ওয়েবডেস্ক: ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাঙ্ক (আরবিআই) কেন্দ্রীয় সরকারকে ২৮,০০০ কোটি টাকার অন্তর্বর্তী লভ্যাংশ দিচ্ছে। এই পদক্ষেপ সরকারের রাজস্ব ঘাটতিতে সহায়ক ভূমিকা নিতে চলেছে বলেই ধারণা করা হচ্ছে। সোমবার আরবিআইয়ের কেন্দ্রীয় পরিচালনমণ্ডলীর বৈঠকের পরই অন্তর্বর্তী লভ্যাংশ বিনিময়ের কথা জানান কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি।

তিনি জানান, এটি হল দ্বিতীয় ধারাবাহিক বছর, যখন আরবিআইয়ের তরফে অন্তর্বর্তীকালীন উদ্বৃত্ত স্থানান্তর করা হচ্ছে। ২০১৮ সালের আগস্ট মাসে আরবিআই সরকারকে ৫০,০০০ কোটি টাকার উদ্বৃত্ত স্থানান্তর করেছিল। এর মধ্যে ২৭ মার্চ, ২০১৮-তে সরকারকে অন্তর্বর্তী লভ্যাংশ হিসাবে ১০,০০০ কোটি টাকা দিয়েছিল আরবিআই।

অন্য দিকে আরবিআইয়ের তরফে দেওয়া বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, “একটি সীমিত নিরীক্ষা পর্যালোচনা এবং বিদ্যমান অর্থনৈতিক মূলধন কাঠামো প্রয়োগ করার পর বোর্ড ২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বরে শেষ হওয়া অর্ধ বছরের মেয়াদের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারকে এই অন্তর্বর্তী উদ্বৃত্ত স্থানান্তর করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।”

২০১৭-১৮ আর্থিক বছরেও আরবিআই ৩০, ৬৬৩ কোটি টাকার অন্তর্বর্তী লভ্যাংশ দিয়েছিল। আরবিআই অ্যাক্ট, ১৯৩৪-এর ৪৭ নম্বর অনুচ্ছেদ অনুসারি কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্ক সরকারের হাতে উদ্বৃত্ত স্থানান্তর করে থাকে। ওই অনুচ্ছেদে বলা হয়েছে, অনাদায়ী এবং সন্দেহজনক ঋণের পরিমাণ নির্ণয় এবং আনুষঙ্গিক সমস্ত রকমের ব্যয়ের পরিমাণ নির্ধারণের পর মুনাফার অংশ কেন্দ্রীয় সরকারের হাতে হস্তান্তর করতে হবে।

[ আরও পড়ুন: পোস্ট অফিসেও জিরো ব্যালান্সের সেভিংস অ্যাকাউন্ট! জেনে নিন বিশদে ]

আরবিআইয়ের বোর্ড মিটিংয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে জেটলি বিগত সাড়ে চার বছরে কেন্দ্রীয় সরকারের বিভিন্ন আর্থিক নীতিগুলির মূল্যায়নও করেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here