Connect with us

শরীরস্বাস্থ্য

শ্বাসকষ্ট কেন হয়? জেনে নিন ৯টি কারণ

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক: কোভিড পরিস্থিতির জন্য দীর্ঘ দিন ঘরবন্দি থাকা, বাইরে বেরোলে বিশেষ স্বাস্থ্যবিধি অবিরাম মেনে চলা, বাড়ি ফিরেস্যানিটাইজ করার দীর্ঘ পদ্ধতি মেনে চলা, ইত্যাদিতে অনেকেই ক্লান্ত। এই ক্লান্তি শারীরিকের থেকেও বেশি মানসিক। বিশেষজ্ঞরা একে বলছেন, করোনা-ক্লান্তি।  ফলে বাড়ি বসে শরীরের অচলতার কারণে অনেক সমস্যা দেখা দিচ্ছে। মানসিক অ্যাংজাইটি তো আছেই।

এত কথা বলার অন্যতম কারণ হল শ্বাসকষ্ট। এমন অনেকেই আছে যাদের কস্মিনকালেও শ্বাসের সমস্যা ছিল না। কিন্তু বর্তমানে মাঝে মধ্যে শ্বাসের সমস্যা দেখা দিচ্ছে। তার অন্যতম কারণ হিসাবে উঠে আসছে বর্তমান পরিস্থিতির বন্দিদশা ও তার থেকে তৈরি হওয়া মানসিক অস্বস্তি। সেই অস্বস্তি থেকে শ্বাসের সমস্যা। হ্যাঁ, তবে এ কথা কখনওই ঠিক নয় যে শুধু মানসিক অস্থিরতার কারণেই শ্বাসের সমস্যা হয়। শ্বাসের সমস্যা হওয়ার একাধিক কারণ আছে।

শ্বাসকষ্ট এমন একটি রোগ যার কোনো বিধিবদ্ধ সীমারেখা নেই এবং শ্বাসকষ্টের সঠিক কারণ খুঁজে পেতে চিকিৎসকদেরও বেশ নাকাল হতে হয়। 

Loading videos...

১। হৃদযন্ত্রের সমস্যা বা হার্টের রোগ এবং তার থেকে হাঁপানির কারণে শ্বাসকষ্ট হয়।

২। কোনো দুঃশ্চিন্তার কারণে রুদ্ধশ্বাস হয়ে থাকলেও প্রয়োজনের তুলনায় শ্বাস নেওয়া কম হয়। তার জন্য রক্তের কার্বন-ডাই-অক্সাইডের মাত্রা বেড়ে যায়, ফলে শ্বাসকষ্টের অনুভূতি হয়।

৩। হৃদপেশির পাম্প করার ক্ষমতা প্রয়োজনের তুলনায় কমে গেলে ফুসসুসে রক্ত জমতে থাকে। ফলে ফুসফুসকে অনমনীয় করে দেয়। তখন শ্বাস নিতে বেশি শক্তি প্রয়োগ করতে হয়। তখনও শ্বাসকষ্ট হয়।

৪। অনেক শ্বাসকষ্টের কারণ হল হাঁপানি। এই হাঁপানির কারণ শ্বাসনালি অর্থাৎ ফুসফুসে হাওয়া ঢোকা বেরোনোর পথ সরু হয়ে যাওয়া। তার জন্য জোরে জোরে শ্বাস নিতে হয়।

৫। অনেক সময় হৃদপিণ্ডে প্রয়োজনের তুলনায় কম রক্তপ্রবাহ হয়। তার কারণে হৃদপিণ্ডে অক্সিজেনের মাত্রা হ্রাস পায়। তখন শ্বাসকষ্ট অনুভূত হয়।

৬। অনেকের ক্ষেত্রে বুকে ব্যথা অনুভব হয়, তখনও শ্বাসকষ্ট হয়।

৭। এ ছাড়া জ্বর ও আরও কয়েকটি শারীরিক রোগেও হাত পা জ্বালা করে, মেটাবলিজম বেড়ে যায়। তখনও নিঃশ্বাসের হার বেড়ে যায়।

৮। বিশেষজ্ঞরা বলেন, হাইপারভেন্টিলেশন সিন্ড্রোমের কারণ খুব স্পষ্ট নয় ঠিকই তবে এই সমস্যার সঙ্গে উৎকণ্ঠা ও এক প্রকার ভয় পাওয়া রোগ অর্থাৎ প্যানিক ডিসঅর্ডারের যোগ আছে। সে ক্ষেত্রে এই শ্বাসকষ্টটি এক অর্থে মনের রোগ। এ রোগের ক্ষেত্রে শারীরিক প্রয়োজনের থেকে বেশি করে শ্বাস নেওয়া হয়। ফলে রক্তের কার্বন-ডাই-অক্সাইড শ্বাসের সঙ্গে বেশি মাত্রায় বেরিয়ে যায়। ফলে রক্তে ক্ষারের পরিমাণ স্বাভাবিকের চেয়ে বেড়ে যায়। উৎকণ্ঠা এবং ভয়ের সময় প্রায় ২৫% থেকে ৮৩% ক্ষেত্রে এ রকমের শ্বাসকষ্ট হয়। এই শ্বাসকষ্টের কোনো শারীরিক কারণ খুঁজে পাওয়া যায় না।

৯। আবার ১১% ক্ষেত্রে মানসিক সমস্যা ও শারীরিক কারণ ছাড়াই শ্বাসের এক ধরনের কষ্ট হয়। ঘন ঘন শ্বাস নিতে হয়। দেখা যায় যে, পুরুষদের চেয়ে মহিলারা এ সমস্যায় বেশি আক্রান্ত হয়।

তাই শ্বাসকষ্ট হলেই যে হৃদরোগ বা বড়ো কোনো সমস্যা এমনটা ভেবে ভয় পাওয়ার কোনো কারণ নেই। শ্বাসকষ্ট হলেই দেরি না করে বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন। পরামর্শমতো যাবতীয় চিকিৎসা পদ্ধতি অনুসরণ করুন। তার থেকেও জরুরি কথা হল পারিপার্শ্বিক পরিস্থিতি ও পরিবারে হাজারো সমস্যা থাকতে পারে। কিন্তু মনের ওপর তার প্রভাব পড়তে দেওয়া চলবে না। নিজেকে নিজের ভেতর থেকে খুশি রাখতে হবে। তা হলে এমন সমস্যা ধারে কাছে ঘেঁষতে পারবে না। বা কোনো রোগের কারণে শ্বাসকষ্ট হলেও তা থেকে মনের জোরে দ্রুত উতরে যাওয়া সম্ভব হবে।

পড়ুন – ডিপ্রেশন থেকে বাঁচতে কী কী করবেন? পর্ব ২

আরও পড়ুন – আপনি কি কোনো কারণে হতাশা বা ডিপ্রেশনে ভুগছেন? বুঝবেন এই লক্ষণগুলি থেকে: পর্ব ২

শরীরস্বাস্থ্য

ঠোঁটে কালো ছোপ কেন হয় জানেন?

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক : অনেকের ঠোঁটেই কালো কালো ছোপ দেখা যায়। এই ছোপ অনেক কারণেই হয়। তাই এমন দাগ দেখা গেলে শুরুতেই সচেতন হন।

এই দাগ ছোপের কারণগুলি হল

১। ভিটামিনের অভাব

ভিটামিনের অভাব ঘটলে এই দাগ হয়। বিশেষ করে বি১২-এর অভাবে। এই ক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবার খান।

Loading videos...

২। জলের অভাব

জলের অভাবেও ত্বক রুক্ষ ও বিবর্ণ হয়। সে ক্ষেত্রে প্রচুর পরিমাণ জল খান, তরল জাতীয় খাবার বেশি খান।

৩। অত্যাধিক আয়রন

শরীরে আয়রনের পরিমাণ অতিরিক্ত হয়ে গেলেও এই সমস্যা দেখা যায়। কারো কারো রক্তে জন্মগত ভাবেই আয়রনের পরিমাণ বেশি থাকে। সে ক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে নির্দিষ্ট সময় অন্তর রক্তদান করুন। খাওয়াদাওয়া নিয়ন্ত্রণ করুন।

৪। ওষুধের কারণে

অনেক ওষুধের কারণেও ঠোঁটে কালো ছাপ দেখা যায়। ক্যানসার, ম্যালেরিয়া ইত্যাদি রোগ প্রতিরোধক ওষুধের প্রতিক্রিয়ায় এমনটা হতে পারে।

৫। হাইপারপিগমেন্টেশন

এইটিও একটি অন্যতম কারণ ঠোঁটের কালো ছোপের বিষয়ে। এই ক্ষেত্রে হরমোনের প্রভাব কাজ করে। এই ক্ষেত্রে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া উচিত।

৬। অ্যালার্জি

অনেকের অ্যালার্জির কারণেও এমন সমস্যা হয়। লিপস্টিক, টুথপেস্ট, লিপবাম, হেয়ারডাই, হেয়ারলাইটেনিং ক্রিম ইত্যাদির কারণেও অ্যালার্জি হয়। তাই সমস্যা হলে বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।

৭। হরমোনের সমস্যা

থাইরয়েড হরমোন বেশি থাকা বা কম থাকার কারণেও এই সমস্যা হয়। এ ক্ষেত্রে ডাক্তার দেখান।

পড়ুন – সিগারেট খেয়ে ঠোঁটের রঙ কালো! রঙ ফেরাতে ঘরোয়া টোটকা

আরও – ত্বক শুষ্ক হয়ে যাওয়ার কারণ এগুলি, সাবধান হোন

Continue Reading

শরীরস্বাস্থ্য

কেন খাবেন কালোজিরে? জেনে নিন ১৩টি উপকারিতা

Published

on

খবরঅনলাইন ডেস্ক : রান্নায় ব্যবহার করা সব মশলাপাতি বা ফোড়নেরই স্বাদ ছাড়াও নিজস্ব কিছু ভেষজ গুণ আছে। ঠিক তেমনই বহু গুণে সমৃদ্ধ কালোজিরে। স্বাদ বাড়াতে নিমকি, লুচি, অন্যান্য ভাজাভুজি ইত্যাদিতে দেওয়া হয় মাঝে মধ্যেই। কিন্তু এর গুণাগুণের জন্য এটি নিয়ম মাফিক খাওয়া যেতে পারে। কী ভাবে খাবেন সে বিষয়ে পরের পর্বে আলোচনা করব। এই পর্বে রইল এর গুণাগুণ ও কোন রোগে এটি মোক্ষম কাজ দিতে পারে সে বিষয়ে আলোচনা। 

১. কালোজিরেতে রয়েছে প্রচুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এগুলি প্রদাহ নিরাময় করে। অক্সিডেটিভ স্ট্রেস হ্রাস করে। লিভারকে সুরক্ষিত রাখে। রাসায়নিকের বিষক্রিয়া কমাতে পারে কালোজিরে। লিভার ও কিডনিকে ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করে।

২। ডায়াবেটিসের ক্ষেত্রে দারুণ কাজ করে এটি। কালোজিরের তেল ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ রাখতে সহায়তা করে।

Loading videos...

৩। ত্বকের সমস্যায় সহায়তা করে লেবু কালোজিরের টোটকা। ত্বকে ব্রণ ও তার দাগ অদৃশ্য হয়ে যায়।

৪। ওজন নিয়ন্ত্রণ করতে কালোজিরে দারুণ কাজ করে। রুটি, ওটমিল, তরকারি ও টক দইয়ের সঙ্গে খেলে উপকার পাওয়া যায়।

৫। মাথাব্যথা কমাতে কালোজিরে তেল একটি পুরোনো ঘরোয়া প্রতিকার। এটি দিয়ে মাথার ত্বকের মালিশ করলে উপকার পাবেন।

৬। জয়েন্টের ব্যথায় সরষের তেলের সঙ্গে কালোজিরের তেল গরম করে লাগালে উপশম হয়।

৭। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে শক্তিশালী করে কালোজিরে। নিয়মিত কালোজিরে খেলে শরীরের প্রতিটি অঙ্গপ্রত্যঙ্গ সতেজ থাকে। যে কোনো জীবাণুর বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে, লড়াই করতে সহায়তা করে। সার্বিক ভাবে স্বাস্থ্যের উন্নতি হয়।

৮। যাঁরা হাঁপানি বা শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যায় ভুগে থাকেন তাঁদের জন্য কালোজিরে খুবই উপকারী।

৯। সর্দি-কাশিতে আরাম দেয় এটি। পাতলা সুতির পরিষ্কার কাপড়ে কালোজিরে বেঁধে শুকোলে, সর্দি কমে। পাশাপাশি, কালোজিরে, মধু ও তুলসীপাতার রস মিশিয়ে খেলে জ্বর, ব্যথা, সর্দি-কাশি কমে। বুকে কফ বসে গেলে কালোজিরে বেঁটে, মোটা করে প্রলেপ দিলে সমস্যা কমে।

১০। নিয়মিত কালোজিরে খেলে দেহে রক্ত সঞ্চালন ভালো হয়। এতে করে মস্তিষ্কে রক্ত সঞ্চালনের বৃদ্ধি ঘটে, যা আমাদের স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধি করতে সাহায্য করে।

১১। নিয়মিত কালোজিরা খাওয়ালে শিশুর দৈহিক ও মানসিক বৃদ্ধি দ্রুত হয়।

১২। প্রসূতি মায়েদের বুকের দুধ বৃদ্ধিতেও মহৌষধ কালোজিরে।

১৩। চুলের অনেক সমস্যায় কালোজিরে উপকার করে। চুলের গোড়ায় পুষ্টি দিতে, চুলের বৃদ্ধি ভালো করতে, চুল পড়া বন্ধ করতে কাজ দেয়।

তবে কোন কারণের জন্য কালোজিরে ঠিক কী ভাবে খাবেন বা ব্যবহার করবেন এই নিয়ে পরের পর্বে আলোচনা করব।

পড়ুন – কেন খাবেন মৌরি? জেনে নিন ১ ডজন উপকারিতা

আরও পড়ুন – কেন খাবেন পাকা তেঁতুল, জেনে নিন ৩১টি উপকারিতা

Continue Reading

শরীরস্বাস্থ্য

কেন খাবেন জোয়ান? ১৫টি ভেষজ উপকারিতা জেনে নিন

Published

on

খবর অনলাইন ডেস্ক : খুবই পরিচিত একটি নাম জোয়ান। জোয়ানের ভেষজ উপকারিতা কম নয়

এর উপকারিতা

১। কাশিতে

নিয়মিত অল্প একটু করে জোয়ান খেলে সর্দিকাশির কষ্ট দূর হয়।

Loading videos...

২। ম্যালেরিয়া জ্বরে

জোয়ান খেলে ম্যালেরিয়া জ্বরের শীতের প্রকোপ কম হয়, ঘাম দিয়ে জ্বর ছাড়ে।

৩। সর্দিতে

জোয়ান পিষে পেঁয়াজের রস মিশিয়ে শরীরে মালিশ করলে ঘাম বেরিয়ে সর্দির কষ্ট দূর হয়। পিষে পুঁটলি তৈরি করে নাকে ধরলে সর্দি কমে যায়।

৪। শ্বাসকষ্টে

জোয়ান গরম জলের সঙ্গে মিশিয়ে খেলে শ্বাসের কষ্ট দূর হয়। জোয়ানের আরক খেলেও উপকার হয়।

৫। পেটের অসুখে

জোয়ান খেয়ে গরম জল খেলে পেটের শূল ব্যথা কমে। মুখে থুতুর আধিক্য, অজীর্ণ এবং বদ্ধ বায়ুর প্রকোপ কমে।

৬। আমবাতে

জোয়ান গুড় মিশিয়ে খেলে আমবাত সারে।

৭। বায়ু ও অম্লে

চাটুতে জোয়ান সেঁকে নিয়ে সমান পরিমাণ সৈন্ধব লবণ মিশিয়ে পিষে নিতে হবে। গরম জলের সঙ্গে এই চুর্ণ খানিকটা খেলে পেটের বায়ু দূর হয়।

৮। প্রসূতির জন্য উপকারী

জোয়ান খাওয়ালে প্রসূতির খিদে বাড়ে। খাবার হজম হয়, বায়ু মুক্ত হয়, কোমরের ব্যথা কমে।

৯। হাত-পা ঠান্ডা হলে

জোয়ান জল দিয়ে পিষে নিয়ে শরীরে মালিশ করলে শরীর গরম হয়। জোয়ানের পুঁটুলি তৈরি করে চাটুতে গরম করে হাতে পায়ে সেঁক দিলে বিভিন্ন কারণে যেমন  কলেরা বা আন্ত্রিক রোগ, টাইফয়েড বা হাঁপানির কষ্টের জন্যে ঠান্ডা হওয়া হাত-পা ক্রমশ গরম হয়।

১০। বহুমূত্র রোগে উপকারী

জোয়ান আর তিল একসঙ্গে পিষে খেলে বহুমূত্র রোগের (ডায়বেটিসের) প্রকোপ কমে।

১১। ত্বক ও চুলের যত্নে

জোয়ানে ছত্রাকরোধী কার্যকারিতা রয়েছে। ফলে চুল ও ত্বকের ছত্রাক সংক্রমণের কারণে হওয়া সমস্যার বিরুদ্ধে কাজ করে জোয়ান।

১২। অর্শর ব্যথায়

জোয়ান ও গুড় সমপরিমাণে নিয়ে মিশিয়ে পিষে সকালে ও সন্ধ্যায় অল্প করে খেলে অর্শের ব্যথা কমে। কোমরের ব্যথা সারে।

১৩। মাসিকের সময়ে

এই সময়ে হওয়া তলপেটের ব্যথা কমাতে এর উপকারিতা আছে।

১৪। রক্ত তরল করতে

পশুদের দেহের রক্ত তরল করার ক্ষমতা রাখে এই জোয়ান।

১৫। ক্রিমিতে

জোয়ান প্রাকৃতিক ভাবে ও স্বাভাবিক ভাবে ক্রিমি বের করে আনার ক্ষেত্রে বেশ উপকারী।

পড়ুন – কেন খাবেন মৌরি? জেনে নিন ১ ডজন উপকারিতা

আরও পড়ুন – কেন খাবেন কামরাঙা? ১৩টি কারণ জেনে নিন

Continue Reading
Advertisement
Advertisement
ফুটবল8 hours ago

মরশুমের প্রথম জয় বেঙ্গালুরুর, প্রথম হার চেন্নাইয়ের

রাজ্য10 hours ago

দুয়ারে সরকার: চার দিনেই ৭৫৮টি ক্যাম্পে ১৪ লক্ষ উপস্থিতি

রাজ্য10 hours ago

কলকাতায় সক্রিয় রোগী ৬ হাজারের নীচে, রাজ্যে নতুন সংক্রমণে ব্যাপক পতন

Vijay Mallya
বিদেশ11 hours ago

ফ্রান্সে বিজয় মাল্যের ১৪ কোটি টাকার সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল ইডি

দেশ12 hours ago

হায়দরাবাদে উত্থান বিজেপির, ইস্তফা প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতির!

দেশ12 hours ago

হায়দরাবাদ পুরভোটে টিআরএস বৃহত্তম দল হলেও পোক্ত বিজেপির ভিত!

দঃ ২৪ পরগনা13 hours ago

সুন্দরবনের মৎস্যজীবীদের বিকল্প কাজ-সহ একাধিক দাবিতে চিতুরি বন দফতরে ডেপুটেশন

দেশ13 hours ago

মঙ্গলবার ভারত বন্‌ধের ডাক দিলেন আন্দোলনরত কৃষকরা

কেনাকাটা

কেনাকাটা21 hours ago

পোর্টেবল গিজারের ওপর বিশেষ ছাড় বেশ কয়েকটি মডেলে

খবর অনলাইন ডেস্ক: শীতকাল মানেই কনকনে ঠান্ডায় উষ্ণ জলের প্রয়োজন। সেই গরম জলের প্রয়োজন মেটাতে পারে গিজার। অ্যামাজনে কয়েক ধরনের...

কেনাকাটা4 days ago

ব্র্যান্ডেড কোম্পানির ইমারশন রডে ২ বছর পর্যন্ত ওয়ার‍্যান্টি পাওয়া যাচ্ছে

খবর অনলাইন ডেস্ক: শীতকালে গরম জলে স্নান করার মজাই আলাদা। জল গরম করার জন্য কি ওয়াটার হিটার খুঁজছেন? কিনতে পারেন...

কেনাকাটা1 week ago

৫০০ টাকার মধ্যে অত্যাধুনিক হেডফোন

খবর অনলাইন ডেস্ক: হেডফোন খারাপ হয়ে গেছে? সস্তায় নতুন ধরনের হেডফোন খুঁজছেন? হেডফোনের কয়েকটি অত্যাধুনিক কালেকশন রইল অ্যামাজন থেকে। প্রতিবেদন...

কেনাকাটা1 week ago

শীতের নতুন কিছু আইটেম, দাম নাগালের মধ্যে

খবর অনলাইন ডেস্ক: শীত এসে গিয়েছে। সোয়েটার জ্যাকেট কেনার দরকার। কিন্তু বাইরে বেরিয়ে কিনতে যাওয়া মানেই বাড়ি এসে এই ঠান্ডায়...

কেনাকাটা1 week ago

ঘর সাজানোর জন্য সস্তার নজরকাড়া আইটেম

খবর অনলাইন ডেস্ক: ঘরকে একঘেয়ে দেখতে অনেকেরই ভালো লাগে না। তাই আসবারপত্র ঘুরিয়ে ফিরে রেখে ঘরের ভোলবদলের চেষ্টা অনেকেই করেন।...

কেনাকাটা2 weeks ago

লিভিংরুমকে নতুন করে দেবে এই দ্রব্যগুলি

খবর অনলাইন ডেস্ক: ঘরের একঘেয়েমি কাটাতে ও সৌন্দর্য বাড়াতে ডিজাইনার আলোর জুড়ি মেলা ভার। অ্যামাজন থেকে তেমনই কয়েকটি হাল ফ্যাশনের...

কেনাকাটা2 weeks ago

কয়েকটি প্রয়োজনীয় জিনিস, দাম একদম নাগালের মধ্যে

খবর অনলাইন ডেস্ক: কাজের সময় হাতের কাছে এই জিনিসগুলি থাকলে অনেক খাটুনি কমে যায়। কাজও অনেক কম সময়ের মধ্যে করে...

কেনাকাটা4 weeks ago

দীপাবলি-ভাইফোঁটাতে উপহার কী দেবেন? দেখতে পারেন এই নতুন আইটেমগুলি

খবর অনলাইন ডেস্ক : সামনেই কালীপুজো, ভাইফোঁটা। প্রিয় জন বা ভাইবোনকে উপহার দিতে হবে। কিন্তু কী দেবেন তা ভেবে পাচ্ছেন...

কেনাকাটা1 month ago

দীপাবলিতে ঘর সাজাতে লাইট কিনবেন? রইল ১০টি নতুন কালেকশন

খবরঅনলাইন ডেস্ক: আসছে আলোর উৎসব। কালীপুজো। প্রত্যেকেই নিজের বাড়িকে সুন্দর করে সাজায় নানান রকমের আলো দিয়ে। চাহিদার কথা মাথায় রেখে...

কেনাকাটা2 months ago

মেয়েদের কুর্তার নতুন কালেকশন, দাম ২৯৯ থেকে শুরু

খবর অনলাইন ডেস্ক: পুজো উপলক্ষ্যে নতুন নতুন কুর্তির কালেকশন রয়েছে অ্যামাজনে। দাম মোটামুটি নাগালের মধ্যে। তেমনই কয়েকটি রইল এখানে। প্রতিবেদন...

নজরে