expense

ওয়েবডেস্ক: অহেতুক! মাসে আপনার যা খরচ হয়, তার মধ্যে এই শব্দটাও জুড়ে রাখা ভালো! এমন কোনো পরিবারই নেই যেখানে না চাইলেও মাসে কিছু অপ্রয়োজনের খরচ হয়ে যায় না!

কিন্তু তা যদি ঠেকাতে হয়?

স্রেফ এই ৬টি কাজ মাসে করেই দেখুন না!

১. খরচপাতির হিসাব রাখুন

expense

হিসাব যে আপনি রাখেন না, এমন কথা আমরা বলছি না! কিন্তু সারা মাস ঘরে এবং বাইরে কত দিকেই তো মাথা দিতে হয়! ফলে সব খরচ যে যথাযথ ভাবে মাথায় থাকে, এমনটা নয়! তাই চাইলে এক বার গুগল স্টোরে গিয়ে এক্সপেন্স ম্যানেজমেন্ট অ্যাপ বলে সার্চ দিয়ে দেখতে পারেন। তাতে সুবিধা হবে এই- আপনার বদলে অ্যাপটাই নেটব্যাঙ্কিং, ডেবিট বা ক্রেডিট কার্ডে কত খরচ হচ্ছে, তার হিসাব রাখবে। কার্ডে কেনাকাটা করলে হিসাব রাখবে মাসকাবারি সব খরচেরই! ফলে সুবিধেমতো দিনে একবার অ্যাপের পর্দায় চোখ রাখলেই খরচ আপনার নাগালে থাকবে!

তবে হ্যাঁ, এর জন্য অ্যাপের সঙ্গে কার্ডের নম্বর যোগ করে রাখতে হবে! সেটা যদি না-মঞ্জুর হয়, তবে নিজেই রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে কত খরচ হল, তা খাতায় লিখে রাখতে পারেন!

২. নিজের জন্য টাকা সরিয়ে রাখুন

saving

মাসের একেবারে শুরুতেই একটা নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা, হোক না তার পরিমাণ অল্প, সরিয়ে রাখুন নিজের জন্য! তার পর যে টাকাটা বাঁচছে, সেখান থেকে বাদ বাকি খরচ চালান! এতেও খরচ অতিরিক্ত হওয়া বন্ধ হবে! পাশাপাশি, ওই সরিয়ে রাখা টাকাটা যদি সিস্টেমেটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যানে বিনিয়োগ করেন, তা হলে কিন্তু সঞ্চয় বাড়বে বই কমবে না!

আরও পড়ুন: মাসে এই ৭টি কাজ স্রেফ একবার করতে পারলেই আপনার কোটিপতি হওয়া ঠেকায় কে!

৩. হিসাব করে গ্যাজেট ব্যবহার করুন

ac

এটাও এমন কিছু মুশকিলের ব্যাপার নয়! যেমন ধরুন, বাড়িতে এসি থাকলে সেটার তাপমাত্রা এমন জায়গাতেই বেঁধে রাখুন, যাতে ইলেকট্রিক বিল বাড়তে না পারে! অপ্রয়োজনে সারা বাড়ির আলো জ্বালিয়ে রাখবেন না! ল্যাপটপ বা কম্পিউটারে কাজ না করলে সেটাকে প্লাগ-ইন করে রাখবেন না, একেবারে শাট ডাউন করে দিন! এ ছাড়া ঠিক যে চ্যানেলগুলো দেখেন, সেগুলোর মতো হিসাব করেই কেবলের প্ল্যান বেছে নিন! সব মিলিয়ে দেখবেন, মাসে অনেকটা টাকাই বেঁচে যাচ্ছে!

৪. বিলাসিতার বহর ছেঁটে দিন

movie

খেটে-খুটে টাকা রোজগার করছেন, তা একেবারে নিজের আনন্দের জন্য ব্যয় করবেন না, তা আবার হয় না কি! কিন্তু সেটা একটু মেপে-বুঝে করুন! প্রতি সপ্তাহে ছবি দেখতে প্রেক্ষাগৃহে যাওয়া, রেস্তোরাঁয় খাওয়া- এগুলো একটু কমিয়ে আনুন না! দেখবেন, তাতেও টাকা বাঁচছে!

৫. মাসে কী না কিনলেই নয়, তার ফর্দ রাখুন

shopping

মাসের শুরুতেই যদি কী কী না কিনলেই নয়, তার একটা ফর্দ বানিয়ে রাখেন, তা হলে তখনই বুঝতে পারবেন, কতটা টাকা খরচ হতে পারে! সেইমতো বাকি টাকা সরিয়ে রাখুন! না হলে অপ্রয়োজনে অনেক কিছু কিনতে গিয়ে জলের মতো টাকা বেরিয়ে যাবে!

৬. কার্ডের বিল ঠিক সময়ে দিন

credit card

আপনার যদি অনেকগুলো ক্রেডিট কার্ড থাকে, তবে তার বিল ঠিক সময়ে মিটিয়ে দিন! না হলে কিন্তু দেরি হওয়ার জন্য সংস্থা টাকা কাটবে! বুঝতেই পারছেন, সেটা একটা বাজে খরচ ছাড়া আর কিছুই নয়!

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য দিন !
আপনার নাম লিখুন