তেঁতুলের বীজ দিয়ে সমস্যার সমাধান কী ভাবে হবে জেনে নিন
Rii
ঋ সরকার

তেঁতুল! কম-বেশি তেঁতুল খেতে অনেকেই ভালোবাসেন। সে তেঁতুলের আচার হোক কিংবা তেঁতুলের টক। জিভে যেন একেবারে জল এনে দেয়। কী ঠিক বলেছি তো?

আবার তেঁতুল দিয়ে পিতলের বাসন মাজলে যেন রুপোর মতো চকচক করে। এগুলো তো সবারই জানা বিষয়।

কিন্তু এটা কী জানেন? তেঁতুল দিয়ে অনেক কিছু সমস্যার সমাধান হতে পারে।

ভাবছেন খাওয়ার কাজে ছাড়া আবার তেঁতুল দিয়ে কী সমস্যার সমাধান হতে পারে। না, এখানে কিন্তু তেঁতুলের  পরিবর্তে কাজে লাগবে তেঁতুলের বীজ।

সেই কারণে বাড়িতে তেঁতুলের বীজ তো একটু জমিয়ে রাখতেই হবে। এখনো কী ভাবছেন? আর অত না ভেবে একবার জেনে নেবেন নাকি তেঁতুলের বীজ ঠিক কী কী কাজে লাগতে পারে।

আসুন জেনে নেওয়া যাক তেঁতুলের বীজে চারটি সমস্যার সমাধান-

১। ব্রণ 

উপকরণ 

৮-১০টি তেঁতুলের বীজ, টক দই, হলুদ

পদ্ধতি 

আগে তেঁতুলের বীজটাকে বেটে নেবেন। বেটে রাখা ওই বীজের মধ্যে ২ চামচ টক দই ও ১ চামচ হলুদ গুঁড়ো মিশিয়ে প্যাকটি বানিয়ে নিন। মুখের যেখানে ব্রণ রয়েছে সেখানে ভালো করে প্যাকটি লাগান। ১৫ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে হালকা উষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

২। দাগহীন ত্বক 

উপকরণ 

৭-৮টি তেঁতুল, টক দই

পদ্ধতি 

প্রথমে তেঁতুলটা বেটে নিতে হবে। বেটে রাখা তেঁতুলের মধ্যে ২ চামচ দই মিশিয়ে প্যাকটি বানিয়ে নিন। ১০-১৫ মিনিট মুখে প্যাকটি লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

৩। গলায় কালো দাগ 

উপকরণ 

১০-১২টি তেঁতুল বীজ, গোলাপ জল, মধু

পদ্ধতি 

তেঁতুল বীজটা আগে বেটে নিন। বেটে রাখা বীজের পেস্টের মধ্যে ২ চামচ গোলাপ জল, ২ চামচ মধু মিশিয়ে প্যাকটি বানিয়ে নিন। ২০ মিনিট গলার কালো জায়গায় লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে জল দিয়ে ধুয়ে নিন। সপ্তাহে ৩-৪ দিন এই প্যাকটি গলায় লাগান। দেখবেন আস্তে আস্তে গলার কালো দাগ মিলিয়ে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন: কপাল থেকে ব্রণ দূর করুন চারটি ঘরোয়া পদ্ধতিতে

৪। উজ্জ্বল ত্বক 

উপকরণ 

১০-১২টি তেঁতুল বীজ, মধু, সুজি, ময়দা

পদ্ধতি 

আগে তেঁতুল বীজটা বেটে নিন। তেঁতুলের পেস্টের মধ্যে ১ চামচ মধু, ২ চামচ সুজি, ২ চামচ ময়দা দিয়ে প্যাকটি বানিয়ে ফেলুন। ১৫-২০ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে হালকা উষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

মন্তব্য করুন

Please enter your comment!
Please enter your name here