হৃদরোগের আশঙ্কা কমিয়ে দিতে পারে দাঁত ব্রাশ করার অভ্যাস, বলছে গবেষণা

0
teeth
প্রতীকী

ওয়েবডেস্ক: দিনে এক বার নয়, তিনবার বা তারও বেশিবার দাঁত ব্রাশ করলে শুধু দাঁতের স্বাস্থ্য ভালো থাকে তাই নয়, অনেকাংশে কমে যায় হৃদরোগের আশঙ্কা। এমনটাই দাবি করছেন এক দল গবেষক। তাঁদের এই গবেষণাপত্রটি প্রকাশিত হয়েছে ইউরোপিয়ান জার্নাল অব প্রিভেন্টিভ কার্ডিওলজিতে।

গবেষকরা বলেছেন, এর আগে এই সম্পর্কে একাধিক গবেষণা হয়েছে। তাতে জানা গিয়েছে, অপরিষ্কার দাঁত হৃদরোগের আশঙ্কা বৃদ্ধি করে। কারণ, অপরিষ্কার দাঁতে জন্মায় ক্ষতিকারক ব্যাকটেরিয়া। যেগুলি রক্তকে দূষিত করে। প্রদাহ সৃষ্টি করে। এই সমস্যাই অ্যাট্রিয়াল ফাইব্রিলেশন বা অনিয়মিত হৃদস্পন্দনের জন্য দায়ী। এর থেকে হার্টফেল করার মতো ঝুঁকিও তৈরি হয়।   

নতুন এই গবেষণাটি এই দুই, অর্থাৎ মুখগহ্বরের পরিচ্ছন্নতা ও হৃদরোগের মধ্যে সংযোগ কোথায় তাই নিয়েই।

গবেষণাটি ১ লক্ষ ৬১ হাজার ২৮৬ জনকে নিয়ে করা হয়েছে। এঁরা সকলেই কোরিয়ান ন্যাশনাল হেলথ ইনস্যুরেন্সের আওতাধীন। এঁদের বয়সসীমা ৪০ থেকে ৭৯ বছর। প্রাথমিক পর্যায়ে এঁদের কারোরই হৃদ সংক্রান্ত কোনো সমস্যা, যেমন হার্টফেল এবং অ্যাট্রিয়াল ফাইব্রিলেশনের কোনো সমস্যা ছিল না। গবেষণার মেয়াদ অর্থাৎ গবেষণাটি চলেছিল সাড়ে ১০ বছর ধরে। গবেষণার শুরুতে ২০০৩ থেকে ২০০৪ সালের মধ্যে এঁদের সকলেরই রুটিন টেস্ট করা হয়েছিল। তাতে তাঁদের উচ্চতা, ওজন, জীবনধারনের পদ্ধতি, মুখগহ্বরের স্বাস্থ্য, মুখগহ্বর পরিষ্কার রাখার অভ্যাস ও অন্যান্য রিপোর্ট সংগ্রহ করা হয়েছিল।  

কিন্তু পরের দিকে দেখা গিয়েছে ৩% অংশগ্রহণকারী অর্থাৎ ৪ হাজার ৯১১ জনের মধ্যে অ্যাট্রিয়াল ফাইব্রিলেশনের সমস্যা তৈরি হয়েছে। ৪.৯% অর্থাৎ ৭ হাজার ৯৭১ জনের মধ্যে হার্টফেলের পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

গবেষকরা বলছেন, তিন বা তার বেশি বার দাঁত মাজার অভ্যাস অ্যাট্রিয়াল ফাইব্রিলেশনের আশঙ্কা ১০% ও হার্টফেলের আশঙ্কা ১২% কমিয়ে দেয়।  

দক্ষিণ কোরিয়ার ইওহা উইম্যান ইউনিভার্সিটির প্রবীণ গবেষক তাই-জিন সং বলেন, গবেষণাটি শুধুমাত্র একটি দেশের মানুষকে নিয়ে করা হয়েছে। একটি পর্যবেক্ষণমূলক গবেষণায় এই ভাবে দু’য়ের মধ্যে কার্যকরী সম্পর্ক প্রমাণিত হয় না। তাই অনেক বেশি পরিমাণ মানুষ নিয়ে অনেক লম্বা সময় ধরে এই পর্যবেক্ষণটি করা হয়েছে। যাতে করে ফলাফলটি জোরালো হয়।

ফলাফলটি স্বাধীন ভাবে সামাজিক-অর্থনৈতিক পরিস্থিতি, বয়স, লিঙ্গ, নিয়মিত ব্যায়ামের অভ্যাস, মদ্যপানের অভ্যাস, বডি মাস ইনডেক্স, সঙ্গে হাইপারটেনশনের মতো সমস্যা ইত্যাদির ওপর ভিত্তি করে গড়ে উঠতে পেরেছে।

এই গবেষণাটি থেকে একটি সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে যে, বেশিবার দাঁত ব্রাশ করলে দাঁত ও মাড়ির মধ্যে জমে থাকা ব্যাকটেরিয়া দূর হয়, এর ফলে প্রদাহ তৈরি হওয়া ও রক্ত প্রবাহে ব্যাকটেরিয়া ঘটিত সমস্যা রোধ হয়।  

দাঁতে হলদে ছোপ পড়ছে? দূর করতে ১০টি ঘরোয়া উপায়  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.