বেজিং: সমস্ত রকম পেট্রোল এবং ডিজেল চালিত গাড়ি উৎপাদন এবং বিক্রি নিষিদ্ধ করার পরিকল্পনা নিয়েছে চিন।  সে দেশের উপ শিল্প এবং তথ্য-প্রযুক্তি মন্ত্রী শিন গুয়োবিন জানিয়েছেন, এই নিয়ে তাঁরা প্রয়োজনীয় গবেষণা শুরু করে দিয়েছেন। তবে কবে থেকে এই নিষেধাজ্ঞা কার্যকরী হবে তা নিয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন তিনি।

এই মুহূর্তে বিশ্বের সবচেয়ে বড় গাড়ির বাজার চিন।  গত বছর চিনে ২কোটি ৮০ লক্ষ গাড়ি উৎপাদন হয়েছে, যা সারা বিশ্বের মোট গাড়ি উৎপাদনের এক তৃতীয়াংশ। চিনা সরকারি সংবাদসংস্থা শিনহুয়াকে গুয়োবিন জানিয়েছেন, ‘‘এই সিদ্ধান্তের ফলে চিনের গাড়ি উৎপাদন শিল্পে বড় পরিবর্তন আসবে।

ইতিমধ্যেই বিট্রেন ও ফান্স ঘোষণা করেছে ২০৪০ সালের মধ্যে সমস্ত নতুন ডিজেল ও পেট্রোল চালিত গাড়ি উৎপাদন বন্ধ করবে। ফলে চিনের এই সিদ্ধান্ত গাড়ি শিল্পের বাজারে বড়সড় ঝড় উঠবে বলেই মনে করা হচ্ছে। ধাক্কা লাগবে তেলের বাজারেও। কারণ আমেরিকার পর সবচেয়ে বেশি জীবাশ্ম জ্বালানি ব্যবহার করে চিন।

চিনের গাড়ি নির্মাতা সংস্থা ভলভো জুলাই মাসেই ঘোষণা করেছে ২০১৯ সাল থেকে তাদের সব নতুন মডেলে বিদ্যুৎ চালিত মোটর থাকবে। ভলভোর চিনা মালিকানাধীন সংস্থা গিলিও পরিকল্পনা করেছে  ২০২৫ সালের মধ্যে ১০ লক্ষ বিদ্যুৎচালিত গাড়ি বিক্রি করবে।

চিনও চাইছে ২০২৫ সালের মধ্যে তাদের দেশে যে পরিমাণ গাড়ি বিক্রি হবে তার এক-পঞ্চমাংশই যেন হয় বিদ্যুৎচালিত গাড়ি। শিন গুয়োবিন জানিয়েছেন, ‘‘ ২০২৫ সাল পর্যন্ত গাড়ি শিল্পে ব্যাপক রদবদল আসবে। কারণ পরিবেশ দূষণ রুখতে বাড়বে আরও উন্নত প্রযুক্তি নির্ভর গাড়ির চাহিদা।’’

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন