shahid kapoor

ওয়েবডেস্ক: ইদানীং একটু বেশিই বিতর্কিত মন্তব্য করছেন না শাহিদ কাপুর? আর সেই সব মন্তব্যের পুরোটাই কেন ঘুরে-ফিরে যাচ্ছে স্ত্রী মীরার খাতে?

কিছু দিন আগেই এক সাক্ষাৎকারে ঘুরিয়ে-ফিরিয়ে জানিয়েছিলেন নায়ক, বলিউডের দুই ডাকসাইটে অভিনেত্রী, যাঁদের সঙ্গে তাঁর প্রেম ছিল, তাঁরা না ঠকালে মীরাকে বিয়ের প্রয়োজন হতো না! আর এবার এক অনুষ্ঠানে গিয়ে জানালেন, পাঁচ বছরের মেয়েকে বিয়ে করাটাই না কি জীবনের সবচেয়ে বড়ো দুষ্টুমি!

shahid kapoor

অবাক হচ্ছেন? ভাবছেন, বালিকাদের নিয়ে এ সব কী মন্তব্য করছেন নায়ক?

টুইটারও ঠিক আপনার মতোই চমকে উঠেছে শাহিদের এই মন্তব্যে। সেই কথায় আসার আগে একবার বরং চোখ রাখা যাক ঘটনা এবং তার পরিপ্রেক্ষিতে নায়কের বিবৃতিতে। খবর বলছে, সাম্প্রতিক এক অনুষ্ঠানে নায়কের কাছে জানতে চেয়েছিলেন এক সাংবাদিক- তাঁর জীবনে এযাবৎ সেরা দুষ্টুমি কোনটি?

“আমার যখন ১৮ বছর বয়স ছিল, সেই সময় আমি ভাবতেও পারতাম না যে, তখন যে মেয়েটির বয়স মাত্র ৫ বছর, তাকে বিয়ে করব! কিন্তু পরে সেটাই করলাম! মীরা আমার চেয়ে পাক্কা ১৩ বছরের ছোটো! এটাই আমার জীবনের সেরা দুষ্টুমি”, বলেছেন নায়ক। একটু থেমে যোগ করতে ভোলেননি, “আমার কাছে এখনও ও সেই ৫ বছরের বাচ্চাটাই”!

কী কাণ্ড! তবে কি শাহিদ মনে মনে এক বালিকার সঙ্গে সহবাসের কথা ভাবেন?

অন্তত টুইটারেতিরা কিন্তু ঠিক এই রকম ভেবেই মহা তুলকালাম শুরু করে দিয়েছেন। তাঁদের একজন একটি ইংরেজি দৈনিকে প্রকাশিত শাহিদের সেই মন্তব্যের ছবি তুলে পোস্ট করেছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। তার পর শুরু হয়েছে নায়ককে তুলোধোনা করার পালা! কেউ বা ঘৃণায় ‘ওয়াক-ওয়াক-ওয়াক’ লিখে পোস্ট করছেন নায়ককে ট্যাগ করে। কেউ বলছেন, সন্দেহ কী শাহিদই ‘ভারতের সেক্সিয়েস্ট বিকৃতকামী’! একজন আবার আরও এক ধাপ এগিয়ে লিখছেন, “আমার মা-বাবার বয়সের পার্থক্যও ১৩ বছরের! কিন্তু তাঁরা এরকম বিকৃত ভাবে বিষয়টিকে দেখেন না”!

shahid kapoor

আর নায়ক? তিনি নিজে কী বলছেন বিষয়টি নিয়ে?

শাহিদ আপাতত মুখে কুলুপ এঁটেছেন! নিজের এবং মন্তব্যের স্বপক্ষে কোনো রকম সাফাই গাওয়ারই প্রয়োজন বোধ করেননি তিনি!

আরও পড়ুন: মীরার দেওর-প্রীতি, শাহিদের মনে এখনও প্রিয়াঙ্কা-করিনা, সম্পর্ক কি ভাঙার পথে?

বলিউড যদিও বলছে অন্য কথা! গুজব অনুযায়ী, এ নাকি মীরার দেওর-প্রীতি দেখে তাঁকে কটাক্ষ নায়কের! খেয়াল করে দেখবেন, ঈশান খট্টরকে ছাড়া হালফিলে মীরা কোনো ছবিই পোস্ট করেন না সোশ্যাল মিডিয়ায়! উপরের ছবিটাই দেখুন না! মীরা হাসছেন দেওরকে জড়িয়ে ধরে, ঈশানের মুখেও হাসি, নায়ক কিন্তু গম্ভীর! এমনকী মীরা প্রকাশ্যেই বলে বেড়ান, “ঈশান সব দিক থেকেই শাহিদের চেয়ে ভালো”! যা নিয়ে মৃদু অশান্তি শুরু হয়েছে দাম্পত্যে। শাহিদের এই মন্তব্য তারই পরিণাম আর কী!

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here