উষ্ণায়ণ ক্রান্তীয় অঞ্চলে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়াবে, বলছে গবেষণা

0
706

নয়াদিল্লি : একটি গবেষণায় উঠে এসেছে, পৃথিবীর উষ্ণতা বৃদ্ধির সঙ্গে তাল মিলিয়ে ক্রান্তীয় অঞ্চলে বৃষ্টিপাতের পরিমাণ বাড়বে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে নাসা-র জেট প্রপালশন ল্যাবরেটরি (জেপিএল)-এর বিজ্ঞানী হিউ সু-র নেতৃত্বে একটি গবেষণা করা হয়েছে। তাতে দেখা গেছে, সাম্প্রতিক কালে হওয়া বেশির ভাগ বিশ্ব জলবায়ু মডেলগুলিই ক্রান্তীয় এলাকায় উচ্চ মেঘের পরিমাণ হ্রাসের বিষয়টিকে তেমন গুরুত্ব দেয়নি।

গবেষণায় বলা হয়েছে, বৃষ্টিপাত কেবল মেঘের কারণেই হয়, তা নয়। এটা পৃথিবীর শক্তি অর্থাৎ উষ্ণতার পরিমাণের ওপরও ভীষণ ভাবে নির্ভর করে। পৃথিবীর বাইরে থেকে আগত তাপ, যেমন সূর্যের তাপ এবং পৃথিবীর ভেতরের তাপ মানে নানা উৎস থেকে সৃষ্টি হওয়া উষ্ণতা, এই সব কিছুর ওপর বৃষ্টিপাত আর তার পরিমাণ নির্ভর করে।

অনেক উচ্চতায় অবস্থিত ক্রান্তীয় মেঘ বায়ুমণ্ডলের মধ্যে তাপ ধরে রাখে। সেই মেঘের কিছু মেঘ ভবিষ্যতে ঠান্ডা হয়ে তা জলকণা বা বরফে পরিণত হয়। তখন তাদের তাপ পরিবেশে ছেড়ে দেয়। ফলে ক্রান্তীয় বায়ুমণ্ডলের মেঘ ক্রমশ ঠান্ডা হয়ে যায়।  বৃষ্টি হয়ে নেমে আসে। কিন্তু মেঘের নিকটবর্তী বায়ু গরম হয়ে যায়।

গত কয়েক দশকে ভূপৃষ্ঠ অতিরিক্ত গরম হওয়ার কারণে কিছু পরিমাণ উচ্চ মেঘের সৃষ্টি করেছে। এটাই ক্রন্তীয় এলাকায় বৃষ্টির পরিমাণ বাড়িয়েছে।

বিজ্ঞানীরা জানান, বৃষ্টিপাত বায়ুমণ্ডলের তাপমাত্রা বাড়ায়। কিন্তু আমরা সাধারণ ভাবে জানি বৃষ্টি পড়লে চারি দিক ঠান্ডা হয়ে যায়। তাই আমরা বৃষ্টি হোক এটাই চাই। কিন্তু এই কথাটা শুনে অন্য রকম লাগলেও এটা সত্যি। কারণ পৃথিবীপৃষ্ঠে বৃষ্টির যে প্রভাব অর্থাৎ আবহাওয়া ঠান্ডা করা তা পৃথিবীপৃষ্ঠ থেকে কয়েক মাইল ওপরে বায়ুমণ্ডলে এক বারে উলটো। সেখানে বৃষ্টির পর বায়ুমণ্ডল আরও গরম হয়ে ওঠে। কারণ জলীয় বাষ্পপূর্ণ গরম বায়ু ক্রমশ তাপ ছেড়ে তবেই ঠান্ডা হয়ে বৃষ্টির মেঘে পরিণত হয়। আর সেই ছেড়ে দেওয়া তাপ আবার বায়ুমণ্ডলের মধ্যে ধরা থাকে ফলে সেখানে তাপমাত্রা বেড়ে যায়।

এই উচ্চ মেঘের পরিমাণ কমে গেলে গরম তাপমাত্রা পৃথিবীময় ঘুরে বেড়াবে আর তাপমাত্রা আরও বাড়বে। একে বলে বায়ুমণ্ডলীয় সাধারণ আবর্তন। এই ব্যাপারটা নিরক্ষীয় অঞ্চল জুড়ে ঘটতে থাকে। যা তৈরি করবে মেঘ। তা উচ্চ মেঘের সৃষ্টি করবে। আর তার থেকে বৃষ্টি।

গবেষক হুই সু বলেছেন,  এই গবেষণা ভবিষ্যতে বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাসের উন্নতির ক্ষেত্রে একটি নতুন পথ দেখাবে।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here