শরীরকে সুস্থ রাখতে কসরত প্রায় বেশিরভাগ মানুষই করে থাকেন। কিন্তু মনের সুস্থতার দিকে কী খেয়াল রাখেন?

আনন্দ আর বেদনা মিলিয়েই জীবন। তাই মনের স্বাস্থ্য ভালো না থাকলে শরীরও অসুস্থ হয়ে পড়ে। সুস্থ থাকার মানে কেবল শারীরিকভাবেই নয়, মানসিকভাবেও ভালো থাকা।

তবে জীবনযাপনে সামান্য কিছু পরিবর্তন এনে সব মানসিক সমস্যাকে দূরে ঠেলে মনকে ফুরফুরে করে তুলতে পারেন।

এই রকম সহজ কয়েকটি নিয়ম মেনে চলতে কী করবেন জেনে নিন।

১। নিয়মিত শরীরচর্চা করুন

স্বাস্থ্যকর খাবারের মতোই আরেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলো নিয়ম মেনে শরীরচর্চা করা। প্রতিদিন সম্ভব না হলে সপ্তাহে অন্তত ৩‐৪ দিন শরীরচর্চায় মন দিন। এতে আপনি  মানসিকভাবে অনেকটাই সতেজ থাকবেন। জিমে গিয়ে শরীরচর্চা করা সম্ভব না হলে বাড়িতেও করতে পারেন। সেইসঙ্গে সপ্তাহে ৪-৫ দিন চেষ্টা করুন সকালে হাঁটার অভ্যাস বজায় রাখতে।

২। মন ভালো রাখুন

মনের প্রতি যত্নশীল হোন। মন কী চায় তা ভেবে দেখুন। মনের বিরুদ্ধে কাজ করতে যাবেন না। তবে অনেক সময় মন অযৌক্তিক কিংবা অবাস্তব কিছু চাইতে পারে। তখন মনকে বোঝান। আবেগ এবং বিবেকের সমন্বয়ে সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে শিখুন। এতে আপনার মানসিক স্বাস্থ্য ভালো থাকবে।

৩। ফল ও শাকসবজি

 ফল ও সবজি মনকে চাঙ্গা রাখতে সাহায্য করে। পুষ্টিগুণে ভরপুর সবজিও মানসিক অবস্থা ভালো করতে সাহায্য করে। ফল ও সবজিতে রয়েছে ফাইটোকেমিকল, ভিটামিন সি এবং প্রোটিন। তাই যতটা সম্ভব সবুজ শাকসবজি ও মরশুমি ফল খাওয়ার চেষ্টা করুন।

৪। নারকেল

বিশেষজ্ঞদের মতে, নারকেলের মধ্যে ট্রাইগ্লিসারাইড থাকে, যা মস্তিষ্ককে শক্তিশালী এবং মানসিক স্বাস্থ্যকে ভালো রাখে। প্রতিদিনের ডায়েটে এক টুকরো নারকেল রাখতে পারেন।

৫। পর্যাপ্ত ঘুম

গবেষকদের মতানুযায়ী, ঠিকমতো ঘুম না হলে মন-মেজাজ কিছুই যেন  ঠিক থাকে না। পর্যাপ্ত ঘুম না হলে প্রায় অনেকসময় মাথা যন্ত্র্ণা হতে থাকে। তাই মনের স্বাস্থ্য ভালো

 রাখতে প্রতিদিন নিয়ম করে ৭‐৮ ঘন্টা ঘুম খুবই জরুরী।

৬। প্রাণখুলে কথা বলুন

অন্যদের সঙ্গে ভালো সম্পর্ক বজায় রাখার চেষ্টা করুন। যখনই সুযোগ পাবেন মানুষের সঙ্গে কথা বলুন।

গবেষণায় দেখা গেছে, মাত্র ১০ মিনিট মন খুলে কথা বললে এতে মানসিক স্বাস্থ্য খুব ভালো থাকে। তাই মানুষের সঙ্গে যোগাযোগ বাড়ান ও মিশুকে হওয়ার চেষ্টা করুন।

৭। মিউজিক থেরাপি

গবেষকদের মতে, মনকে সবসময় ফুরফুরে রাখতে বেশি করে গান শুনুন। মানসিক স্বাস্থ্য ভালো রাখতে গানের মতো বিকল্প আর কোনও কিছুতে নেই। তাই যতটা সম্ভব চেষ্টা করুন মিউজিক থেরাপির মাধ্যমে নিজের মনকে ভালো রাখার। এতে মানসিকভাবে আপনি চাপমুক্ত থাকতে পারবেন।

শরীরস্বাস্থ্য সংক্রান্ত আরও পরামর্শ পেতে এখানে ক্লিক করুন।

খবরের সব আপডেট পড়ুন খবর অনলাইনে। লাইক করুন আমাদের ফেসবুক পেজ। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের ইউটিউব চ্যানেল

বিজ্ঞাপন