মেক-আপ না তুললে পড়তে পারেন এই পাঁচটি সমস্যায়

0
65

ওয়েবডেস্ক: প্রতি দিন খাবার খাওয়া থেকে স্নান করা যেমন আমাদের নিয়মমাফিক কাজের মধ্যে পড়ে, ঠিক তেমনই ত্বকের যত্ন প্রতি দিন নিতে হবে। কাজের চাপে হয়ত প্রতি দিন ত্বকের যত্ন নিয়ে উঠতে পারেন না। কিন্তু তার মধ্যে থেকেও সময় বের করে নিয়ে ত্বকের পরিচর্যা করুন।

বড়ো কর্পোরেট হাউসে চাকরি করুন কিংবা কোনো বিমানের বিমানসেবিকা, সব সময় নিজেকে সেজেগুজে সুন্দর রাখতে হয়। কিন্তু এটা কি জানা আছে, নিজেকে সুন্দর দেখতে লাগার জন্য সাজছেন ঠিকই, কিন্তু রাতে ঘুমানোর আগে সমস্ত মেকআপ তুলে ফেলা উচিত।
যদি আপনি মনে করেন মেক-আপ না তুললেও কোনো অসুবিধা হয় ন,। তা হলে আপনার ত্বকের ক্ষতি আপনি নিজে হাতেই করছেন।

চলুন জেনে নেওয়া যাক কী কী ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে

১। চোখে ইনফেকশন

বেশির ভাগ মেয়ের চোখে কাজল পরার অভ্যাস থাকে। পরতেই পারেন। কিন্তু সমস্যা তো অন্য জায়গায়। চোখে কাজল বা মাস্কারা যাই পরুন না কেন, রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে বা বাড়ি ফিরে চোখের কাজল তুলে ফেলুন। কারণ দিনের পর দিন চোখের মধ্যে কাজল নিয়ে রাতে ঘুমিয়ে পড়লে চোখ লাল হয়ে যাওয়া, চোখের মধ্যে জ্বালা জ্বালা ভাব, চোখ দিয়ে অনর্গল জল পড়ে যাওয়া ইত্যাদি নানা রকমের সমস্যা দেখা দেবে।

২। ব্ল্যাকহেডস

মুখের মেক-আপ থেকে চোখের মেক-আপ সব কিছুই রাতে শুতে যাওয়ার আগে পরিষ্কার করে শুতে যান। না হলে আপনি সমস্যায় পড়বেন। নাকের মধ্যে ব্ল্যাকহেডস চলে আসবে।

৩। ব্রণ

মুখে মেক-আপ করলে যত কাজই থাকুক রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে মেক-আপ তুলে ঘুমোতে যান। দেখবেন আপনার ত্বকের কোনো ক্ষতি হবে না। ঠিক ভাবে যদি ত্বকের পরিচর্যা না করেন তা হলে ব্রণর সমস্যায় ভুগবেন।

৪। ঠোঁট শুকিয়ে যাওয়া

সাজগোজের মধ্যে তো ঠোঁটও পড়ে। তাই ঠোঁটকে সাজানোর জন্য আমরা রং-বেরংয়ের লিপস্টিক ব্যবহার করে থাকি। অথচ সেই লিপস্টিকটা বাড়িতে এসে তুলে না ফেললে ঠোঁট শুকিয়ে যাবে। এ ছাড়া ঠোঁট ফাটার লক্ষণও দেখা দেবে।

৫। বয়সের ছাপ

যত বেশি মুখে মেক-আপ করবেন এবং সেই মেকআপ যদি না তোলেন খুব তাড়াতাড়ি ত্বকের মধ্যে বয়সের ছাপ চলে আসবে। এ ছাড়া ত্বকের মধ্যে রিঙ্কলস, চোখের নীচে কালো ছোপ ইত্যাদি নানা রকমের সমস্যা দেখা দেবে।

এক ক্লিকে মনের মানুষ,খবর অনলাইন পাত্রপাত্রীর খোঁজ

loading...

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here