ওয়েবডেস্ক : খাবারের তালিকায় এমন অনেক জিনিসই আছে যেগুলোর গায়ে হয় ব্যবহারের শেষ তারিখ অর্থাৎ ‘এক্সপায়ারি ডেট’ লেখা থাকে, না হয় আমরা নিজেরাই হাতে ধরে বা গন্ধ শুঁকে বুঝতে পারি জিনিসটা আর ব্যবহারের উপযুক্ত নেই। তেমন আবার এমন বেশ কিছু জিনিস আছে যেগুলোর কোনো ‘এক্সপায়ারি ডেট’ হয়ই না। যেমন ধরুন রোজের ব্যবহারের নুন, চিনি, চাল ইত্যাদি। আসুন জেনে নেওয়া যাক ঠিক কোন কোন জিনিস দীর্ঘকাল ভালো থাকে। আর কী ভাবে সেগুলোকে সংরক্ষণ করা যায়।

১/ নুন —— প্রথমেই আসি নুনের কথায়। সে সৈন্ধব লবণ বা সামুদ্রিক নুনই হোক বা সাধারণ নুন। দু’টিরই আয়ু বহুদিনের। কোনো দিনই নুন খারাপ হয়ে যায় না। তার জন্য কেবল রাখার ব্যবস্থাটা ভালো হওয়া দরকার। এয়ার টাইট জারে ভালো করে বন্ধ করে রাখতে হবে। জলীয় হাওয়া বা জল ঢুকে যাতে তা গলিয়ে দিতে না পারে।

২/ চিনি —— এ বার চিনি। চিনিও এমন একটা খাবার জিনিস কোনো দিন যার খাদ্যগুণ নষ্ট হয় না। তার অন্যতম মূল কারণ হল চিনিতো কখনওই ব্যাকটেরিয়া জন্মাতে পারে না। তবে চিনি কিন্তু জমাট বেঁধে যায়। জমাট বাঁধা মানে যে এর খাদ্য গুণ নষ্ট হয়ে গেল তা নয়। জমাট অবস্থাতেও বহু দিন পরেও এর খাদ্যগুণ, স্বাদ সব একই থাকে। খালি একে ভালো ভাবে ‘এয়ার টাইট জারে’ রাখলেই আর জমাট বাঁধার সমস্যায় পড়তে হয় না।

৩/ চাল —— হ্যাঁ। চালও এমনই একটা খাদ্য দ্রব্য যাতে ব্যাকটেরিয়ার আক্রমণ হয় না। খাদ্যগুণ বা স্বাদের পরিবর্তন হয় না। বাসমতী, দেরাদুন ইত্যাদি জাতের চাল বহু দিন স্বাদগন্ধে একই থাকে। বরং কালো বা খয়েরি চালের থেকে সাদা চালের স্থায়িত্ব অনেক বেশি। খালি পোকার হাত থেকে বাঁচাতে ভালোভাবে বন্ধ করে রাখতে হবে চালকে।

৪/ মধু —— এক দম তাই। মধুর আয়ুও বহুদিন। হতে পারে তা জমাট বেঁধে যায়। কিন্তু গুনাগুণ যথাযথই থাকে। জমাট থেকে আবার পূর্বের অবস্থায় ফিরিয়ে আনার জন্য জারের ঢাকনা খুলে গরম জলের ওপর বসিয়ে রাখলেই ব্যাস। মধু যেমনকার তেমন।

৫/ কফি —— কফি খেতে অনেকেই ভালোবাসেন। তাই তা মজুত করে রাখার একটা অভ্যাস থেকেই যায়। সে ক্ষেত্রে বলে রাখা ভালো এই তালিকায় কফিও অন্যতম। কফির গুনাগুণ স্বাদগন্ধ কখনই নষ্ট হয় না। রোগের মধ্যে একটাই —জমাট বেঁধে যাওয়া। ঠান্ডা জায়গায় ভালো করে বন্ধ করে রাখলেই হয়।

৬/ শুকনো বিনস —— খাদ্যশস্যের মধ্যে বিনসও বহুদিন ভালো থাকে। যদিও থাকতে থাকতে বিনস একটু শক্ত হয়ে যায়। রান্নার পরও অতটা নরম হয় না। তবুও এর খাদ্যগুণ নষ্ট হয় না।

৭/ মদ —— মদও অনেক দিন ভালো থাকে। এক বার সিল খোলার পরও তা রেখে দেওয়া যায়। গন্ধ সামান্য কম হলেও তার স্বাদের পরিবর্তন হয় না। তবে তার জন্য ঠান্ডা আর অন্ধকার জায়গায় রাখতে হবে। ব্যাস তা হলেই হবে।

কি তা হলে মনে থাকবে তো কোন কোন খাবার জিনিস অনেক দিন ভালো থাকে? আর সেগুলো ভালো রাখার উপায় কী?

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here