ওয়েবডেস্ক: হালফিলে রণবীর কাপুরের সঙ্গে ততটা না হলেও প্রাক্তনের মা-বাবার সঙ্গে মেশামিশিটা একটু বেশিই বেড়েছে না দীপিকা পাড়ুকোনের? সে তাঁরা রণবীর সিংকে নিয়ে যত হাসাহাসিই করুন না কেন?

ঘটনা তো অন্তত সেই দিকেই ইঙ্গিত করছে। চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে, যে ঋষি কাপুর রণবীর সিংকে একদম সহ্য করতে পারেন না, কথায় কথায় খোঁচা মারেন, এমনকী বিপদে ফেলারও চেষ্টা করেন নায়ককে, সে-ই তিনিই এখন দীপিকার বড়ো ঘনিষ্ঠ! অন্য দিকে, যে নীতু কাপুর এক সময়ে সংবাদমাধ্যমে দীপিকাকে নিয়ে কম খারাপ কথা বলেননি, তিনিই এখন প্রায় নায়িকার গার্লফ্রেন্ড!

বলিউডের খবর আমাদের জানিয়েছে, ‘পদ্মাবত’ মুক্তির আগে রণবীর সিংকে বিপদের মুখে প্রায় ছুঁড়েই দিয়েছিলেন ঋষি। একটি ছবি তিনি পোস্ট করেছিলেন নিজের টুইটার হ্যান্ডেলে। সেখানে দেখা যাচ্ছিল করণ জোহরের মুখটা দু’ হাতে ধরে করুণ চোখে তাকিয়ে রয়েছেন রণবীর। সঙ্গে রণবীরের জবানিতে লেখা- “কর্নি সেনা যদি পদ্মাবত মুক্তি পেতে না দেয়, তা হলে আমি জহর ব্রত করব!”

সেই টুইট ছড়িয়ে পড়তেই খুব স্বাভাবিক ভাবে ঋষিকে পড়তে হয় সমালোচনার মুখে। বিপদজনক পরিস্থিতিতে যেখানে ‘পদ্মাবত’-এর সব অভিনেতারাই অস্বস্তিতে রয়েছেন, সেখানে তাঁর এই পোস্ট অশান্তিকে উসকে দিতে পারে- এমন অভিযোগ উঠতে থাকে। এ-ও দাবি করা হয়, তিনি তাঁর পোস্টে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দিচ্ছেন। যার জেরে টুইটটি মুছে দিতে বাধ্য হন ঋষি।

কিন্তু দেখা যাচ্ছে, হবু স্বামীর এই অবমাননা নিয়ে এতটুকুও বিচলিত নন নায়িকা। বরং ২৫ জানুয়ারি তিনি নীতু আর ঋষির জন্য আলাদা করে ‘পদ্মাবত’-এর এক বিশেষ স্ক্রিনিংয়ের আয়োজন করেন। সেই শো-তে যোগ দিয়ে কাপুর-দম্পতিকেও দেখা যায় আহ্লাদিত মুখে। এবং বাড়ি ফিরে একটি চিরকুটে হাতে-লেখা শুভেচ্ছাবার্তা-সহ দীপিকার জন্য ফুলও পাঠিয়েছেন তাঁরা। যার ছবি নায়িকা আবার পোস্টও করেছেন নিজের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে।

ও দিকে, রণবীর সিংয়ের মা-বাবা, অঞ্জু ভাবনানি এবং জগজিৎ সিং ভাবনানি কিন্তু থেকে গেলেন দূরেই! তাঁদের জন্য ‘পদ্মাবত’-এর কোনো বিশেষ স্ক্রিনিংয়ের আয়োজন করতে দেখা গেল না নায়িকাকে।

বলিউড আপাতত এই নিয়ে কানাকানি করলেও নায়িকার ঘনিষ্ঠরা কিন্তু বলছেন অন্য কথা। তাঁদের দাবি, দূরের মানুষের সঙ্গেই লৌকিকতার প্রয়োজন পড়ে, কাছের মানুষের ক্ষেত্রে নয়। তা ছাড়া, ঋষি রণবীর সিংকে নিয়ে হাসাহাসি করলেও দীপিকা কায়দা করে তাঁকে হবু স্বামীর ছবি দেখিয়েই ছাড়লেন! যা তাঁর বুদ্ধিমত্তারই পরিচায়ক!

আরও একটা ব্যাপার মাথায় না রাখলেই নয়! যে ভাবে ‘পদ্মাবত’-কে কেন্দ্র করে প্রেক্ষাগৃহগুলোর সামনে অশান্তি আর বিক্ষোভ চলছে, তার মাঝে হবু শ্বশুর-শাশুড়িকে টানতে চাইবেন কোন মেয়ে!

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here