গায়ের রং চাপা? ফর্সা হতে চান? বাসি রুটিতেই হতে পারে সমস্যার সমাধান

ওয়েবডেস্ক: বাড়িতে বসে আপনিও পেতে পারেন উজ্জ্বল গায়ের রং।

ভাবছেন কী করে? একটু অপেক্ষা করুন। সবটাই জানতে পারবেন। কিন্তু তার জন্য তো নিজেকে একটু কষ্ট করতেই হবে।

আরে ঘাবড়াবেন না। নিজেকে সুন্দর রাখবেন অথচ একটু সময় নিজের জন্য রাখবেন না তা বললে কী করে হয়। তাই বলে আবার ভাববেন না দুধের মতো ধবধবে ফর্সা গায়ের রং হবে।

ধরুন যাঁর গায়ের রং একটু শ্যাম বর্ণের বা বেশ কালো প্রতিদিন নিয়ম করে ঘরোয়া পদ্ধতিতে যদি ত্বকের যত্ন নেন তা হলে কিন্তু ১-২ মাসের মধ্যে আপনার ত্বকের রঙের উজ্জ্বলতা যেমন বাড়বে তেমনই জেল্লা দেবে। সেই সঙ্গে ফিরে পাবেন সুন্দর, নরম, মসৃণ ও কোমল ত্বক।

চলুন তা হলে জেনে নেওয়া যাক-

১। ছোলার ডাল

এত দিন হয়তো ভাবতেন ছোলার ডাল শুধু খাওয়ার কাজে লাগে। একেবারেই না! খুব সহজেই বাড়িতে বানিয়ে ফেলুন ছোলার ডালের প্যাক।

অর্ধেক বাটি ছোলার ডাল আগের দিন রাতে ভিজিয়ে রাখুন। ভিজিয়ে রাখা ছোলার ডালটি ভালো করে বেটে নিন। এর পরে বেটে রাখা ছোলার ডালের মধ্যে ২ চামচ দুধ ও ১ চামচ হলুদ  মিশিয়ে নিন। ২০ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

২। টকদই ও পুদিনা

ত্বকের রং পরিষ্কার করতে চাইলে একেবারে ঘরোয়া পদ্ধতিতে টকদই ও পুদিনা ব্যবহার করতে পারেন। নিয়মিত যদি ব্যবহার করেন ১ মাসের মধ্যে ফিরে পাবেন ত্বকের উজ্জ্বল রং।

আগে ১০-১২টি পুদিনা পাতা বেটে নিন। এর পরে বেটে রাখা পুদিনা পাতার মধ্যে ২ চামচ দই মিশিয়ে একটি প্যাক বানিয়ে নিন। ১৫-২০ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৩। বাসি রুটি, দুধ ও মধু

ত্বকের রং পরিষ্কার করার জন্য এতদিন নিশ্চই বাজার চলতি অনেক প্রসাধনী কিনে ব্যবহার করেছেন। কিন্তু তাতে কী আদৌ কোনো কাজ হয়েছে?

তা হলে সামান্য খরচে একটু ব্যবহার করেই দেখুন।

১টি বাসি রুটি, ৩ চামচ দুধ ও ১ চামচ মধু মিশিয়ে প্যাক বানিয়ে নিন। এর পরে ২০-৩০ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

আরও পড়ুন: ত্বককে টানটান রাখুন চারটি ঘরোয়া উপায়ে  

৪। আপেল, আঙুর ও কমলালেবু 

আগে করেই দেখুন। তবে না বুঝবেন। ঘরের এই উপাদানগুলিতে আপনার ত্বকের চাপা রং হয়ে উঠতে পারে উজ্জ্বল ও পরিষ্কার।

আগে ১ টুকরো আপেল বেটে নিন। এরপরে ৪-৫টি কমলালেবুর কোয়া এবং ৭-৮টি আঙুরের রসের সঙ্গে বেটে রাখা আপেল দিয়ে একটি প্যাক বানিয়ে নিন। ১০-১৫ মিনিট মুখে লাগিয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে জল দিয়ে ধুয়ে নিন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*


This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.