walmart

কোলোরাডো: আতঙ্ক যেন পিছু ছাড়ছে না যুক্তরাষ্ট্রের। নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটানে জঙ্গি হামলার ২৪ ঘণ্টা পরেই শপিং মলে হামলা চালালো এক বন্দুকবাজ। এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত তিন জনের নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গিয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে কোলোরাডো প্রদেশের রাজধানী ডেনপভারের শহরতলি থরটনে। তবে বন্দুকবাজের ব্যাপারে বিশেষ কিছু তথ্য দিতে পারেনি থরটন পুলিশ, কাউকে গ্রেফতারও করা যায়নি। এটা জঙ্গি হামলার ঘটনা কি না সে ব্যাপারেও কিছু বলেনি পুলিশ।

ভারতীয় সময় বৃহস্পতিবার সকাল অর্থাৎ স্থানীয় সময়ে বুধবার ভর সন্ধ্যায় এই হামলার ঘটনায় দু’জন পুরুষ ঘটনাস্থলেই মারা যান। গুরুতর আহত এক মহিলাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যু হয়, এমনই জানিয়েছে থরটন পুলিশ।

টুইটারে থরটন পুলিশের তরফ থেকে জানানো হয়, “তদন্তকারীরা বর্তমানে সমস্ত ফুটেজ খতিয়ে দেখছেন। অপরাধীকে ধরার জন্য প্রত্যক্ষদর্শীদের সঙ্গেও কথা বলা হচ্ছে।” ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীদের মতে অন্তত তিরিশটা গুলির শব্দ শোনা গিয়েছে।

আততায়ীকে শীঘ্রই ধরা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

সাইপভের মৃত্যুদণ্ড চাইলেন ট্রাম্প 

নিউ ইয়র্কের ম্যানহাটানে জঙ্গি হামলায় মূল অভিযুক্ত সায়ফুল্লো সাইপভের মৃত্যুদণ্ড চাইলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। টুইটারে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, “মূল অভিযুক্ত জঙ্গি হাসপাতালে খুব আনন্দে ছিল। সেখানে আইএসের পতাকা উত্তোলন করতে চাইছিল। ওর মৃত্যুদণ্ড হওয়া উচিত।”

 

এর আগে ট্রাম্প বলেছিলেন, প্রয়োজনে সাইপভকে গুয়াতেনামো বে-তে পাঠানোর চিন্তাভাবনা করবেন তিনি। তদন্তকারীদের কথায়, জেরায় এই হামলার কথা স্বীকার করেছে সাইপভ। সে যে আইএসের চিন্তাধারায় অনুপ্রাণিত, সে কথাও বলেছে।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here