খবর অনলাইন ডেস্ক : আপনার বয়স যদি ৩০ বছর পেরিয়ে গিয়ে থাকে তবে অবশ্যই খেয়াল রাখুন আপনার ত্বকের। কারণ ২৫ বছরের পর থেকে কোষের কর্মক্ষমতা কমে। ৩৬ পর বয়সের ছাপ বা বলিরেখা বাড়তে শুরু করে। কারণ হল কোষের ডিজেনারেশন বাড়ে। তবে নির্দিষ্ট কিছু নিয়ম মেনে চললে বহু বছর সুস্থ, সতেজ ও সুন্দর থাকা যায়। 

নিয়মগুলি হল –

১. ৩০ বছর পেরিয়ে গেলেই প্রাকৃতিক নিয়ম মেনেই হাড়ের ঘনত্ব কমে। হাড় দুর্বল ও ভঙ্গুর হতে শুরু করে। ব্যথা বাড়ে। তাই হাড় মজবুত করতে ভিটামিন সি, ডি ও  ক্যালসিয়ামসমৃদ্ধ খাবার খান। হাড় গঠনের মূল উপাদান ক্যালসিয়াম, কোলাজেন ও আমিষ। তাই প্রচুর পরিমাণে ক্যালসিয়ামসমৃদ্ধ খাবার অবশ্যই খান।

২. কম বয়সে শরীরের ওপর নানান অত্যাচার চালালে তার প্রতিশোধ শরীর নেয় বয়সকালে। তাই সময় মতো খাবার খেতে হবে। সময়ে খাবার না খাওয়া শরীরের ওপর এক ধরনের অত্যাচার। তাই ৩০ পেরলে অবশ্যই সকাল-দুপুর-রাতের খাবার সময় মতো খান। 

৩. কলা খুব উপকারী খাবার, এর খাদ্য ও পুষ্টিগুণ প্রচুর। ৩০ বছরের পর নিয়ম করে কলা খান। শরীরে পটাশিয়ামের ঘাটতি পূরণ করে কলা।

৪. সবুজ শাকসবজি, বিশেষ করে পালংশাক খান। কারণ পালংশাকণ পুষ্টিতে ভরপুর। এতে আছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন ও নানান খনিজ। ভিটামিন এ, বি২, সি, ই, কে, ,আয়রন, ক্যালসিয়াম, জিংক, ম্যাগনেসিয়াম, কপার ও ফসফরাস। 

৫. অ্যালকোহল না খেলেই ভালো হয়। এ সময় শরীরে নানান, সমস্যা প্রদাহ ইত্যাদি দেখা দেয়। অ্যালকোহল তা আরও বাড়িয়ে দেয়। শরীর দ্রুত ভেঙে যায়।

৬. আপনি যদি কফি প্রেমী হন তা হলে নিজের সুস্থতার জন্য তা ত্যাগ করুন। কারণ তা না হলে কোষ ডিজেনারেশন প্রসেস আরও বেড়ে যাবে। ফলে বয়সের ছাপ বাড়বে দ্রুতগতিতে। তাই সুস্থ থাকতে চাইলে কফি খাওয়া অনন্ত কমিয়ে ফেলুন।

পড়ুন – লালশাক কেন খাবেন? ১১টি উপকারিতা জেনে নিন

আরও পড়ুন – ১৪টি রোগে মহৌষধি উচ্ছে

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন