মৌসুমী পাল

সারা ভারতবর্ষে অঞ্চলভিত্তিতে বিরিয়ানির নানা রেসিপি পাওয়া যায়। তাদের স্বাদও আলাদা আলাদা। তবে বর্ষায় যদি মাংসের বদলে বিরিয়ানিতে পড়ে ইলিশ, তা হলে তো কথাই নেই। জেনে নিন কী ভাবে বানাবেন ইলিশ বিরিয়ানি।

কী কী লাগবে

১. বাসমতি চাল – ২০০ গ্রাম

২. ইলিশ মাছ – গাদা ২ পিস

৩. সরষের তেল – ৫০ গ্রাম

৪. পেঁয়াজ – ৩টে কুচনো

৫. আলু – ২ পিস

৬. ঘি – ২৫ গ্রাম

৭. গোটা গরমমশলা – ২০ গ্রাম

৮. জাফরান – পরিমাণমতো

৯. ক্যাওড়া ও গোলাপজল – পরিমাণমতো

১০. দুধ – আধ কাপ

১১. নুন– স্বাদমতো

১২. তেজপাতা – ২-৩টে

কী ভাবে করবেন

রান্নার অন্তত ৩০ মিনিট আগে চাল ধুয়ে জলে ভিজিয়ে রাখবেন। দুধ গরম করে জাফরান দিয়ে ঢেকে রাখুন। আলু নুন দিয়ে সেদ্ধ করে নিন। মাছ ধুয়ে নুন হলুদ মাখিয়ে রাখুন। কড়াইয়ে সরষের তেল গরম করে মাছ ভেজে নিন। মাছ ভাজার তেলটা অন্য‌ পাত্রে সরিয়ে রাখুন। কড়াইতে তেল দিয়ে প্রথমে আলু ও পরে পেঁয়াজ লাল করে ভেজে নিন। অন্য‌ একটা পাত্রে ঘি গরম করে তাতে ২-৩টে তেজপাতা ও গোটা গরমমশলা দিয়ে নেড়েচেড়ে বড়ো কাপের ৪-৫ কাপ জল দিন। পরিমাণমতো নুন দিন। জল ফুটতে শুরু করলে জল ঝরিয়ে চাল দিয়ে দিন। চাল সেদ্ধ হয়ে গেলে ঝুড়িতে ঢেলে জল ঝরিয়ে নিন। কড়াইয়ে ঘি দিন। এ বার খানিকটা ভাত ঢেলে দিন, এ বার ভাতের উপরে ভাজা পেঁয়াজ ছড়িয়ে দিন। ভাজা মাছ ও আলু দিয়ে দিন। জাফরান মেশানো দুধটা চারিদিকে ঢেলে দিন। পরিমাণমতো ক্যাওড়া ও গোলাপজল ছড়িয়ে দিন। এ বার মাছ ভাজার তেলটা চারি দিকে ছড়িয়ে দিন। কড়াইয়ে ঢাকানা চাপা দিয়ে দু’ মিনিট কম আঁচে বসান। এর পর নামিয়ে নিন এবং খাবার আগে ঢাকনা সরিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন ইলিশ বিরিয়ানি।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here