lord ganesh
দক্ষিণ ভারতে গণেশ। ছবি সৌজন্যে তামিল.বোল্ডস্কাই.কম।

ওয়েবডেস্ক যে কোনো কাজের সাফল্যের জন্য গণেশপুজো করা হয়। তা সে ব্যবসাই হোক বা চাকরি, লেখাপড়া হোক বা অন্য কিছু। আবার যে কোনো পুজোর আগেই কিন্তু করা হয় গণেশস্তুতি ও আরাধনা। তার কারণ হল সেই পুজোয় সিদ্ধিলাভ আর পুজ্য দেবতাকে সন্তুষ্ট করার বাসনা। তাই বন্দনা করা হয় গণপতির বিভিন্ন নামের স্তব। সুতরাং দেবমহলে গণেশের হাঁকডাক ব্যাপক।

প্রচলিত আছে ‘ওম গণ গণপতয়ে নমোঃ’ কথাটি ২১ বার অথবা ১০৮ বার প্রতি দিন স্তব করলে কার্য সিদ্ধি যেমন হয় দিনও ভালো যায়। তেমনই উচ্চারণ করা ভালো বাপ্পার বিভিন্ন নামগুলিও।

বিভিন্ন এলাকায় গণেশজি বিভিন্ন নামে সমাদৃত।

তামিলনাড়ু  – পিল্লাই, পিল্লাইয়ার

মহারাষ্ট্র – বিনায়ক, বিঘ্নেশ, বিঘ্নেশ্বর

নেপাল – হেরম্ব

শ্রীলঙ্কা – গণ দেবিয়ো

মায়ানমার – মহা পেইন্নে

তাইল্যান্ড – ফ্রা ফিকানেত

দ্রাবিড়ভাষী অন্যান্য অঞ্চলে – পাল্লু, পেল্লা, পেল্ল

তা ছাড়া সংস্কৃত শাস্ত্র অনুযায়ী একদন্ত, লম্বোদর, বিঘ্নরাজ, বজ্র, বিকট, ভীমা, দ্বৈমাতুর, অবিঘ্ন, বালচন্দ্র ইত্যাদি নাম তো আছেই।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন