Connect with us

প্রচ্ছদ খবর

অন্ধ্র নয়, নিম্নচাপের অভিমুখ হতে পারে পশ্চিমবঙ্গের দিকেই, শুক্রবার থেকে জোর বৃষ্টির সম্ভাবনা

ওয়েবডেস্ক: আগামী কয়েক দিনের মধ্যে আবহাওয়ার নিরিখে একটি ঘটনা ঘটতে পারে, যেটি আগে কখনও ঘটেছে কি না, সেটা জানার জন্য রেকর্ড বই বের করতে হতে পারে। কী সেই ঘটনা?

ডিসেম্বরে বঙ্গোপসাগরে তৈরি হওয়া নিম্নচাপ পশ্চিমবঙ্গ উপকূলের দিকে আসছে, এই ঘটনা আগে কখনও ঘটেনি। কিন্তু আবহাওয়া বিশেষজ্ঞদের একাংশের কথা যদি মিলে যায় তা হলে সেটাই হবে। বঙ্গোপসাগরের নিম্নচাপ তামিলনাড়ু-অন্ধ্রপ্রদেশের থেকে মুখ ঘুরিয়ে এগোবে পশ্চিমবঙ্গের দিকে এবং তার প্রভাবে শুক্রবার থেকেই জোর বৃষ্টির সম্ভাবনা কলকাতা-সহ সমগ্র দক্ষিণবঙ্গে।

এ বার দক্ষিণবঙ্গে শীত প্রাথমিক ভাবে ভালোই পড়েছে। সপ্তাহ দুয়েক হল পনেরো-ষোলো ডিগ্রির আশেপাশেই ঘোরাফেরা করছে তাপমাত্রা। কিন্তু সাগরের ভেলকি যেন থামছেই না। আরব সাগর হোক বা বঙ্গোপসাগর, খেল দেখাচ্ছে দু’টোই। এক দিকে যখন ঘূর্ণিঝড় ‘অক্ষি’র প্রভাবে ডিসেম্বরে রেকর্ড বৃষ্টি হয়েছে মুম্বইয়ে, অন্য দিকে বঙ্গোপসাগরের নিম্নচাপ তামিলনাড়ু-অন্ধ্রে না গিয়ে উঠবে ওড়িশা-পশ্চিমবঙ্গের দিকে।

এর জন্য অবশ্য ‘অক্ষি’র অনেকটা প্রভাব রয়েছে। বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থা ওয়েদার আল্টিমার কর্ণধার রবীন্দ্র গোয়েঙ্কা বলেন, “‘অক্ষি’র প্রভাবে পশ্চিম উপকুল থেকে আসা হাওয়াই এই নিম্নচাপটিকে ওপরে তুলতে সাহায্য করবে। এর সঙ্গে রয়েছে উত্তর ভারতের দিকে আসা একটি সক্রিয় পশ্চিমী ঝঞ্ঝা এবং সক্রিয় জেট স্ট্রিম।” নিম্নচাপটি ঠিক কোথায় স্থলভাগে ঢুকবে সে ব্যাপারে রবীন্দ্রবাবু কিছু না বললেও, তিনি মনে করেন উত্তর ওড়িশা থেকে বাংলাদেশের মধ্যে দিকে স্থলে ঢুকবে সে।

অন্য দিকে কেন্দ্রীয় আবহাওয়া দফতর অবশ্য এখনই নিম্নচাপকে পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে নিয়ে আসার পক্ষপাতী নয়। তাদের মতে, এই নিম্নচাপ প্রবেশ করবে অন্ধ্র উপকূল দিয়ে। যদিও ২৪ ঘণ্টা আগেই নিজেদের পূর্বাভাসে আবহাওয়া দফতর বলেছিল, নিম্নচাপটির অভিমুখ হবে উত্তর তামিলনাড়ু।

তবে অভিমুখ যেখানেই হোক, দক্ষিণবঙ্গে যে বৃষ্টি হবেই সে ব্যাপারে নিশ্চিত সবাই। বৃহস্পতিবার রাত থেকেই বিক্ষিপ্ত ভাবে বৃষ্টি শুরু হবে দক্ষিণবঙ্গে। শুক্রবার দুপুর থেকে তার দাপট বাড়বে। বৃষ্টি চলতে পারে সামনের সপ্তাহের মঙ্গলবার পর্যন্ত। তবে রবিবার পর্যন্ত তার দাপট থাকবে তুলনায় অনেক বেশি। রবীন্দ্রবাবুর কথায়, সারা দিন হালকা বৃষ্টি এবং দমকা হাওয়ার পাশাপাশি মাঝেমধ্যে বিক্ষিপ্ত ভাবে ভারী বৃষ্টি হতে পারে।

এই আবহাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতে মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যাওয়ার জন্য নিষেধ করা হচ্ছে। পাশাপাশি সতর্ক থাকতে বলা হচ্ছে কৃষকদেরও। অবিলম্বে তারা যেন কাটা ধান মাঠে ফেলে না রেখে নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নেন।

এই বৃষ্টির ফলে দক্ষিণবঙ্গে অনুভূত হবে ‘শীতল দিন’। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ২২ থেকে ২৩ ডিগ্রির বেশি উঠবে বলে মনে করছেন না রবীন্দ্রবাবু। তবে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা অনেকটাই বেড়ে যাবে। সকালের তাপমাত্রা কুড়ি ডিগ্রির আশেপাশে উঠে যেতে পারে। আপাতত আগামী এক সপ্তাহ শীত ফেরার কোনো সম্ভাবনা নেই দক্ষিণবঙ্গে। সামনের সপ্তাহের শেষ দিকে উত্তুরে হাওয়ার ভর করে ফিরতে পারে শীত।

প্রচ্ছদ খবর

আরএসএস-কংগ্রেস যোগ নিয়ে বিস্ফোরক অভিযোগ মমতার

Mamata-banerjee

ওয়েবডেস্ক: লোকসভা ভোটের হাইভোল্টেজ প্রচারে বেরিয়ে উত্তরবঙ্গের সভা থেকে কংগ্রেসকে নজিরবিহীন আক্রমণ করলেন তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এ দিন তিনি চোপড়ার সভা থেকে আরএসএসের সঙ্গে কংগ্রেসের যোগ নিয়ে বেনজির অভিযোগ করেন।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, বাংলায় জয়ী হবে না, এ কথা বুঝতে পেরে নাকি ভয় পেয়ে গিয়েছে বিজেপি-কংগ্রেস৷ তাই ভোটে জেতার জন্য আরএসএসের সঙ্গে জোট বেঁধেছে কংগ্রেস৷ এই ইস্যুতে নাম না করে মুর্শিদাবাদের বহরমপুর এবং জঙ্গিপুরের কংগ্রেস প্রার্থী অধীররঞ্জন চৌধুরি এবং অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়কে তোপ দাগেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী৷

মমতা কথায়, “ভোটে জিততে টাকা ছড়াচ্ছে আরএসএস। কংগ্রেস ভোটে জিততে আরএসএসের সাহায্য নিচ্ছে। বহরমপুরের কংগ্রেস প্রার্থীকে সাহায্য করছে ওই সংগঠন। এমনকী প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের পুত্র, এ বারের ভোটে জঙ্গিপুরের কংগ্রেস প্রার্থী অভিজিত মুখোপাধ্যায়কেও সাহায্য করছে আরএসএস। এ ভাবেই দেশের সংগঠনগুলি বিশ্বাসযোগ্যতা হারিয়েছে”।

Continue Reading

প্রচ্ছদ খবর

উত্তরবঙ্গের হাইভোল্টেজ প্রচারসভা থেকে মোদীকে স্ট্রাইকের হুঁশিয়ারি মমতার

Mamata-Banerjee

ওয়েবডেস্ক: বুধবার উত্তর দিনাজপুরের চোপড়ার জনসভা থেকে প্রথামাফিক প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে তীব্র কটাক্ষে আক্রমণ করলেন তৃণমূলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে বরাবরের মতো মোদীকে আক্রমণের নিশানা হিসাবে ‘বেকারত্ব’, ‘ধর্মীয় বিভেদ’, ‘যুদ্ধের’ মতো উপকরণগুলিকে তুলে নেওয়ার পাশাপাশি তিনি এ দিন বলেন, “তৃণমূল-ই পারবে কেন্দ্র থেকে বিজেপিকে হঠাতে। মোদীবাবুকে সরাতে গেলে দরকার জোড়াফুল”।

মমতা বলেন, “চৌকিদার মিথ্যাবাদী, চৌকিদার দাঙ্গাবাজ।  মোদীবাবু পাঁচ বছর আগে ছিলেন চা-ওয়ালা। এখন হয়েছেন চৌকিদার। লোকে বলছে চৌকিদার চোর হ্যায়। আমি বলছি এই চৌকিদার ঝুটা হ্যায়। এই চৌকিদার লুঠেরাদের চৌকিদার। সাড়ে চার বছর বিদেশে ঘুরে বেড়িয়েছেন। আর সেই সময়েই দেশে বেকার বেড়েছে সর্বাধিক”।

সম্প্রতি পুলওয়ামা হামলা এবং বালাকোটে বায়ুসেনার এয়ারস্ট্রাইক প্রসঙ্গে জওয়ানদের কথা তুলে ধরে নির্বাচন কমিশনের নজরে পড়েন মোদী। সেই ঘটনার সূত্র ধরেই মমতা বলেন, “আগাম সতর্কতা থাকা সত্ত্বেও কেন পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলা হল। জওয়ানদের নিয়ে রাজনীতি করছেন মোদী। জওয়ানরা কারো নয়, দেশের। প্রধানমন্ত্রী শুধু যুদ্ধের কথা বলেন। এ বার ভোটারদের স্ট্রাইক দেখবেন মোদী”।

এ দিন বিজেপির পাশাপাশি সিপিএম-কংগ্রেসকে ভোট না দেওয়ার আর্জি জানান মমতা। তিনি বলেন, “সিপিএমের কাউকে দেখতে পেয়েছেন, কংগ্রেসের কাউকে দেখতে পেয়েছেন। সিপিএম-কংগ্রেস-বিজেপি এরা এক। সকালে করে সিপিএম, দুপুরে করে কংগ্রেস, রাতে করে বিজেপি। এরা তিন দিল জগাই-মাধাই-গদাই। একটাও ভোট দেবেন না।”।

ক’দিন আগেই রাজ্যে এসে নাগরিকপঞ্জি নিয়ে সরব হয়েছিলেন মোদী। তাঁর উদ্দেশে মমতা বলেন, “বাংলায় নাগরিকপঞ্জি হতে দেব না। নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলও আনতে দেব না”।

[ আরও পড়ুন: আরএসএস-কংগ্রেস যোগ নিয়ে বিস্ফোরক অভিযোগ মমতার ]

ভোটের মুখে পুলিশ আধিকারিকদের বদলি প্রসঙ্গে মমতার দাবি, “অফিসাররা ভোট দেন না, ভোট দেবেন জনগণ। ফলে তৃণমূলের ভোট কেউ আটকাতে পারবে না। রাজ্যের ৪২টার মধ্যে ৪২টাই দখলে এলে দিল্লিও দখলে আসবে”।

Continue Reading

প্রচ্ছদ খবর

মিছিলে হামলা, আক্রান্ত সিপিএম প্রার্থী গুরুতর আহত হয়ে ভরতি হাসপাতালে

cpm's campaign

আসানসোল: প্রচারে বেরিয়ে আক্রান্ত হলেন আসানসোলের সিপিএম প্রার্থী গৌরাঙ্গ চট্টোপাধ্যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় ভরতি হাসপাতালে।

ঘটনাটি ঘটেছে বারাবনির মদনপুরে। এ দিন সকালে প্রচারে বেরিয়েছিলেন গৌরাঙ্গবাবু। মদনপুরে পৌঁছোতেই তাঁর মিছিলে হামলা চালানো হয়। তাঁকে মাটিতে ফেলে মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। গোটা ঘটনায় শাসক তৃণমূলের বিরুদ্ধে হামলার অভিযোগ তুলেছে সিপিএম। যদিও সেই অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল।

gouranga chatterjee

আহত গৌরাঙ্গবাবু।

বর্ষীয়ান বাম প্রার্থীর আক্রান্ত হওয়ার ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে আসানসোলের পরিস্থিতি। দুষ্কৃতীদের গ্রেফতারের দাবিতে অণ্ডাল থানায় বিক্ষোভ দেখাচ্ছে সিপিএম।

আরও পড়ুন এখনও গৃহীত হয়নি মুকুটমণি অধিকারীর ইস্তফাপত্র, রানাঘাট কেন্দ্রের প্রার্থী নিয়ে বিকল্প ব্যবস্থা বিজেপির

উল্লেখ্য, ২০১২ সালের ১২ ডিসেম্বর রাজ্য বিধানসভার মধ্যে আক্রান্ত হয়েছিলেন তৎকালীন বিধায়ক গৌরাঙ্গবাবু। সেই ঘটনায় আহত হয়েছিলেন দেবলীনা হেমব্রমও। গোটা ঘটনায় তৃণমূলের দিকেই অভিযোগের আঙুল তুলেছিল সিপিএম।

এর আগেও গত বৃহস্পতিবার রাতে বাঁকুড়ার রানিবাঁধ এলাকায় প্রচার সেরে সিঁদুরপুর গ্রামের বাড়িতে ফিরতেই কয়েক জন দুষ্কৃতী সিপিএম নেতা মধুসূদন মাহাতোকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। পরে আখখুটা মোড় এলাকায় তাঁকে ব্যাপক মারধর করে। দুষ্কৃতীরা সবাই তৃণমূলের আশ্রিত বলে অভিযোগ।

Continue Reading
Advertisement
কলকাতা9 hours ago

শর্ট সার্কিট থেকে আগুন, বেহালায় পুড়ে মৃত্যু মা-মেয়ের

দেশ9 hours ago

করোনা মহামারিতে ‘ফুচকা’র জন্য গলা শুকোচ্ছে? এসে গেল ‘এটিএম’

দেশ10 hours ago

‘আত্মনির্ভর ভারত অ্যাপ ইনোভেশন চ্যালেঞ্জ’ চালু করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

রাজ্য10 hours ago

দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যায় নতুন রেকর্ড রাজ্যে, সুস্থতাতেও রেকর্ড

দেশ11 hours ago

১৫ আগস্ট? করোনা ভ্যাকসিনের দিনক্ষণ বেঁধে দেওয়া নিয়ে অবস্থান স্পষ্ট করল আইসিএমআর

ক্রিকেট11 hours ago

করোনা পিছু ছাড়ছে না মাশরাফি বিন মুর্তজার

দেশ11 hours ago

পাশের আসনে বসা নেতা করোনা আক্রান্ত! বিহারের মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে উদ্বেগ

LPG
প্রযুক্তি13 hours ago

রান্নার গ্যাসের ভরতুকির টাকা অ্যাকাউন্টে ঢুকেছে কি না, কী ভাবে দেখবেন?

দেশ20 hours ago

কোভিড আপডেট: নতুন করে আক্রান্ত ২২,৭৭১, সুস্থ ১৪,৩৩৫

দেশ2 days ago

দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যায় নতুন রেকর্ড, সুস্থতাতেও রেকর্ড

ক্রিকেট3 days ago

চলে গেলেন ‘থ্রি ডব্লু’-এর শেষ জন স্যার এভার্টন উইকস, শেষ হল একটা অধ্যায়

কলকাতা18 hours ago

কলকাতায় অতিসংক্রমিত ১৬টি অঞ্চলকে পুরোপুরি সিল করে দেওয়ার প্রস্তুতি

ক্রিকেট3 days ago

২০১১ বিশ্বকাপ কাণ্ড: জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করা হল কুমার সঙ্গকারা, মাহেলা জয়বর্ধনকে

SBI ATM
শিল্প-বাণিজ্য2 days ago

এসবিআই এটিএমে টাকা তোলার নিয়ম বদলে গেল

দেশ2 days ago

‘সবার টিকা লাগবে না, আর পাঁচটা রোগের মতোই চলে যাবে করোনা’, আশ্বাস অক্সফোর্ডের বিজ্ঞানীর

wfh
ঘরদোর1 day ago

ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন? কাজের গুণমান বাড়াতে এই পরামর্শ মেনে চলুন

নজরে