পুতিনের পাশে ট্রাম্প, বললেন আমেরিকার ভুলের জন্যও বহু মানুষ প্রাণ দিয়েছেন

0

ওয়াশিংটন: কথায় বলে রতনে রতন চেনে। পুতিনকে রক্ষা করতে এগিয়ে এলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলেছেন, আমেরিকা যা করেছে, পুতিনও তাই করেছেন। আমেরিকার ভুলের জন্য বিশ্ব জুড়ে বহু মানুষকে প্রাণ দিতে হয়েছে।

ফক্স নিউজের সঙ্গে এক সাক্ষাৎকারে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বলেন, “তা হলে দেখুন, আমরা অতীতে কী করেছি। আমরা অনেক ভুল করেছি। আমি গোড়া থেকেই ইরাক-যুদ্ধের বিরোধী ছিলাম। বুঝলেন, প্রচুর ভুল হয়েছে। আর তার খেসারত হিসাবে প্রচুর মানুষ প্রাণ দিয়েছেন।”

যখন বলা হয় রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিন এক জন ‘হত্যাকারী’, তখন ট্রাম্প বলেন, “তা হলে তো আমাদের চার পাশে অনেক হত্যাকারী ঘুরে বেড়াচ্ছে। আপনারা কি ভাবেন, আমাদের দেশ একেবারে ধোয়া তুলসীপাতা?”

ট্রাম্প বলেন, আইসিস-এর বিরুদ্ধে যুদ্ধে তিনি রাশিয়ার সঙ্গে সহযোগিতা করতে চান। তিনি পুতিনকে শ্রদ্ধা করেন। তার মানে এই নয় যে সব ব্যাপারে দু’ দেশ একেবারে গলাগলি করবে।

quate_f-1দেখুন আমি অনেক মানুষকে শ্রদ্ধা করি। তার মানে এই নয় যে তাঁদের সঙ্গে আমার একেবারে গলায় গলায় ভাব। পুতিন তাঁর দেশের নেতা। রাশিয়ার সঙ্গে বিরোধ না করে মিলেমিশে থাকা তো ভালো। আইসিস-এর বিরুদ্ধে লড়াইটা একটা বড়ো লড়াই। সারা বিশ্বে ইসলামিক সন্ত্রাসবাদ…। এই লড়াইয়ে রাশিয়া যদি আমাদের সাহায্য করে…।

ট্রাম্পের এই মন্তব্যের পরেই নিন্দা-সমালোচনা ঝড় উঠেছে। সেনেট ফরেন রিলেশনস কমিটির সদস্য সেনেটর বেন কার্ডিন বলেছেন, “পুতিনের মতো একটা স্বৈরতান্ত্রিক, হত্যাকারী শাসকের সঙ্গে আমাদের দেশকে সমগোত্রে ফেলাটা একটা জঘন্য ব্যাপার, অত্যন্ত নিন্দনীয়। পুতিনের শাসনে রাজনৈতিক বিরোধীদের, নিরপেক্ষ সাংবাদিকদের হেনস্থা করা হচ্ছে, আক্রমণ করা হচ্ছে, জেলে পাঠানো হচ্ছে, এমনকি খুন পর্যন্ত করা হচ্ছে। ট্রাম্পের এই বক্তব্যে প্রমাণিত আমেরিকার অনন্যতায় বিশ্বাস করেন না তিনি।”

উল্লেখ্য, ট্রাম্পের হয়ে হিলারি ক্লিন্টনের বিরুদ্ধে কলকাঠি নাড়ার জন্য রুশ গোয়েন্দারা মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নাক গলিয়েছিল বলে মার্কিন গোয়েন্দা এজেন্সিগুলির রিপোর্ট। এখন কি ট্রাম্প কৃতজ্ঞতাবশত পুতিনকে সমর্থন করছেন, ট্রাম্প-বিরোধীদের সন্দেহ এটাই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.