দুর্গাপুজোয় ঠাকুরবাড়ির খাবারের সম্ভার নিয়ে হাজির সপ্তপদী রেস্টুরেন্ট

0

খাই খাই করো কেন, এসো বসো আহারে

খাওয়াব আজব খাওয়া, ভোজ কয় যাহারে।

যত কিছু খাওয়া লেখে বাঙালির ভাষাতে,

জড়ো করে আনি সব,— থাক সেই আশাতে।

সুকুমার রায়ের এই কবিতার সঙ্গে বাঙালির জীবন একেবারে মিলেমিশে গিয়েছে। সামনেই আসতে চলেছে বাঙালির শ্রেষ্ঠ উৎসব দুর্গাপুজো। দুর্গাপুজো মানেই ঠাকুর দেখার পাশাপাশি নানান রকম খাবার চেখে দেখা।

শারদ সুন্দরী থালি

পুজোর আবহে সুস্বাদু খাবারের সম্ভার নিয়ে হাজির হয়েছে “সপ্তপদী রেস্টুরেন্ট”। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ভাইজি প্রজ্ঞাসুন্দরী দেবী আজ থেকে প্রায় এক দশক আগে জোড়াসাঁকোর ঠাকুরবাড়ির অন্দরে দেশীয় এবং বিদেশি রান্নার এক মিশেল ঘটিয়েছিলেন।

সেই ঠাকুরবাড়ির রান্নাগুলির সঙ্গে পাশ্চাত্যের সংমিশ্রণে বিশেষ পদগুলি এই বছর “সপ্তপদী রেস্টুরেন্ট”-এ খাদ্যরসিক মানুষের কাছে হাজির করছেন শেফ রঞ্জন বিশ্বাস। সুন্দর থালায় পর পর বাটি সাজিয়ে তৈরি করেছেন “শারদ সুন্দরী থালি”।

কী আছে এই থালিতে?

চিড়ে চ্যাপ্টা প্রন, ভেটকি মিন্ট সালমি, চিকেন আলমন্ড অনিয়ন, ভেটকি মৌলী, জগুরথ মটন কালিয়া, আমসত্ত্ব পোলাও-এই রকম নানান অজানা খাবারের পসার দিয়ে সাজানো হচ্ছে সপ্তপদী দুর্গাপুজো স্পেশাল থালি।

শুধু এখানেই শেষ নয়। খেজুরের পায়েস, রসগোল্লা আর পান্তুয়া এক সঙ্গে দিয়ে তৈরি আবোল তাবোল মিষ্টি। সঙ্গে পাঁপড় আর আমের চাটনি। এই থালিটির দাম ৮৯৯ টাকা। আর এর সঙ্গে ইলিশ মাছ নিলে দাম পড়বে ১৩৪৯টাকা। এই অফারটি চলবে 8 অক্টোবর থেকে ২৭ অক্টোবর পর্যন্ত। সপ্তপদীর প্রতিটি আউটলেটে অফারটি পাওয়া যাবে।

তা হলে আর দেরি কেন? এ বছর পুজোর অষ্টমীর ভুরিভোজের ঠিকানা হোক সপ্তপদী রেস্টুরেন্ট।

চলুন ঘুরে আসা যাক সপ্তপদী রেস্টুরেন্টের রান্নাঘরে, ভিডিয়োয় দেখুন এখানে ক্লিক করে: দুর্গাপুজোর স্পেশাল থালি

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন