ওয়েবডেস্ক: এই বাজারেও টানা চার দিন সবুজে রয়েছে সেনসেক্স-নিফটি। সপ্তাহ দুয়েক আগে টানা সাত দিন উত্তরণের পর হতাশ করেছিল শেয়ার বাজার। স্বাভাবিক ভাবেই সিঁড়ির পর সিঁড়ি ভাঙতে গিয়ে সেই অনতিদূর অতীত যেন স্মরণে রাখেন বিনিয়োগকারীরা, তেমনটাই বলছেন বাজার বিশেষজ্ঞরা। তার উপর সামনে রয়েছে বিভিন্ন সংস্থার তৃতীয় ত্রৈমাসিকের ফলাফল প্রকাশ।

বুধবার নিফটির সর্বোচ্চ চুড়ো ছিল ১০,৮৭০ পয়েন্ট। টানা চতুর্থ দিনের এই উপরে ওঠা ইন্ট্রা ডে-র জন্য বেশ ফলদায়ী হলেও স্বল্প মেয়াদি বিনিয়োগকারীদের জন্য যথেষ্ট ইঙ্গিতবাহী। যাঁরা উপরের দিকে স্টক ধরেছিলেন, তাঁদের জন্য অপেক্ষা ছাড়া অন্য কোনো পথ না থাকলেও সপ্তাহ খানেক আগে বিশেষ কিছু স্টক যাঁরা কিনেছিলেন, তাঁদের কিন্তু অন্য রকম চিন্তাভাবনার সময় এসে যাচ্ছে। তার কারণ অবশ্যই নিফটির ঊর্ধ্বগামিতার গ্রাফ।

বাজার বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শক্তি নির্দেশর আরএসআই এখন রীতি মতো বৃষের কবজায়। যা সুষ্পষ্ট ঊর্ধ্বগমনকে নির্দেশ করে। কিন্তু এটাও মাথায় রাখতে হবে, নিফটির লম্বা দৌড়ের সাপোর্ট এখন ১০,৮০০ পয়েন্ট। যেখানে বেশ কয়েক দিন ধরেই বিচরণ করতে দেখা যাচ্ছে নিফটিকে। এর পর ১০,৯০০ পয়েন্টের বাধা টপকাতে পারলে আগামী দিনের নতুন দৌড় শুরু হতে পারে। আবার উল্টোটাও হওয়া অস্বাভাবিক কিছু নয়। ফলে স্বল্পমেয়াদী বিনিয়োগকারীরা এমন গুরুত্বপূর্ণ অবস্থানে নীচু দরে কেনা স্টক বিক্রি করে লাভের টাকা ঘরে তুলে ফের নীচের দিকে নামার প্রতীক্ষা করতেই পারেন বলে অভিমত তাঁদের।

[ আরও পড়ুন: গ্রুহ ফিনান্সকে অধিগ্রহণের সিদ্ধান্তের পর বিনিয়োগকারীদের নজরে বন্ধন ব্যাঙ্ক ]

আরও স্পষ্ট করে বললে নিফটির বর্তমান সাপোর্ট ১০,৮০০ এবং ১০,৭৮০ পয়েন্ট। অন্য দিকে রেজিস্ট্যান্স ১০,৯৪০ এবং ১১,০০০ পয়েন্ট। এই সম্ভাব্য পরিধির মধ্যেই সাজিয়ে নিতে হবে নিজের চলমান কেনাবেচার পরিকল্পনা।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here