ করতে চলেছে নায়কের বিরুদ্ধে! দেখা যাক, শেষ পর্যন্ত কী হয়!

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here