Drumstick tree
সজনে পাতা
Biswajit Pathak
বিশ্বজিৎ পাঠক

বর্তমান সময়ের ব্যস্ততাময় জীবনযাত্রার কারণে অপুষ্টির কারণে শিশুদের অসম বিকাশ, কৈশোরে দুর্বলতা বা প্রাপ্তবয়সে যৌন দুর্বলতা-সহ নানা রোগের শিকার হতে দেখা যায়। আবার এমন সুযোগকে হাতছাড়া করতে চায় না বিভিন্ন ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান। হাতে গরম ‘পুষ্টি’ বিক্রির নামে তারা সহজেই থাবা বসায় সাধারণের কষ্টার্জিত অর্থে। তবে তা কতটা কাজে লাগে, সেটাও বহুচর্চিত বিষয়।

কিন্তু প্রায় বিনা খরচে এমন হাজারো রোগের প্রতিকার পাওয়া সম্ভব সজনে পাতায়। এই পাতায় রয়েছে অত্যাশ্চর্য গুণ। এবং সেটা এর উপাদানগুলি দেখলেই বোঝা যায়। এই পাতায় রয়েছে, ভিটামিন- এ, বি৬, বি৩, বি২, বি১ এবং সি। পর্যাপ্ত পরিমাণে রয়েছে আয়রন, ক্যালসিয়াম, পটাসিয়াম, জিঙ্ক, ম্যাগনেসিয়াম, ফসফরাস, উৎকৃষ্ট মানের অ্যান্টি অক্সিডেন্ট, প্রোটিন, গুড ফ্যাট। অর্থাৎ আমাদের শরীরের চাহিদা মেটানোর প্রায় সব ধরনের উপাদানই বর্তমান। অনেকের কাছেই অজানা, একে তাই ‘সুপার ফুড’ও বলা হয়। এ বার আপনি-ই মিলিয়ে নিতে পারেন ওষুধের দোকানে সুন্দর আধারে রাখা চড়া দরের ‘পুষ্টি’গুঁড়োর থেকে এটা কীসে কম?

Drumstick tree

পুষ্টিজনিত সমস্যা থেকে তৈরি হওয়া একাধিক রোগে সে কারণেই সজনে পাতা অব্যর্থ ভাবে কাজ করতে পারে। শুধু কি তাই ত্বক, লিভার, ফোলাব্যথা, কৃমি, কোষ্টকাঠিণ্য, ব্যাকটেরিয়াজনিত রোগ, অস্থির ক্ষয়জনিত সমস্যা, উচ্চ রক্তচাপ কমাতে, মধুমেহ দমিয়ে রাখতে, রাতকানা-সহ চোখের নানাবিধ সমস্যা কমাতে সজনে পাতা অনবদ্য। সর্বোপরি এর মধ্যে থাকে নিজিমিশন নামক বিশেষ এক ধরনের পদার্থ, যা ক্যান্সার কোষের বৃদ্ধি দমন করে এই মারণরোগের হাত থেকে স্বস্তি দিতে পারে। তবে অপুষ্টিজনিত যে কোনো সমস্যায় এর বিকল্প পাওয়া মুশকিল।

Drumstick treeকী ভাবে নেবেন-

  • ১০-২০ গ্রাম পাতার জুস করে খাওয়া যেতে পারে।
  • সামান্য পরিমাণ পাতা লঙ্কা দিয়ে বেটে লেবুর রস সহযোগে ভাত বা রুটি সহযোগে খেলে সুস্বাদু লাগবে।
  • সচরারাচর যে ভাবে শাকের মতো রান্না করে খাওয়া হয়, সেটা তো আছেই।
  • এ ছাড়া ঝোল বা ডালের মধ্যে দিয়ে খাওয়া যাবে, তবে পরিমাণটা অল্প হওয়াই বাঞ্ছনীয়।

Drumstick treeযা মেনে চলতে হবে-

  • কারও কারও ক্ষেত্রে অ্যালার্জিটিক হলে খাওয়া উচিত নয়।
  • কোনো রকমের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া অনুভূত হলে বন্ধ করে দিন।
  • যতটা বেশি সম্ভব জল পান করতে হবে।
  • থাইরয়েড, সুগার, উচরক্ত চাপের ওষুধ নিয়মিত নিলে এর থেকে দূরে থাকাই ভালো। কারণ এর জৈব রাসায়নিক উপাদান ওই ওষুধের কার্যকারিতায় প্রভাব ফেলতে পারে।
  • কোনো কড়া ডোজের ওষুধ নিলে বন্ধ রাখুন সজনে পাতা খাওয়া।
  • গর্ভবতী হওয়ার আগে-পরে খাওয়া আয়ুর্বেদসম্মত নয়।
(লেখক: ভেষজ উদ্ভিদ বিশেষজ্ঞ)

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন