বাঙালীর শারদীয় উত্‍সবের সমাপনীর পর লক্ষ্মীপুজোর আগে পর্যন্ত চলবে বিজয়া-দশমী। অশ্রুসজল নয়নে ভক্তবৃন্দকে বিদায় যে জানাতেই হবে দুর্গতিনাশিনী দেবী দুর্গাকে। উত্‍সব শেষে চারিদিকে বিষাদের সুর।

কিন্তু বাঙালি জীবনে উত্‍সব আনন্দের সকল অনুষঙ্গে মিষ্টি ছাড়া কি চলে? সেটা যদি হয় নিজের হাতে তৈরি মিষ্টি তাহলে তো কথাই নেই। বিজয়ার স্পেশাল মিষ্টির রেসিপি রইল আপনাদের জন্য।

উপকরণ-

২ চামচ চিনি, ১ চামচ ঘি বা তেল, খোয়া ক্ষীর, এলাচ, দারচিনি, লবঙ্গ প্রয়োজনমতো, ময়দা ১ কাপ, নুন, তেল

প্রণালী

চিনির রস বানানোর জন্য ২ কাপ জলে ২ থেকে ৩ কাপ চিনি ও ১ টুকরো দারুচিনি ও ৪ টি ছোট এলাচ দিয়ে চিনির রস তৈরি করে নিন। লক্ষ রাখবেন, চিনির রস যেন গাড় হয়।

ময়দায় সামান্য নুন ও তেল দিয়ে মেখে একটি ডো তৈরি করে নিন। ঘিতে দারুচিনি ভেজে তুলে নিন। এরপরে ক্ষীর, চিনি দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নামিয়ে নিন। ছোট ছোট লুচি বেলে তার মাঝখানে পুর দিয়ে চারকোনা পরোটার মতো ভাঁজ করে নিন। ভাঁজের ঠিক মাঝখানে একটি করে লবঙ্গ দিয়ে আটকে দিন। লবঙ্গ এমন ভাবে দেবেন যেন ওপরের ফুলটা বাইরে থাকে। ডুবো ঘি অথবা তেলে ভেজে নিন। উভয় দিকে সুন্দর বাদামি রং আসা পর্যন্ত ধীরে ভাজতে থাকুন। একেবারে ঢিমে আঁচে গ্যাস রাখবেন।

সব ভাজা হয়ে গেলে চিনির রসে ৫-১০ মিনিট রেখে দিন। চিনির রস থেকে উঠিয়ে বিজয়া দশমীতে পরিবেশন করুন সুস্বাদু লবঙ্গ লতিকা।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন