বিয়ের আগে মুখের মেদ ঝরাতে সহজ ৫টি ব্যায়াম শিখে নিন

0
ফ্যাট2

ওয়েবডেস্ক : সামনেই বিয়ের দিন ঠিক হয়ে গিয়েছে? হাতে মাত্র ক’টা দিন। তাই বিয়ের কথা শুরু হওয়ার পর থেকে নিজেকে ঝরঝরে বানানোর জন্য ব্যায়াম যোগাসন নিয়মিত করছেন। ফলও পাচ্ছেন। কিন্তু মুখটা যেমন বেলুনের মতো ফোলা সেটাই রয়ে গিয়েছে। এক কণা মেদও সেখান থেকে ঝরাতে পারেননি। তাই মনের মধ্যে একটা খারাপ লাগা কাজ করছে। বিয়ের অমন সুন্দর সাজে সব ঠিক থাকলেও আসল ব্যাপারটাই মার খেয়ে যাবে। তাই বিরক্তও লাগছে খুব। কিন্তু না আর বিরক্ত লেগে কাজ নেই। বরং সঠিক পদ্ধতি প্রয়োগ করে মুখটাকেও চিকন করে ফেলুন। তার জন্য একটু ধৈর্য এবং একাগ্রতা প্রয়োজন।

আমাদের শরীর যেমন বহু রকমের মাংসপেশির সম্বন্বয়ে তৈরি। তাদের কাজও ভিন্ন। তেমনই আমাদের মুখও নানান রকমের পেশির সম্বন্বয়ে তৈরি। নয়-নয় করে প্রায় ৫০ রকমের পেশি রয়েছে। তাই তাদের ব্যবহার স্থান কাজ এবং তাদের মেদ কমানোর পদ্ধতি সবই আলাদা।

তাই শুধু শরীরের বিভিন্ন অংশের ব্যায়াম করে শরীরের বিভিন্ন অংশের মেদ কমানো গেলেও মুখের মেদ কমানো সম্ভব নয়। তা কমানো যাবে শুধুমাত্র মুখের ব্যায়ামের মাধ্যমেই। সেই মুখের ব্যায়ামও করতে হবে নিয়ম করে।

এ বার বরং জেনে নেওয়া যাক ব্যায়ামগুলো কী কী? করতেই বা হবে কেমন করে?

প্রথম ব্যায়াম –

প্রথমে চোখ বন্ধ করে চোখের ওপর আঙুল রেখে চোখের পাতা নিচের দিকে নামানোর সঙ্গে ভ্রু ওপরে তোলার চেষ্টা করতে হবে। এতে কপাল টান টান হবে। রোজ ৫ মিনিট করে এই ব্যায়াম করতে হবে। এতে চোখের তলায় জমে থাকা মেদ ঝরে যায়। এ ছাড়াও চোখ বন্ধ অবস্থায় চোখের মণি ওপর থেকে নিচে নামাতে হবে, ঠিক চোখ বন্ধ অবস্থায় কিছু দেখার চেষ্টা করার মতো করেই করতে হবে। টানা ১৫ মিনিট এই ব্যায়াম করা যেতে পারে। প্রতিদিন অন্তত একবার করে এই ব্যায়াম করলে উপকার পাওয়া যাবে।

দ্বিতীয় ব্যায়াম –

দ্বিতীয় ব্যায়ামে মুখ যতটা সম্ভব হাঁ করে খোলার চেষ্টা করতে হবে, যতক্ষণ না গালে, ঠোঁটে এবং থুতনিতে টান বা চাপ অনুভব হচ্ছে। এই ভাবে মিনিট দু’য়েক থাকার পরে ১০ থেকে ১৫ সেকেন্ড রিল্যাক্স করতে হবে। দিনে ৫ থেকে ৬ মিনিট এই পদ্ধতিতে ব্যায়াম করতে হবে। এর ফলে মুখের রক্ত সঞ্চালন বেড়ে যায় যা মুখের অতিরিক্ত মেদ ঝরাতে সাহায্য করে।

তৃতীয় ব্যায়াম –

এর পরের ব্যায়ামটিতে মুখের মধ্যে একটি বা দু’টি আঙুল ঢুকিয়ে যতটা সম্ভব জোরে চুষতে হবে। অথবা ওই একই ভঙ্গিতে মুখের ভেতরে হাওয়া টেনে গাল দু’টিকে যতটা সম্ভব সংকুচিত করতে হবে। সেলফি তোলার সময় অনেকেই ‘পাউট’ করে ছবি তোলে। এটা অনেকটা পাউট করার মতো। দিনে অন্তত ১০ বার যদি এই পদ্ধতিতে ব্যায়াম করা যায় তা হলে গালের ফোলা ভাব খুব তাড়াতাড়ি কমে যাবে।

চতুর্থ ব্যায়াম –

এ বার মাথাটা পেছন দিকে যতটা সম্ভব হেলিয়ে দিতে হবে। তারপরে দু’ হাত দিয়ে গালের ওপর সমান ভাবে চাপ দিতে হবে। একই সঙ্গে যতটা সম্ভব মুখ বন্ধ অবস্থাতেই হাসারও চেষ্টা করতে হবে। অন্তত ১০ মিনিট টানা এই ব্যায়াম করতে হবে। নিয়মিত করতে পারলে গাল থেকে অতিরিক্ত মেদ সহজেই কমে যাবে।

পঞ্চম ব্যায়াম –

শেষ ব্যায়ামটিতে ধীরে ধীরে মাথা যতটা সম্ভব পেছন দিকে হেলানো যায় হেলাতে হবে। যতক্ষণ না ঘাড়ে চাপ অনুভব হচ্ছে। এ বার চোয়াল ডান দিক থেকে বাঁ দিক এবং বাঁ দিক থেকে ডান দিকে ধীরে ধীরে ঘোরানোর চেষ্টা করতে হবে। দিনে অন্তত ৩ থেকে ৪ মিনিট করে মোট ৫ বার এই ব্যায়াম করতে হবে। এই ব্যায়াম করলে ঘাড় এবং গলার পেশি টান টান হয়। একই সঙ্গে ঘাড় এবং গলার অতিরিক্ত মেদও ঝরে যায়। ফলে ডবল চিনের সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

তা হলে আর এক দিনও দেরি না করে শুরু করেদিন মুখের এই ব্যায়ামগুলি। কয়েকদিনের মধ্যেই সুফল নিজেই বুঝতে পারবেন।

দেখুন – পেটের মেদ কমাতে ৫টি খুব সহজ ব্যায়াম

------------------------------------------------
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।
কোভিড১৯ বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করুনপশ্চিমবঙ্গ সরকারের জরুরি ত্রাণ তহবিলে দান করুন।।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.